জেনে নিন, Conjunctivitis বা চোখ ওঠার কারণ, উপসর্গ এবং উপশমে কী কী করণীয়

জেনে নিন, Conjunctivitis বা চোখ ওঠার কারণ, উপসর্গ এবং উপশমে কী কী করণীয়

বর্ষাকাল অনেকেরই খুব পছন্দের। বাইরে বৃষ্টি দেখতে দেখতে যদি এক কাপ ধোঁয়া ওঠা চা আর সঙ্গে ‘টা’-ও পাওয়া যায়, জীবনটা স্বর্গ হয়ে যায় তাহলে! কিন্তু বর্ষাকালের কি সবই ভাল? জলবাহিত নানা অসুখ এবং জীবাণু সংক্রমণ কিন্তু এ’সময়েই বেশি হয় আর এই জীবাণু সংক্রমণের মধ্যে খুব কমন হল conjunctivitis বা সাধারণত আমরা যাকে বলি ‘চোখ ওঠা’। বর্ষায় অনেকেই চোখ ওঠার সমস্যায় ভোগেন। যদিও এতে দৃষ্টিসংক্রান্ত কোনও সমস্যা হয় না বা চোখ ওঠা মারাত্মক কোনও একটি রোগ নয় তবুও এটি খুবই অস্বত্বিকর। চোখ ওঠার কিন্তু ঘরোয়া চিকিৎসা সম্ভব, তবে তার আগে একবার চট করে জেনে নিন কেন চোখ ওঠে এবং আরও কিন্তু গুরুত্বপূর্ণ তথ্য।

চোখ ওঠা ব্যাপারটা কী?

শাটারস্টক

আমাদের চোখের সাদা অংশের ওপরে একটি পাতলা পর্দা বা টিসু থাকে, একে conjunctiva বলা হয়। এই টিসুতে যখন কোনও কারণে জীবাণু সংক্রমণ হয় তখন তা লাল হয়ে যায় এবং একেই conjunctivitis বা চোখ ওঠা বলা হয়।

চোখ ওঠার লক্ষণ

অনেকসময়েই কিন্তু ঠাণ্ডা লাগা আর চোখ ওঠার মধ্যে অনেকে পার্থক্য করতে পারেন না, ফলে বুঝতে পারেন না যে তাঁর conjunctivitis-এর সমস্যা হল কিনা। চোখ ওঠার লক্ষণগুলি হল –

  • চোখ ফুলে যায় এবং বেশ ব্যাথা হয়
  • চোখ খুব বেশি মাত্রায় লাল হয়ে থাকে
  • দু’চোখের পাতা অনেকসময়ে লেগে যায় এবং খুলতে অসুবিধে হয়
  • চোখ থেকে হলদে পিচুটি বেরতে পারে, বিশেষ করে সকালে ঘুম থেকে ওঠার সময়ে এই সমস্যা বেশি দেখা দেবে
  • চোখ থেকে সব সময়েই জল পড়ে এবং চোখ জ্বালা করে
  • চোখের দৃষ্টিশক্তি কিছুক্ষণের জন্য ক্ষীণ হয়ে যায়
  • চোখ সব সময়েই চুলকোয়

চোখ ওঠার কারণ

শাটারস্টক

প্রথমের যেমন বললাম সাধারণত চোখের সাদা অংশের ওপরে যে পাতলা টিসু থাকে তাতে জীবাণু সংক্রমণের থেকেই conjunctivitis হয়। তবে আরও অন্যান্য কারণেও চোখ উঠতে পারে

  • কোনও শ্যাম্পুর কোনও নির্দিষ্ট উপকরণ যদি আমাদের সহ্য না হয় তাহলে আমাদের চোখে তা এই সমস্যা তৈরি করতে পারে
  • পরিবেশ দূষণ, ধোঁয়া, ধুলো ইত্যাদি চোখে গেলে সেখান থেকেও চোখ লাল হয়ে এই সমস্যা দেখা দিতে পারে
  • কোনও অ্যালার্জি থেকেও চোখ উঠতে পারে

চোখ উঠলে কী কী করবেন আর কী কী করবেন না

শাটারস্টক

চোখ উঠলে ডাক্তারের পরামর্শ তো অবশ্যই নেবেন কিন্তু বাড়িতেও কয়েকটি বিষয় মেনে চলবেন যাতে এই সমস্যা থেকে দ্রুত মুক্তি পেতে পারেন -

কিছুদিন বাইরে বেরবেন না – চোখ উঠলে অন্তত দু’তিনদিন বাইরে বেরবেন না। বাইরে বেরলেই চোখে ধুলো, ধোঁয়া ইত্যাদি লাগার আশঙ্কা রয়েছে এবং এই সময়ে যেহেতু আমাদের চোখ সংবেদনশীল থাকে কাজেই ধুলো এবং ধোঁয়ায় চোখের টিসু আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কাও বেড়ে যায়।

অ্যান্টিব্যাক্টেরিয়াল সাবান দিয়ে হাত ধুতে হবে – প্রথমত চোখে হাত দেওয়া বা চোখ চুলকোনো চলবে না। যদি একান্তই চোখে হাত দিতেই হয় তাহলে তার আগে ভাল করে অ্যান্টিব্যাক্টেরিয়াল সাবান দিয়ে হাত ধুয়ে নিন যাতে হাত থেকে জীবাণু চোখ পর্যন্ত না পৌঁছয়।

বালিশ এবং বিছানার চাদর পরিষ্কার রাখুন – ময়লা বালিশের কভার বা ময়লা চাদরে কিন্তু প্রচুর ব্যাক্টেরিয়া থাকে যা আপনি বা আমি খালি চোখে দেখতে পাই না। conjunctivitis হলে যদি আরও বেশি জীবাণু সংক্রমণ হয় তাহলে সমস্যা বাড়বে বৈ কমবে না, আর ময়লা বালিশ-বিছানা থেকে জীবাণু সংক্রমণ হওয়া অস্বাভাবিক নয়।

এছাড়াও যে বিশয়গুলো মাথায় রাখবেন - 

  • চোখ পরিষ্কার করুন মাঝেমাঝেই
  • লেন্স পরবেন না
  • উষ্ণ জলে চোখ ধোবেন
  • পোলারাইজড সানগ্লাস ব্যবহার করুন

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

আপনি যদি রংচঙে, মিষ্টি জিনিস কিনতে পছন্দ করেন, তা হলে POPxo Shop-এর কালেকশনে ঢুঁ মারুন। এখানে পাবেন মজার-মজার সব কফি মগ, মোবাইল কভার, কুশন, ল্যাপটপ স্লিভ ও আরও অনেক কিছু!