ফুটের থেকে শপিং করার সময় এই ২০টা ভাবনা মাথায় আসবেই আসবে!

ফুটের থেকে শপিং করার সময় এই ২০টা ভাবনা মাথায় আসবেই আসবে!

যতই সাউথ সিটি বা কোয়েস্টে শপিং করি না কেন, হাতিবাগান বা গড়িয়াহাটে ফুটের থেকে দরাদরি করে শপিং করার মজাই আলাদা। ঝেড়ে বেছে, দশটা দোকান ঘুরে পঞ্চাশটা জিনিস দেখে ৫০০ টাকার কুর্তি ১৫০ টাকায় কেনার পর যে একটা যুদ্ধজয়ের অনুভূতি হয়, সেটা ঠিক বলে বোঝানো যায় না। আর সত্যি কথা বলতে কি, এই অনুভূতিটা একমাত্র মেয়েরাই বুঝতে পারবে।



via GIPHY


যদিও এখন এই ডিজিটাল যুগে বাইরে গিয়ে শপিং করার থেকে অনলাইন শপিং করাটাই অনেকে বেশি পছন্দ করেন, তবুও ফুটের থেকে কেনাকাটা করার একটা আলাদা আকর্ষণ রয়েছে। যখন আপনি কলকাতায় হাতিবাগান বা গড়িয়াহাটে শপিং করতে যান, তখন সেটা শুধুমাত্র শপিং-এই সিমাবদ্ধ থাকে না, পেটপুজোও হয় বটে! তাছাড়া street shopping যে কলকাতার একটা ঐতিহ্যও বটে, সেটা বললে অত্যুক্তি করা হবে না। কি বলেন?


ধরুন আপনি গড়িয়াহাট বা হাতিবাগানে ফুটের থেকে শপিং করতে গেলেন, অনেক দরাদরির পর দোকানদার আপনার বলা দামেই জিনিসটি দেবেন বলে কথা দিলেন, কিন্তু ঠিক তখনই পাশ থেকে অন্য একজন বলে উঠলো। “দাদা ওটা আমাকে দিয়ে দিন, আমি আপনার বলা দামেই কিনবো”, কেমন লাগবে বলুন তো? কষ্ট হবে, রাগ হবে, মনে হবে যেন আপনি জেতা যুদ্ধ হেরে গেলেন! আমার তো এই চিন্তাটা মাথায় আসতেই বুকটা কেমন কেঁপে উঠলো! এরকমই অনেক রকমের ভাবনা আমাদের মাথায় ঘোরে যখন আমরা ফুটের থেকে শপিং করতে যাই –


Street Shopping করার সময়ে এই ২০টা ভাবনা মাথায় ঘুরবেই  


১। জিনিসটা কি খুব সস্তা বলে বোঝা যাচ্ছে?


২। আমার কলিগরা যদি বুঝতে পারে যে আমি ফুট থেকে কিনেছি?


৩। দোকানদার যা দাম বলবে আমি তার থেকে ২০০ টাকা কম বলব


৪। যদি না মানে জাস্ট হাঁটা লাগাবো, আমাকে ঠিক আবার ডাকবে



via GIPHY


৫। আরেকটু দরাদরি করলে বোধয় আরেকটু দাম কমাবে


৬। আচ্ছা, জিনিসটা ডিফেক্টিভ নয় তো?


৭। আমি যার থেকে কিনি, সেই লোকটা কোথায় গেল?


৮। যদি আমার দামে না দেয়? যদি অন্য কেউ বেশি দাম দিয়ে কিনে নেয়?


৯। আরেকবার কি ফিরে যাবো?



via GIPHY


১০। না থাক, আর কয়েকটা দোকান দেখি


১১। উফ বাবা! কি গরম আর ভিড়! এতো লোকের শপিং করার কি আছে বুঝি না


১২। অবশ্য আমিও তো এই ভিড়েরই অংশ। আমাকে দেখেও হয়তো অন্যরা তাই ভাবছে


১৩। একটু মোমো খাই। দরাদরি করে হাঁপিয়ে গেছি, খিদেও পেয়েছে।



via GIPHY


১৫। যা বাবা! দোকানটা কোথায় ফেলে এলাম?


১৬। না, অন্য দোকানে তো আগের দোকান থেকেও বেশি দাম বলছে, আর কমাচ্ছেও না দামটা।


১৭। যাই ওই দোকানটাতেই যাই আরেকবার


১৮। বাবা, কেউ নেয়নি এখনো, আমি কিনেই ফেলি জিনিসটা।


১৯। দোকানের লোকটা কি ভাবছে আমার সম্বন্ধে কে জানে!



via GIPHY


২০। বাড়ি গিয়ে কেচে নিয়ে তারপরেই ড্রেসটা পরতে হবে, কতজনের হাত লেগেছে কে জানে! 


গ্রাফিক্স সৌজন্যেঃ Giphy 


POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!