চটজলদি বাড়িতেই তৈরি করে নিন সন্দেশ! (bengali sandesh recipe)

চটজলদি বাড়িতেই তৈরি করে নিন সন্দেশ! (bengali sandesh recipe)

তুমি-আমি যখন বাঙালি, তখন মিষ্টিতে (sandesh) যে অরুচি নেই, তা তো বলাই বাহুল্য! আর ভোজনরসিক বাঙালির প্রিয় মিষ্টির তালিকায় সন্দেশ থাকবে না, তা কখনও হয় নাকি! তাই তো এই লেখায় আজ তোমাদের জানাতে চলেছি চটজলদি সন্দেশ বানানোর সহজ একটি পদ্ধতি সম্পর্কে (bengali sandesh recipe)...


উপকরণ:


১. ৪ কাপ দুধ।
২. ১ কাপ চিনি।
৩. হাফ কাপ ভিনিগারে ২ টেবিল চামচ জল মিশিয়ে তৈরি করতে হবে একটা মিশ্রন।
৪. হাফ চা চামচ এলাচ গুঁড়ো।
৫. পরিমাণ মতো পেস্তা গুঁড়ো।


ingredients-food


ছানা তৈরির প্রণালী (recipe):


১. একটা বড় বাটিতে পরিমাণ মতো দুধ নিয়ে ভালো করে ফুটিয়ে নিতে হবে।
২. দুধটা যখন ফুটতে শুরু করবে তখন তাতে ভিনিগার এবং জল মিশিয়ে বানানো মিশ্রনটা যোগ করতে হবে। তবে একেবারে পুরো মিশ্রনটা মিশিয়ে দিও না যেন। বরং অল্প অল্প করে বারে বারে মিশ্রনটি দুধে যোগ করতে হবে। আর যখন পুরো মিশ্রনটা মেশানো হয়ে যাবে, তখন আঁচটা বন্ধ করে দিতে হবে।
৩. ১০ মিনিট অপেক্ষা করলে দেখবে দুধটা ছানায় পরিণত হয়েছে। এবার একটা সুতির কাপড় নিয়ে ছানা থেকে অতিরিক্ত জল বের করে নিতে হবে। প্রয়োজনে কাপড় মোড়ানো অবস্থাতেই ছানাটা একটু ধুয়েও নিতে পারো। আসলে এমনটা করলে ছানার স্বাদ আরও বাড়বে!
৪. এবার ছানাটা আরেকটা পরিষ্কার কাপড়ে নিয়ে কম করে ৩০ মিনিট ঝুলিয়ে রাখতে হবে। এমনটা করলে ছানার ভিতরে থাকা জল বেরিয়ে যাওয়ার সুযোগ পাবে।


method-food


সন্দেশ বানানোর প্রণালী (sandesh recipe):


১. একটা প্লেটে পরিমাণ মতো ছানা নিয়ে কম করে ৫-১০ মিনিট মাখতে হবে। ইচ্ছে হলে ছানাটা ব্লেন্ডারে ফেলে একটু ফেটিয়েও নিতে পারো।
২. এবার ছানার সঙ্গে পরিমাণ মতো এলাচ গুঁড়ো মিশিয়ে আরও একবার ছানাটা ফেটিয়ে নিতে হবে। কম করে ৫ মিনিট নাড়ানোর পরে চিনি মিশিয়ে আরও একবার ছানাটা মেখে নিতে হবে।
৩. ছানাটা মেখে নেওয়ার পর একটা পরিষ্কার ননস্টিক প্যান নিয়ে সেটি অল্প আঁচে একটু গরম করে নিয়ে তাতে ছানার মিশ্রনটি ফেলে ভালো করে নাড়াতে হবে। কম করে ৫-১০ মিনিট নাড়ানোর পর পুনরায় ছানাটা একটা বাটিতে নিয়ে ভালো করে মেখে নেওয়ার প্রয়োজন রয়েছে। এক্ষেত্রে ব্লেন্ডারের সাহায্যও নিতে পারো।
৪. ছানাটা ফেটানোর পর মিশ্রনটি একটা প্লেটে নিয়ে সঙ্গে সঙ্গে সন্দেশের আকার দিতে হবে। কারণ দেরি করলে ছানাটা এতটাই শক্ত হয়ে যাবে যে সেটিকে আর সন্দেশের আকার দেওয়া সম্ভব হবে না।
৬. সবশেষে সন্দেশের উপর একটু পেস্তা গুঁড়ো ছড়িয়ে পরিবেশন করতে হবে।


এক্ষেত্রে দুটো জিনিস মাথায় রাখার প্রয়োজন রয়েছে। এক তো হল, যদি হাতের কাছে নলেন গুড় থাকে, তাহলে চিনির পরিবর্তে গুড় দিয়েও সন্দেশ বানানো যেতে পারে। তাতে স্বাদ বাড়বে বৈকি! আরও যে বিষয়টি খেয়াল রাখতে হবে, সেটা হল ছানায় চিনি মেশানোর পর ইচ্ছা হলে গরম নাও করতে পারেন। তাতে ছানাটা শক্ত না হয়ে নরম থাকবে, আর তখন সেটা সন্দেশের পরিবর্তে কাঁচা গোল্লা (makha sandesh recipe) হিসেবেও পরিবেশন করা যেতে পারে।


ছবির কৃতজ্ঞতা স্বীকার: foodviva,youtube,the spruce eats


POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!