ত্বকের যত্নে নারকেল তেল! (benefits of applying coconut oil on face)

ত্বকের যত্নে নারকেল তেল! (benefits of applying coconut oil on face)

চুলের পরিচর্যায় নারকেল তেলকে কাজে লাগানো হলেও ত্বকের যত্নে এই তেলটির ব্যবহার (Beauty Benefits of Coconut Oil) তেমন একটা চোখে পড়ে না। কারণ আজকের আধুনিকারা বাজার চলতি নানান কসমেটিক্সের উপরেই বেশি ভরসা রেখে থাকে। আর ঠিক সেখানেই করে ফেলে ভুলটা!


কিসের ভুল? বিজ্ঞান বলছে নারকেল তেলে (coconut oil) রয়েছে প্রচুর মাত্রায় উপকারি ফ্যাটি অ্যাসিড। সেই সঙ্গে মজুত রয়েছে আরও একাধিক পুষ্টিকর উপাদান, যা ত্বকের (face) জেল্লা বাড়াতে যেমন বিশেষ ভূমিকা পালন করে থাকে, তেমনি আরও একাধিক উপকারে মেলে। আর নারকেল তেলের দামটাও যে বাকি স্কিন কেয়ার কসমেটিক্সের থেকে কম, তা কি আর বলার অপেক্ষা রাখে! তাই এতক্ষণে নিশ্চয় তোমরা বুঝেই গেছো ত্বকের পরিচর্যায় (skin care) নারকেল তেলকে কাজে না লাগিয়ে কতটা ভুল করছো!


এখন প্রশ্ন হল ত্বকের যত্নে কী কী ভাবে কাজে লাগানো যেতে পারে নারকেল তেলকে?


১. মেকআপ রিমুভার হিসেবে কাজে লাগানো যেতে পারে:


coconut-makeup
তুলোতে অল্প পরিমাণে নারকেল তেল নিয়ে মুখে এবং চোখের নিচে লাগিয়ে কিছু সময় ঘষলেই দেখবে মেকআপ উঠেতে শুরু করেছে। সেই সঙ্গে আরও কিছু উপকার মিলবে। যেমন ধরো এই তেলটিতে উপস্থিত নানাবিধ উপকারী উপাদান স্কিনের ভিতরে প্রবেশ করার কারণে ত্বকের হারিয়ে যাওয়া আর্দ্রতা যেমন ফিরে আসবে, তেমনি মেকআপ করতে ব্যবহৃত নানান প্রসাধনীতে উপস্থিত রাসায়নিকের কারণে ত্বকের কোনও ধরনের ক্ষতি হওয়ার আশঙ্কাও আর থাকবে না। তবে নারকেল তেল দিয়ে মেকআপ তোলার পর মাইল্ড ফেস ওয়াশ দিয়ে মুখটা ভালো করে ধুয়ে নিতে ভুলো না যেন!


২. ঠোঁটের যত্নে কাজে আসে:


coconut-lips
সারা বছরই কি ড্রাই লিপসের সমস্যা পিছু ছাড়ে না। তাহলে এবার থেকে প্রতিদিন রাতে শুতে যাওয়ার আগে অল্প করে নারকেল তেল ঠোঁটে লাগিয়ে নাও। কিছু দিন এমনটা করলেই দেখবে ফাটা ঠোঁটের সমস্য়া (coconut oil uses for lips) আর ধারে কাছেও ঘেঁষতে পারবে না। এক্ষেত্রে আরেকটা জিনিস জেনে রাখা ভালো যে পরিমাণ মতো নারকেল তেলের সঙ্গে সম পরিমাণে ইউক্যালিপটাস অয়েল মিশিয়ে যদি নিয়মিত ঠোঁটে লাগানো যায়, তাহলে কিন্তু আরও বেশি মাত্রায় উপকার মেলে।


৩. ত্বকের বয়স কমে:


coconut-skin-age
নিয়মিত নারকেল তেল মুখে লাগিয়ে মাসাজ করলে ত্বকের ভিতরে উপকারি ফ্যাটি অ্যাসিডের মাত্রা বৃদ্ধি পেতে শুরু করে, যে কারণে একদিকে যেমন বলিরেখা সব গায়েব হয়ে গিয়ে ত্বকের বয়স কমে, তেমনি পুষ্টির ঘাটতি মিটে যাওয়ার কারণে সার্বিকভাবে ত্বকের স্বাস্থ্যের উন্নতি ঘটতেও সময় লাগে না। শুধু তাই নয়, যেমনটা আগেও আলোচনা করা হয়েছে যে নারকেল তেল ত্বককে আর্দ্র রাখে। ফলে স্কিন ড্রাই হয়ে গিয়ে নানান রকমের ত্বকের সমস্যায় আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা আর থাকে না বললেই চলে।


৪. ত্বকের সংক্রমণের মতো সমস্যা দূরে থাকে:


coconut-infection
প্রতিদিন নারকেল তেল মুখে এবং সারা শরীরে লাগিয়ে মাসাজ করলে ত্বকের ভিতরে অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল এবং অ্যান্টি-ফাঙ্গাস উপাদানের মাত্রা বৃদ্ধি পেতে শুরু করে। ফলে স্বাভাবিকভাবেই স্কিন ইনফেকশনের মতো সমস্য়া ধারে কাছেও ঘেঁষতে পারে না। তবে এমন সব উপকার পেতে কম করে পাঁচ মিনিট তেল মালিশ করতে হবে এবং তারপর স্নান করে নিতে হবে। ইচ্ছা হলে মাইল্ড ফেস ওয়াশের সাহায্যে আলাদা করে মুখ ধুয়ে নিতেও পারো।


POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!


এগুলোও আপনি পড়তে পারেন


সুন্দর চুলের যত্নে ব্যবহার করুন ক্যাস্টর ওয়েল বা রেড়ির তেল


Coconut Oil Benefits in Hindi