অতিরিক্ত চুল পড়া বন্ধ করতে আজ থেকেই এই টিপসগুলো মেনে চলুন

অতিরিক্ত চুল পড়া বন্ধ করতে আজ থেকেই এই টিপসগুলো মেনে চলুন

ডারমেটোলজিস্টরা বলেন, প্রতিদিন আমাদের মাথা থেকে নাকি একশোটা করে চুল (hair) পড়া (fall) স্বাভাবিক। কিন্তু সংখ্যাটা যখন একশো ছাড়িয়ে দু'শো বা তিনশো, এমনকী হাজারে পৌঁছে যায়, তখন সেটা অবশ্যই চিন্তার বিষয়। আর অস্বীকার করে লাভ নেই, এই চিন্তায় আমরা সকলেই কমবেশি চিন্তিত। তবে প্রতিদিন কিছু সাধারণ নিয়ম মেনে চললে এবং কয়েকটি ঘরোয়া (home) টিপসের (remedies) সাহায্যে অতিরিক্ত চুল পড়া নিয়ন্ত্রণে রাখা যায়। আমরা বাজারচলতি নানা ধরনের শ্যাম্পু কিংবা হেয়ার সিরাম কিনে বা পার্লারে গিয়ে একগাদা টাকা খরচ করে হেয়ার স্পা করে চুল পড়া বন্ধ করাতে চেষ্টা করি। কিন্তু তার চেয়ে ঘরোয়া উপায় মেনে চললে অনেক বেশি কাজের কাজ হয়। আমাদের এই টিপসগুলো মেনে চলুন আর নিজের চুল নিয়ে চিন্তা করা একদম ছেড়ে দিন! 

প্রতিদিন যেটা করবেন

Pixabay

১) হাল্কা শ্যাম্পু দিয়ে প্রতিদিন চুল ধোবেন। বিশেষ করে আপনি যদি রোজ বাড়ি থেকে বেরন তাহলে এটা আপনাকে করতেই হবে। 

২) চুল পড়া বন্ধ করতে হলে আপনাকে ভিটামিন খেতে হবে। ডাক্তারের সঙ্গে পরামর্শ করে বুঝে নিন আপনার শরীরে কোন ভিটামিনের ঘাটতি আছে। 

৩) শুধু ভিটামিন ট্যাবলেট খেলেই হবে না, প্রতিদিনের ডায়েটে রাখতে হবে প্রোটিন। 

৪) এসেনশিয়াল অয়েল দিয়ে নিয়ম করে স্ক্যাল্প মাসাজ করতে হবে। 

৫) ভিজে চুল একদম আঁচড়াবেন না। এতে চুল তাড়াতাড়ি ভেঙে যায় এবং উঠে যায়। 

৬) আর্দ্রতার অভাবেও চুল পড়ে। তাই নিজেকে যথা সম্ভব ভিতর থেকে আর্দ্র রাখুন। প্রচুর পরিমাণে জল পান করুন। 

৭) চুলে অকারণে রং করবেন না বা বেশি ড্রায়ার ব্যবহার করবেন না। 

চুল পড়া বন্ধ করতে ডায়েটে কী কী রাখবেন?

pixabay

পালং শাক, গাজর, ডিম, ওটমিল, আখরোট, ডাল, মুরগির মাংস, স্ট্রবেরি, পেয়ারা, দই, রাঙা আলু ইত্যাদি। 

ঘরোয়া টোটকা

pixabay

আদা পেঁয়াজের রস

পেঁয়াজ, রসুন ও আদার রস আলাদা করে তৈরি করুন। যে-কোনও একটা রস দিয়ে স্ক্যাল্প ভাল করে মাসাজ করে সারা রাত রেখে পরের দিন ধুয়ে ফেলুন। নিয়মিত এটা করে দেখুন, দারুণ ফল পাবেন আর চুল পড়া বন্ধ হয়ে যাবে। 

গ্রিন টির জাদু

Pixabay

এক কাপ গ্রিন টি তৈরি করে সেটা দিয়ে চুল ধুতে পারেন। গ্রিন টি চুল পড়ার সমস্যা অনেকটাই কম করে। এটা টানা দশদিন করে দেখুন হাতেনাতে ফল পাবেন। 

হেয়ার মাস্ক

দুই টেবিল চামচ দইয়ের সঙ্গে এক টেবিল চামচ লেবুর রস ও মধু মিশিয়ে একটি হেয়ার মাস্ক তৈরি করুন। ডাই করার ব্রাশ দিয়ে স্ক্যাল্প ও চুলে লাগান। আধ ঘণ্টা রেখে ঠান্ডা জলে ধুয়ে ফেলুন। 

বাড়িতে করুন কোকোনাট হেয়ার স্পা

নারকেলের দুধ দ্রুত চুল বৃদ্ধিতে সাহায্য করে। নারকেলের দুধ স্ক্যাল্পে ভাল করে লাগিয়ে একটা তোয়ালে দিয়ে মুড়ে কুড়ি মিনিট রেখে দিন। তারপর ধুয়ে ফেলুন। 

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

এসে গেল #POPxoEverydayBeauty - POPxo-র স্কিন, বাথ, বডি এবং হেয়ার প্রোডাক্টস নিয়ে, যা ব্যবহার করা ১০০% সহজ, ব্যবহার করতে মজাও লাগবে আবার উপকারও পাবেন! এই নতুন লঞ্চ সেলিব্রেট করতে প্রি অর্ডারের উপর এখন পাবেন ২৫% ছাড়ও। সুতরাং দেরি না করে শিগগিরই ক্লিক করুন POPxo.com/beautyshop-এ এবার আপনার রোজকার বিউটি রুটিন POP আপ করুন এক ধাক্কায়...

এগুলোও আপনি পড়তে পারেন

শীতকালে ত্বকের যত্নে কি কি করা উচিত

ঘরোয়া হেয়ার কন্ডিশনার রেসিপি