মাত্র ৪০ টাকায় কলকাতায় আজও মেলে ভরপেট খাবার (Find tasty food under rupees 40 in Kolkata)

মাত্র ৪০ টাকায় কলকাতায় আজও মেলে ভরপেট খাবার (Find tasty food under rupees 40 in Kolkata)

আপনার পকেটে এখন কত টাকা আছে? এই না, আমি পকেটমার নই! কী বলছেন? মাত্র (cheap) চল্লিশ টাকা (40 rupees)? এদিকে পেটে ছুঁচোয় ডন বৈঠক দিচ্ছে? আরে চল্লিশ টাকা (40 rupees) আছে মানে আপনি তো রানি! জানেন কি আজও এই শহরে গোটা চল্লিশ টাকা (40 rupees) পার্সে থাকলেই ভরপেট খাওয়া (food) খাওয়া যায়? অ্যাঁ? স্বপ্ন দেখাচ্ছি? মোটেও না। চলুন না আমার সাথে, এই শহরের (Kolkata) পথে আমরা হেঁটে দেখি কোথায় সেই সুখের স্বর্গ। পকেটে চল্লিশ টাকা নিয়েই বেরোতে পারেন। পেট (food) আর মন দুটোই ভরে যাবে দায়িত্ব নিয়ে বলছি।


বাসে করে সোজা চলে আসুন আমাদের অফিস পাড়ায় Kolkata)। মানে এই ডালহোউসি চত্বর (Kolkata) আর এসপ্ল্যানেডের আশেপাশে (cheap)। ডেকার্স লেন আর ক্যামাক স্ট্রিটের মোড় থেকে সোজা যে রাস্তাটা গিয়ে পার্কস্ট্রিটে মিশেছে সেটাও যোগ করুন এর মধ্যে। ব্যাস আপনার সস্তা (cheap) আর সুস্বাদু খাবারের স্বর্গ মার্ক আউট হয়ে গেল। এবার দেখা যাক কী কী খাবার পাওয়া যাবে চল্লিশ টাকার মধ্যে।


rs 40


চিনে খাবার


cheapchine


হিন্দি চিনি ভাই ভাই হোক আর ছাই না হোক বাঙালিরা বাপু চিনে খাবার ছাড়া থাকতে পারে না। আর তাই কলকাতায় চিনে রেস্তরাঁ গণ্ডায় গণ্ডায়। আর এদিক সেদিক চোখ ফেরালেই দেখা যাবে চাউমিন, চিলি চিকেন আর ফ্রায়েড রাইসের ছোট ছোট দোকান। ভেজ, চিকেন আর এগ চাউমিন আর ফ্রায়েড রাইস আর দু পিস চিলি চিকেনের জন্য গড়ে খরচ হবে ৩০ থেকে ৪০ টাকা। অনেক অফিসযাত্রী আবার চিলি চিকেন দিয়ে পরোটা খান। তার খরচ আরও কম। দুটো পরোটা আর চিলি চিকেন কলকাতায় মেলে ৩৫ টাকায়।


ঘুগনি আর পাউরুটি


ghughni


ভোরবেলার ট্রেনে দৌড়তে দৌড়তে কলকাতায় আসা অফিসযাত্রী বা সকাল বেলার কলেজে ক্লাস করতে আসা কলেজের ছেলেমেয়ে, ব্রেকফাস্টে সবার পছন্দের তালিকায় উপরের দিকে থাকবে ঘুগনি আর পাউরুটি। এক প্লেট ঘুগনি আর দু পিস পাউরুটির দাম মাত্র ২০ টাকা। উপরি পাওনা উপরে কাঁচা পেঁয়াজ আর লঙ্কার কুচি।


ডিম টোস্ট


eggtoast


ব্রেকফাস্টের কথা যখন উঠল তখন ডিম টোস্টের কথা কি বাদ দেওয়া যায়। আপনি ভাবছেন এ আর এমন কী খাবার। এতো আপনি আর আমি হামেশাই বাড়িতে খাই। সে আপনি খেতেই পারেন। কিন্তু খড়দা থেকে সাত সকালে ইন্টারভিউ দিতে আসা ঘোষদা, সোনারপুর থেকে মেয়ের বিয়ের বাজার করতে আসা তনিমাদি বা ক্লায়েন্টের আবদারে সাত সকালে মিটিংয়ে আসা সেলসম্যান দত্তবাবু ওদের কিন্তু আয়েশ করে বাড়ি থেকে ব্রেকফাস্ট করার সময় থাকে না। কুছ পরোয়া নেহি। রয়েছে সস্তা, সুস্বাদু এবং পুষ্টিকর ডিম টোস্ট। এটা একেকজন একেকভাবে খেতে পছন্দ করে। কেউ খায় পাউরুটি আর ডিম সেদ্ধ। কারও পছন্দ ওমলেট। কেউ বা হাফ বয়েল ডিম পাউরুটির উপরে লাগিয়ে তার উপর গোল মরিচ, কাঁচা পেঁয়াজ ও লঙ্কা কুচি ছড়িয়ে খায়। আর এই শেষেরটির চাহিদা সবচেয়ে বেশি।সব কটারই দাম ২০ থেকে ৫০ এর মধ্যে।


ইডলি দোসা আর বড়া


idli


সবচেয়ে সস্তা আর পুষ্টিকরের তালিকায় এক নম্বরে থাকবে এই খাবার। যাদের একটু বেশি তাড়া থাকে এই দক্ষিনি খাবার তাদের বেশি পছন্দের। কলেজ পড়ুয়ারা বিশেষ করে ইডলি প্লেট বেশি পছন্দ করে। ক্লাসের সময় হয়ে গেলেই বাকি ইডলি টিফিন বাক্সে পুরে নেওয়া যায়। বয়স্ক মানুষরাও বেশি পছন্দ করেন এটি কারণ এতে বেশি ঝাল মশলা থাকে না। সাদা দোসা এখানে পাওয়া যায় ২৫ টাকায় আর মশলা দোসার দাম ৩০ থেকে ৩৫ এর মধ্যে।


বিরিয়ানি আর মুঘলাই পরোটা


cheapfood5


চিনেদের সাথে পাল্লা দিয়ে লড়ছে মুঘলরাও! উঁহু, ইতিহাসের কথা বলছি না। বলছি খাবারের কথা। এখানে এখনও পঞ্চাশ টাকায় ভরপেট বিরিয়ানি পাওয়া যায় ডিম সমেত! নিজের কানকে বিশ্বাস করতে পারছেন না তো? একদম সত্যি বলছি। ৩৫ থেকে ৪০ টাকার মধ্যে পাওয়া যায় মুঘলাই পরোটাও। ও হ্যাঁ, বলতে ভুলে গেছি বিরিয়ানির সঙ্গে স্যালাড এখানে একদম ফ্রিতে দেওয়া হয়!


Picrure Courtsey: Instagram 


POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!