শীতকালে শুষ্ক ত্বকের সমস্যাকে দূরে রাখতে সাহায্য নিন এই ঘরোয়া ফেস প্যাকগুলির

শীতকালে শুষ্ক ত্বকের সমস্যাকে দূরে রাখতে সাহায্য নিন এই ঘরোয়া ফেস প্যাকগুলির

এখনও সেভাবে শীত না এলেও ত্বকে কিন্তু টান পড়তে শুরু করে দিয়েছে। তার মানে বাতাসে যেমন আর্দ্রতা কমছে, তেমনই ত্বকের আর্দ্রতাও কমছে সমান তালে। তাই এখনই থেকেই ত্বকের যত্নে মনোনিবেশ করাটা জরুরি। বিশেষ করে যাঁদের ত্বক সারা বছরই শুষ্ক থাকে, তাঁদের তো বেশি করে সাবধানী হতে হবে। আর তার জন্য কী করণীয়? প্রথমত, সারা দিন ধরে মুখে-হাতে ময়শ্চারাইজার লাগাতে ভুলবেন না যেন! তাতে করে একটু হলেও ত্বক আর্দ্র থাকবে। সঙ্গে বেশ কিছু ফেস প্যাকের সাহায্য যদি নেন, তা হলে তো আর কোনও চিন্তাই থাকবে না। নিশ্চয়ই ভাবছেন, ফেস প্যাকের সাহায্যে আদৌ ত্বকের শুষ্কতা (Dry Skin) দূর করা যায় কিনা? জেনে রাখুন, এবার যেসব ফেস প্যাকের বিষয়ে জানাতে চলেছি, সেগুলির সবক'টাই ত্বককে ভিতর থেকে সুন্দর করে তুলবে, সেই সঙ্গে ত্বককে আর্দ্র রাখতেও বিশেষ ভূমিকা নেবে। তাই চলুন, আর সময় নষ্ট না করে ঝটপট এই সব ফেস প্যাক (Face packs) তৈরির শর্টকার্ট পদ্ধতিগুলি সম্পর্কে জেনে নেওয়া যাক।

১. কফি দিয়ে তৈরি ফেসপ্যাক

পিক্সাবে

এক চামচ কফি পাউডারের সঙ্গে সম পরিমাণ কোকো পাউডার, মধু এবং দুধ মিশিয়ে তৈরি পেস্ট মুখে লাগিয়ে কম করে মিনিটকুড়ি অপেক্ষা করুন। সময় হওয়া মাত্র ঠান্ডা জল দিয়ে মুখ ধুয়ে নিন। সপ্তাহে বার তিনেক এইভাবে ত্বকের যত্ন নিলে কফির গুণে ত্বক যেমন আর্দ্র থাকবে, তেমনই ত্বকের লাবণ্যও বাড়বে। চোখের নিচের ফোলা ভাব কমতেও দেখবেন সময় লাগবে না। অন্যদিকে কোকো পাউডারে উপস্থিত অ্যান্টিঅক্সিডেন্টের কারণে ত্বকের ভিতরের ক্ষত দূর হবে। ফলে যে-কোনও ধরনের দাগ-ছোপ মিলিয়ে যাবে নিমেষেই।

২. কলা এবং দই দিয়ে তৈরি ফেসপ্যাক

পিক্সাবে

শুষ্ক ত্বকের যত্নে কলার কোনও বিকল্প হয় না বললেই চলে। কারণ, এতে উপস্থিত বেশ কিছু ভিটামিন-মিনারেল ত্বকের স্বাস্থ্যের উন্নতি ঘটাতে বিশেষ ভূমিকা নেয়। তাই তো ছোট-বড় কোনও ত্বকের সমস্যাই ধারে কাছে ঘেঁষতে পারে না। আর যদি কলার সঙ্গে টক দই মিশিয়ে মুখে লাগাতে পারেন, তাহলে তো কোনও কথাই নেই! কারণ, কলার মতো দুইও নানা পুষ্টিগুণে ভরা, যা ত্বকের দেখভালে নানা ভাবে সাহায্য করে থাকে। বিশেষ করে ত্বকের বয়স কমাতে টক দইয়ের তো জুড়ি মেলা ভার। এত সব উপকার যদি পেতে চান, তা হলে একটা পাকা কলা ভাল করে চটকে নিয়ে তাতে এক চামচ মধু এবং এক চামচ টক দই মিশিয়ে তৈরি পেস্ট মুখে লাগিয়ে মিনিটপনেরো অপেক্ষা করুন। সময় হলেই ঠান্ড জল দিয়ে মুখ ধুয়ে নিন। নিয়ম করে এই ফেসপ্যাক মুখে লাগালে উপকার পাবেই পাবেন।

৩. অলিভ অয়েল

পিক্সাবে

যাঁদের ত্বক এমনিতেই খুব শুষ্ক, তাঁদের তো শীতকালে তেল মালিশ করা ছাড়া আর কোনও গতিই নেই। আর সেই তেল হতে হবে অলিভ অয়েল। কেন, তাতে কী উপকার মিলবে? অলিভ অয়েল ত্বকের একেবারে গভীরে প্রবেশ করে হারিয়ে যাওয়া আর্দ্রতা ফিরিয়ে আনে। ফলে বহুক্ষণ ত্বক আর্দ্র থাকে। শুধু তাই নয়, শুষ্কতার কারণে অসময়ে ত্বক বুড়িয়ে যাওয়ার আশঙ্কাও কমে। আর যদি অলিভ অয়েলের সঙ্গে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট সমদ্ধ মধু মিশিয়ে নেন, তা হলে তো আরও ভাল। এক্ষেত্রে এক চামচ অলিভ অয়েলের সঙ্গে এক চামচ মধু মিশিয়ে তৈরি মিশ্রণ মুখে লাগিয়ে মিনিটকুড়ি অপেক্ষা করতে হবে। সময় হলেই ঈষদুষ্ণ গরম জল দিয়ে মুখ ধুয়ে নিতে ভুলবেন না যেন! সপ্তাহে দিন তিনেক এই ফেস মাস্কটি মুখে লাগালে সারা শীতকাল জুড়ে ড্রাই স্কিনের সমস্যা যে ধারে কাছেও ঘেঁষতে পারবে না, সেকথা হলফ করে বলা যেতে পারে।

৪. দই এবং মধু

পিক্সাবে

শীতকালীন (Winter) ত্বকের যত্নে দুধ এবং মধুর কোনও বিকল্প হয় না বললেই চলে। তাই তো ড্রাই স্কিনের সমস্যা থেকে মুক্তি পেতে চাইলে রূপচর্চায় এই দুটি উপাদানকে কাজে লাগাতেই হবে। কিন্তু কীভাবে কাজে লাগাবেন, তাই ভাবছেন নাকি? তাহলে একটা কাজ করুন! এক চামচ দুধের সঙ্গে সম পরিমাণ মধু মিশিয়ে সেই মিশ্রণটি সারা মুখে লাগিয়ে মিনিটদশেক অপেক্ষা করে ধুয়ে ফেলুন। ইচ্ছা হলে কাঁচা দুধের পরিবর্তে গুঁড়ো দুধও ব্যবহার করতে পারেন। সেক্ষেত্রে এক চামচ গুঁড়ো দুধে এক চামচ করে জল এবং মধু মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করে নিয়ে মুখে লাগাতে হবে।

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

এসে গেল #POPxoEverydayBeauty - POPxo-র স্কিন, বাথ, বডি এবং হেয়ার প্রোডাক্টস নিয়ে, যা ব্যবহার করা ১০০% সহজ, ব্যবহার করতে মজাও লাগবে আবার উপকারও পাবেন! এই নতুন লঞ্চ সেলিব্রেট করতে প্রি অর্ডারের উপর এখন পাবেন ২৫% ছাড়ও। সুতরাং দেরি না করে শিগগিরই ক্লিক করুন POPxo.com/beautyshop-এ এবার আপনার রোজকার বিউটি রুটিন POP আপ করুন এক ধাক্কায়...