পোশাকের পছন্দ দেখেই বলে দেওয়া যায় কোনও মানুষের ব্যক্তিত্ব কীরকম in Bengali | POPxo

আপনার পোশাকই বলে দেবে আপনি মানুষটা ঠিক কীরকম! আমাদের দেওয়া কুইজটি ফলো করুন

আপনার পোশাকই বলে দেবে আপনি মানুষটা ঠিক কীরকম! আমাদের দেওয়া কুইজটি ফলো করুন

ভেবে দেখতে গেলে, এই ব্যাপারটা এমন কিছু কঠিন নয়! আপনি রোজ কী ধরনের পোশাক পরেন, তা দেখে এমনিতেই তো আন্দাজ করে নেওয়া যায় আপনি মানুষটা কেমন! মানে, আপনি খাঁটি ভারতীয় সাজে যদি রোজ সেজে বেরোন, উৎসবে-অনুষ্ঠানেই হোক কিংবা অফিসে যাতায়াতে যদি শাড়ি কিংবা সালোয়ার-কুর্তায় আপনি স্বচ্ছন্দ বোধ করেন, তা হলে ধরে নেওয়া যেতে পারে যে আপনি আসলে ভারী সনাতনী, যা কিছু ভারতীয়, তাতে আপনার ভারী আগ্রহ। সব সময় নিজ দেশের এক টুকরো সংস্কৃতি আপনার সঙ্গী হোক, এমনটাই পছন্দ আপনার। কিন্তু যদি আপনি পশ্চিমি পোশাকে বেশি স্বচ্ছন্দ হন, জিনস-টপ যদি আপনার শয়নে-স্বপনে-জাগরণে বাসা বেঁধে থাকে, তা হলে ধরে নিতে হবে আপনি আসলে বেশ আধুনিকা, পশ্চিমি আদবকায়দার প্রতি আপনার বেশি টান। এ তো জানা কথাই! আজ্ঞে না! বিশেষজ্ঞরা বলছেন, পোশাকের (dress) সঙ্গে মানুষের ব্যক্তিত্বের (personality) যোগাযোগ নাকি আরও অনেকই গভীর! তাঁরা সমীক্ষা-টমিক্ষা করে নাকি বের করেছেন যে, স্রেফ একজন মানুষের জুতো দেখেই নাকি তাঁর সম্বন্ধে অনেক কিছু বলে দেওয়া সম্ভব! তাঁর বয়স মোটামুটি কেমন, তিনি সমাজের কোন স্তরের বাসিন্দা, তিনি কীরকম রোজগারপাতি করেন, মায় কোন রাজনৈতিক মতাদর্শে তিনি বিশ্বাস করেন, জানা যাবে এসবই!

আমরা অবশ্য এত ডিটেলে যাচ্ছি না। আমরা একটা কুইজ (quiz) খেলব আপনাদের সঙ্গে। সেই উত্তরের উপর নির্ভর করে আপনি নিজেই দেখে নিতে পারেন, বিশেষজ্ঞদের দাবিটা সত্যি কিনা...

 

আপনার আলমারি খুললে কী দেখা যাবে?

ক. মিক্স অ্যান্ড ম্যাচ করে পরা সম্ভব, এমন অনেক পোশাক আছে সেখানে। হতে পারে, অনেক ধরনের দোপাট্টা, কুর্তা, স্কার্ফ, ডেনিম, ব্লাউজ ইত্যাদি ধরনের পোশাক বেশি আছে, যা অনেক কম্বিনেশনে পরা যায়!

খ. নানা ধরনের পোশাকে আপনার আলমারিটি সমৃদ্ধ! মানে, আপনি কোনও সময়েই ব্যাকডেটেড হবেন না! বুটকাট ডেনিম থেকে শুরু করে ববি প্রিন্ট কুর্তা, মাছ আঁকা শাড়ি থেকে শুরু করে ক্লাসিক সাদা শার্ট, এরকম নানা সময়ের নানা ট্রেন্ডি পোশাকে আপনার আলমারিটি ভর্তি।

গ. আপনার আলমারিটি ভর্তি নানা রঙয়ের পোশাকে। কোনও একটি বিশেষ রংয়ের আধিক্য নেই সেখানে, কিন্তু সব রঙই বেশ উজ্জ্বল। সাদা কিংবা অফ হোয়াইট প্রায় ব্রাত্য়ই আপনার কাছে।

২. আপনি কীভাবে শপিং করতে পছন্দ করেন?

ক. খুবই গুছিয়ে, সিস্টেম্যাটিক ওয়েতে। মানে, শপিংয়ে বেরনোর আগে একটা ডিটেলে লিস্ট বানিয়ে নেন আপনি। তারপর সেই লিস্ট ধরে-ধরে এক-একটা আইটেম কেনেন। তবে লিস্টের বাইরে একদম যান না। আর সেদিন জিনিস পছন্দ না হলে খালি হাতেই বাড়ি ফিরে আসেন!

খ. আপনি হলেন গিয়ে ইমপালসিভ বায়ার! হয়তো উইন্ডো শপিংয়ে বেরিয়েছিলেন, কিন্তু যেই না কিছু ভাল লাগল, অমনই দুমদাম কিনে ফেললেন দাম কিংবা প্রয়োজনের তোয়াক্কা না করেই!

গ. আপনি শপিং নিয়ে মাথা ঘামানোটা একেবারেই পছন্দ করেন না। যদি দরকার থাকে, আর পছন্দ হয়, তা হলে পছন্দমতো জিনিস কিনে নেন।

৩. কোথাও বেরনোর আগে সেজেগুজে তৈরি হতে আপনার কতটা সময় লাগে?

ক. কোথায় কীরকম সাজবেন, সেটা আপনি আগে থেকেই ছকে রেখে দেন। অন্তিম সময়ে আলমারি খুলে মাথায় হাত দিয়ে বসাটা আপনার একেবারেই না-পসন্দ। তাই অন্যদের চেয়ে অনেক আগেই আপনি রেডি হয়ে যান।

খ. সাজতে কতক্ষণ লাগবে, তা নির্ভর করবে আপনি সেদিন কোথায় যাচ্ছেন, তার উপর! বিয়েবাড়ি যাওয়ার জন্য সাজতে গেলে যতক্ষণ লাগবে, বন্ধুদের সঙ্গে নাইট আউটে মোটেও ততক্ষণ লাগবে না।

গ. পরিচিত মহলে আপনি লেটলতিফ বলে কুখ্যাত! কোনও জায়গায় যাওয়ার আগে অন্তত বারকয়েক পোশাক আপনি পাল্টাবেনই! কিছুতেই আসলে সাজটা ঠিক মনের মতো হয় না আপনার!

৪. যদি কোনও অনুষ্ঠানে গিয়ে দেখেন যে, অন্য কেউ ঠিক আপনার মতোই পোশাক পরেছে আপনি...

ক. ভারী খেপে যান! এ আবার কী! তাড়াতাড়ি ওয়াশরুমে গিয়ে লিপস্টিকটা পাল্টে নেন কিংবা চুলটা একটু কায়দা করে বেঁধে ফেলেন! মানে, যাতে নিজেকে একটু হলেও অন্যরকম দেখানো যায় আর কী!

খ. বিমর্ষ হয়ে পড়েন! ধুস, এত ভেবেচিন্তে পোশাকটা বাছলেও, তারপরেও...মুখ বেজার করে অন্য দিকে সরে যান, যাতে আপনাদের পাশাপাশি অন্তত দেখা না যায়!

গ. ভারী মজা পান! বেশ মজার কাণ্ড তো! চট করে গিয়ে তার সঙ্গে একটা সেলফি তুলে উই আর সেম সেম, বাট ডিফারেন্ট বলে নিজের ইনস্টাগ্রামে পোস্টান!

এবার উত্তরের পালা...

pixabay
pixabay

  • বেশিরভাগ প্রশ্নের উত্তর যদি ক হয়...

আপনারা ভাই ভারী করিতকর্মা গোছের মানুষ! সবকিছুই আপনারা আগে থেকে প্ল্যান করে রাখতে পছন্দ করেন এবং সেই মতো কাজও করেন! আপনারা প্রোঅ্যাক্টিভও বটে। মানে, যতটা করা দরকার, তার চেয়ে বেশিটাই আপনারা করে রাখতে পছন্দ করেন। সব সময় এক ধাপ এগিয়ে গিয়ে ভাবেন। এই ধরনের লোকেরা জীবনে ভারী অ্যাম্বিশাস হন, নিজেদের চাওয়াপাওয়াগুলো সঠিক ভাবে বুঝে নিতে পারেন এবং আপনার জীবন খাতার জমা-খরচের হিসেবটার ভারী পাকা!

  • বেশিরভাগ প্রশ্নের উত্তর যদি খ হয়...

উত্তম নিশ্চিন্তে চলে অধমের সাথে, তিনিই মধ্যম যিনি চলেন তফাতে! আপনি হলেন এই মধ্যমবর্গীয় মানুষ। আপনি দরকারে এগিয়ে গিয়ে সকলকে নেতৃত্ব দেবেন, আবার দরকার পড়লে টিমের এগারো নম্বর খেলোয়াড় হতেও আপনার কোনও আপত্তি নেই। মানে, আপনি যখন যেমন, তখন তেমন হয়ে যেতে পারেন। তাতে আপনার কোনও সমস্যা হয় না, ইগোতেও টান পড়ে না!

  • বেশিরভাগ প্রশ্নের উত্তর যদি গ হয়...

আপনি এক্কেবারে ঠান্ডা-ঠান্ডা, কুল-কুল টাইপের লোক! জীবনযাপন নিয়ে আপনি খুব বেশি ভাবেন না। যেমন চলছে, তেমনটাই চলতে দেন! বরং আপনি সবকিছু এনজয় করতেই পছন্দ করেন! ছাতা না নিয়ে বেরিয়ে যদি ঝমঝম করে বৃষ্টি পড়ে তা হলেও আপনি রেগে যান না, আবার সারা মাস ছাতা ব্যাগে বয়ে যাতায়াত করলেন অথচ একদিনও বৃষ্টি পড়ল না বলে উপরওয়ালার অবিচারের উপর রেগেও যান না! আপনি যে-কোনও টিমের সম্পদ। কারণ, আপনার মাথাটি জন্মসূত্রে এসি-প্রাপ্ত!

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

আপনি যদি রংচঙে, মিষ্টি জিনিস কিনতে পছন্দ করেন, তা হলে POPxo Shop-এর কালেকশনে ঢুঁ মারুন। এখানে পাবেন মজার-মজার সব কফি মগ, মোবাইল কভার, কুশন, ল্যাপটপ স্লিভ ও আরও অনেক কিছু!