মনখারাপের ব্যামোয় ধরেছে? কিছুই ভাল লাগছে না? এই ১০টি টোটকা মেনে আবার চাঙ্গা হয়ে উঠুন

মনখারাপের ব্যামোয় ধরেছে? কিছুই ভাল লাগছে না? এই ১০টি টোটকা মেনে আবার চাঙ্গা হয়ে উঠুন

মনখারাপ কেন হয়, তা জানি না বাপু। কিন্তু মনখারাপ হলে সত্যজিতের ভাষায় কানের পিছনটা লাল আর হাতের তালু খসখসে হয়ে যায়। তখন কিচ্ছুটি ভাল লাগে না। সব সময় ডাক ছেড়ে কাঁদতে ইচ্ছে করে আর কাউকে ভালবাসতে মন চায় না। এমনটা আপনাদের হয় কিনা জানি না, তবে আমার তো মাঝেমধ্যেই হয়। কেন হয়, তার পিছনে নিশ্চয়ই বিজ্ঞানসম্মত কোনও ব্যাখ্যা আছে। কিন্তু সবকিছু নিয়েই যদি তর্কের কচকচি উপস্থিত হয়, তা হলে মন এমনিতেই আরও খারাপ হয়ে যাবে! তার চেয়ে যদি জানা যেত মনখারাপ (mood) কাটানোর দাওয়াই, তা হলে কাজের কাজ হত।

মনে আছে, সেই কোন আদ্যিকালে সাউন্ড অফ মিউজিক ছবিতে জুলি অ্যান্ড্রুজ গেয়েছিলেন, When the dog bites, When the bee stings, When I'm feeling sad, I simply remember my favorite things, then I don't feel so bad... এটি ওঁর জন্য জুতসই ছিল, নিজের পছন্দের জিনিসগুলির কথা ভাবলেই তিনি খুশি হয়ে যেতেন! আপনার জন্যও যদি ব্যাপারটা অতটা সোজা হয়, তা হলে বলব, আপনি ভাগ্যবতী! যাঁরা তা নন, তাঁদের জন্য আমরা এখানে দশটি উপায়ের (10 things) কথা বলে দিচ্ছি, যেগুলো মেনে চললে আপনার মনখারাপের মেঘ কেটে আবার ভাল লাগার রোদ ঝিকিমিকি তুলবে!

১. কমেডি ছবি দেখুন

এই সময়ে আপনার বেস্ট ফ্রেন্ড হতে পারেন গোবিন্দা, অক্ষয়কুমার, ভানু বন্দ্যোপাধ্যায়েরা! যে-কোনও ভাষায়, যে ভাষায় আপনি নিজে স্বচ্ছন্দ, তাতে কমেডি মুভি চালিয়ে দিন। এক বাটি পপকর্ন, চানাচুর, চিপস নিয়ে বসুন আর হাসতে-হাসতে কাটিয়ে ফেলুন মনখারাপ। দেখবেন, ছবি শেষ হওয়ার আগেই আপনার মন ফুরফুরে (uplift) হয়ে গিয়েছে!

২. হাঁটতে বেরোন

এটাও কিন্তু ভাই ভারী ভাল দাওয়াই। কিন্তু হাঁটতে যান এমন কোনওখানে, যেখানটা একটু নির্জন। সেখানে গিয়ে আধঘণ্টাটাক হেঁটে নিন। নিজেকে বিশ্লেষণ করুন, হাবিজাবি ভাবুন, ভবিষ্যতের প্ল্যান ঠিক করুন...মোট কথা, ওই যে বলে না ফ্রেশ এয়ার বুক ভরে নেওয়া, সেটি করুন। দেখবেন, আস্তে-আস্তে দুনিয়াটাকে আর অতটা খারাপ লাগছে না।

৩. গরম কোনও পানীয় খান

সেটা হট চকোলেট হতে পারে, কফি হতে পারে, যা কিছু হতে পারে। তবে চকোলেটের নাকি মুড আপলিফটিং প্রপার্টিজ আছে, সেই জন্য চকোলেট খেলে তাড়াতাড়ি মন ভাল হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা উড়িয়ে দেওয়া যাচ্ছে না। 

৪. পছ্ন্দের লোকের সঙ্গে কথা বলুন

ইনি যে কেউ হতে পারেন। শুধু এঁকে মন দিয়ে আপনার কথা শুনতে হবে। আপনার দুঃখে যিনি সমব্যথী হবেন, যিনি আপনাকে জাজ করবেন না, যিনি যথেষ্ট সময় নিয়ে আপনার বকবকানি শুনে ধন্য হবেন, এমন কোনও মামা-কাকা-পিসি-মাসি-বন্ধুর কথা মনে পড়লেই তাঁকে ফোন করে মনটা হালকা করে ফেলুন।

৫. ভাল করে স্নান করুন

ভাল করে স্নান মানে, সময় নিয়ে, নিজেকে প্যাম্পার করে স্নান। বালতিতে অল্প গরম জল নিয়ে তাতে কয়েকফোঁটা এসেনশিয়াল অয়েল মিশিয়ে নিন। তারপর সেই জলে ভাল করে শীতল করুন নিজেকে। কোনও স্পা-এ গিয়ে ফুল বডি মাসাজ এবং স্পাও করাতে পারেন। তরতাজা লাগবে নিজেকে।

৬. ঘরদোর পরিষ্কার করুন

কাজে ব্যস্ত থাকলে মনখারাপ-টনখারাপ হওয়ার কোনও সুযোগই পাবেন না। তাই কাজে মন দিন। তবে মন ঠিক না থাকলে মস্তিষ্কের গুরুতর প্রয়োগ তো সম্ভব নয়। তাই তার চেয়ে যে কাজে কোনও মাথা খাটানোর প্রয়োজন নেই, সেই কাজেই মন দেওয়া ভাল। আর ঘর পরিষ্কার হচ্ছে তেমনই একটি কাজ। দেখবেন, ঘর গোছানো হয়ে গেলে মনখারাপ ফুড়ুত করে কোথায় পালিয়েছে।

৭. গান শুনুন

মিউজিক থেরাপি যে মনখারাপ ভাল করার বহু পরীক্ষিত দাওয়াই, তা আমরা অনেকেই জানি। তাই নিজের পছন্দের প্লেলিস্টটি অন করে চোখ বুজে শুয়ে থাকুন। দেখবেন, মনটা ধীরে-ধীরে শান্ত হয়ে যাচ্ছে।

৮. ঢিলেঢালা পোশাক পরে ল্যাদ খান

মানে, আলসেমি করুন, শুয়ে-বসে, ঘুমিয়ে একটা দিন কাটিয়ে দিন। কিচ্ছু ভাববেন না, কোনও কাজ করবেন না, স্রেফ খাবেন এবং শোবেন। পরের দিন দেখবেন, মনখারাপের ভূত কোথায় পালিয়েছে...

৯. উইন্ডো শপিংয়ে বেরোন

ঠিক শুনেছেন, কিনবেন না, শুধু দেখে খুশি হতে বেরোন। দরকার হলে টাকাপয়সা বাড়িতে রেখে যান। যাঁরা শপিং করতে এমনিতেই খুব ভালবাসেন, তাঁদের মনখারাপ নিমেষে দূর করার জন্য এটা অব্যর্থ টোটকা!

১০. বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন

এত কিছু করেও যদি আপনার মনখারাপ পিছু না ছাড়ে, তা হলে জানবেন ডিয়ার জিন্দগী-র আলিয়া ভট্টের মতো আরনার জীবনেও কোনও শাহরুখ খানের প্রয়োজন আছে। মনোবিদের কাছে যান, তাঁর পরামর্শ নিন। হয়তো আপনার মনখারাপের শিকড়টি অনেক গভীরে চলে গিয়েছে, যাকে সমূলে উৎখাত করতে গেলে পেশাদারের সাহায্য প্রয়োজন। 

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

এসে গেল #POPxoEverydayBeauty - POPxo-র স্কিন, বাথ, বডি এবং হেয়ার প্রোডাক্টস নিয়ে, যা ব্যবহার করা ১০০% সহজ, ব্যবহার করতে মজাও লাগবে আবার উপকারও পাবেন! এই নতুন লঞ্চ সেলিব্রেট করতে প্রি অর্ডারের উপর এখন পাবেন ২৫% ছাড়ও। সুতরাং দেরি না করে শিগগিরই ক্লিক করুন POPxo.com/beautyshop-এ এবার আপনার রোজকার বিউটি রুটিন POP আপ করুন এক ধাক্কায়..