সুস্থ থাকতে চাও তো রোজ ২ টো করে কলা খাও! (benefits of eating 2 bananas a day)

সুস্থ থাকতে চাও তো রোজ ২ টো করে কলা খাও! (benefits of eating 2 bananas a day)

দুটো কলা কিনতে খরচ হবে কম-বেশি ১০ টাকা। আর কেনা মাত্র যদি ঝটপট খেয়ে ফেলা যায় (benefits of eating 2 bananas a day), তাহলেই দেখবে শরীর এবং মন হয়ে উঠবে চাঙ্গা! কারণ কলায় যে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে পটাশিয়াম, কার্বোহাইড্রেট, ফাইবার, প্রোটিন এবং আরও নানাবিধ উপকারি উপাদান, যা শরীরে প্রবেশ করা মাত্র এমন খেল দেখায় যে নানাবিধ শারীরিক উপকার মিলতে সময় লাগে না। যেমন ধরো...


আরও পড়ুনঃ কলার মোচার উপকারিতা


১. হার্টের স্বাস্থ্যের উন্নতি ঘটে:


banana-heart
হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকদের করা এক স্টাডিতে একথা প্রমাণিত হয়ে গেছে যে গত কয়েক বছরে আমাদের দেশের পাশাপাশি সারা বিশ্বেই মহিলাদের মধ্যে হঠাৎ করে হার্ট অ্যাটাকের প্রবণতা বেড়েছে চোখে পড়ার মতো। আর ঠিক এই কারণেই তো মেয়েদের প্রতিদিন দুটো করে কলা (banana) খাওয়ার প্রয়োজন রয়েছে। কারণ নিয়মিত এই ফলটি খাওয়া শুরু করলে শরীরে ফাইবারের মাত্রা বৃদ্ধি পেতে শুরু করে, যার প্রভাবে হার্টের স্বাস্থ্যের এতটাই উন্নতি ঘটে যে হঠাৎ করে হার্ট অ্যাটাক হওয়ার আশঙ্কা কমে, তেমনি নানাবিধ করোনারি হার্ট ডিজিজও ধারে কাছে ঘেঁষার সাহস পায় না।


২. পিরিয়ডের সময় শরীর এবং মন চাঙ্গা থাকবে:


banana-period
প্রতি মাসেই এই কয়েকটা দিন শরীরের যে কী হাল হয়, তা নিশ্চয় আর আলাদা করে বলে দিতে হবে না। তবে পিরিয়ডের সময়কার মুড সুইং এবং শারীরিক কষ্ট থেকে যদি দূরে থাকতে হয়, তাহলে রোজের ডায়েটে কলার (banana benefits) অন্তর্ভুক্তি মাস্ট! কারণ এই ফলটিতে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন বি৬, যা "রেড উইক", মানে পিরিয়ডের সময় শরীর এবং মনকে চাঙ্গা রাখতে বিশেষ ভূমিকা পালন করে থাকে।


৩. ব্লাড প্রেসার নিয়ন্ত্রণে থাকে:


banana-blood-pressure
চিকিৎসকেদের মতে মাত্রাতিরিক্ত স্ট্রেস এবং অনিয়ন্ত্রিত জীবনযাত্রার কারণে ব্লাড প্রেসারের মতো মারণ রোগে আক্রান্ত মহিলাদের সংখ্যা কিন্তু দিনে দিনে বৃদ্ধি পাচ্ছে। তাই তো এমন পরিস্থিতিতে নিজেকে যদি সুস্থ রাখতে হয়, তাহলে কলা (banana benefits for womens) না খেলে কিন্তু চলবে না! কারণ এই ফলটিতে মজুত রয়েছে প্রচুর পরিমাণে পটাশিয়াম, যা শরীরে প্রবেশ করার সঙ্গে সঙ্গে সোডিয়ামের মাত্রাকে কমাতে শুরু করে। ফলে স্বাভাবিকভাবেই রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যাওয়ার আশঙ্কা প্রায় থাকে না বললেই চলে!


৪. ব্রেন ফাংশানের উন্নতি ঘটে:


banana-brain
কলাতে উপস্থিত পটাশিয়াম এবং ম্যাগনেসিয়াম রক্তে মিশে যাওয়া মাত্র মস্তিষ্ক এবং তার পার্শ্ববর্তী অঞ্চলে অক্সিজেন সমৃদ্ধ রক্তের প্রবাহকে বাড়িয়ে তোলে। সেই সঙ্গে নার্ভ সেলের মধ্যে যাতে ইলেকট্রিকাল অ্যাকটিভিটি ঠিক মতো হয়, সেদিকেও খেয়াল রাখে। ফলে স্বাভাবিকভাবেই ব্রেন পাওয়ার বৃদ্ধি পেতে সময় লাগে না। আর মস্তিষ্কের ক্ষমতা বাড়লে মনোযোগ ক্ষমতার উন্নতি তো ঘটেই, সেই সঙ্গে বুদ্ধি এবং স্মৃতিশক্তির ক্ষমতা বাড়তেও সময় লাগে না।


৫. হজম ক্ষমতার উন্নতি ঘটে:


banana-digetion
ছেলে হোক কী মেয়ে। বাঙালি মানেই তো খাদ্য় রসিক! আর এদিক-সেদিকের টক-ঝাল খাবার খেতে গিয়ে যে মাঝে মধ্য়ে পেট বাবাজি বিগড়ে যাবেই, সে আবার নতুন কথা কী! তাই তো কব্জি ডুবিয়ে খাওয়ার মাঝে হজম ক্ষমতা যাতে দুর্বল হয়ে না যায়, তা সুনিশ্চিত করতে নিয়মিত কলা খাওয়া জরুরি! আসলে এই ফলটিতে উপস্থিত ফাইবার, হজম ক্ষমতার উন্নতি ঘটাতে যেমন বিশেষ ভূমিকা পালন করে থাকে, তেমনি বদহজম এবং গ্যাস-অম্বলের প্রকোপ কমাতেও দারুন কাজে দেয়। সেই সঙ্গে কোষ্ঠকাঠিন্যের মতো রোগকে দূরে রাখতেও কিন্তু ফাইবারের কোনও বিকল্প হয় না বললেই চলে!


POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!