মাধ্যমিক স্পেশ্যাল: শরীর সুস্থ রাখতে সন্তানকে পরীক্ষার সময়ে এই রান্নাগুলো করে দিন

মাধ্যমিক স্পেশ্যাল: শরীর সুস্থ রাখতে সন্তানকে পরীক্ষার সময়ে এই রান্নাগুলো করে দিন

আজ থেকে শুরু মাধ্যমিক (madhyamik) পরীক্ষা (exam)। মা-বাবার ভাষায়, ‘জীবনের প্রথম বড় পরীক্ষা’! সারা বছর ধরে পড়ার জন্য নানা বকাঝকা জুটলেও পরীক্ষার এই সময়টা ছাত্রছাত্রীদের থেকে তাদের মা-বাবার চিন্তা কিন্তু কোনও অংশে কম হয় না। আপনার সন্তানও কি এবারে মাধ্যমিক পরীক্ষা দিচ্ছে? তাহলে তো আপনারও অনেক কাজ। তার পরীক্ষার প্রস্তুতিতে সাহায্য করা থেকে শুরু করে তার খাওয়াদাওয়া, শরীর সুস্থ রাখার চেষ্টা – সব দায়িত্ব আপনার কাঁধে।

মাধ্যমিকের (madhyamik) সময়ে সব মা-বাবাই পরীক্ষার্থীদের সঙ্গে পরীক্ষাকেন্দ্রে যান, কিন্তু তার আগে তো এমন কিছু খাইয়ে বাচ্চাকে পাঠানো উচিত যাতে তার পেটও অনেকক্ষণ ভরা থাকে অথচ শরীরও ঠিক থাকে। আবার বাচ্চাদের মধ্যে একটা প্রবণতা দেখা যায় যে যেমন তেমন খাবার খেয়ে পরীক্ষা (exam) দিতে যাওয়া তাদের না-পসন্দ। কাজেই এমন কিছু রান্না করে দিতে হবে যা হেলদি আবার সুস্বাদুও। রইল তিনটি রেসিপি (recipes) যা আপনি খুব তাড়াতাড়ি তৈরি করে ফেলতে পারবেন আর খেতেও সুস্বাদু।

১। চিড়ের কাস্টারড

পেট ভরাও থাকবে আবার খেতেও সুস্বাদু, এমনই রেসিপি (ছবি সৌজন্য - ইনস্টাগ্রাম)

উপকরণ – এক কাপ চিড়ে, এক কাপ আপনার পছন্দের ফলের কুচি, এক টেবিল চামচ কর্ণফ্লাওয়ার, দুই টেবিল চামচ কাঠবাদাম কুচি, তিন কাপ দুধ, স্বাদ অনুসারে চিনি

কীভাবে রান্না করবেন

শুকনো খোলায় চিড়ে ভেজে গ্রাইন্ডারে গুঁড়ো করে নিন। এবারে একটি পাত্রে দুধ ও চিনি মিশিয়ে গরম করতে দিন। দুধ ফুটে উঠলে আঁচ কমিয়ে গুঁড়ো করে রাখা চিড়ে দিয়ে দিন এবং মিনিট পাঁচেক নাড়তে থাকুন। এবারে কর্ণফ্লাওয়ার দিয়ে আবার মিনিট দুয়েক নেড়ে নিন। ঘন হয়ে এলে আঁচ বন্ধ করে ঠান্ডা করে ফ্রিজে রেখে দিন। পরিবেশন করার আগে ফল ও কাঠবাদাম কুচি মিশিয়ে পরিবেশন করুন।

চিড়ের এই কাস্টারড খেয়ে আপনার সন্তান পরীক্ষা (exam) দিতে যেতেই পারে। খেতেও ভাল আর পেটও ঠান্ডা থাকবে।

২। লেবু পাতা দিয়ে কাঁচা মুগ ডাল

মাধ্যমিক পরীক্ষার সময়ে মায়েদের জন্য এই রেসিপিটি কাজে দেবে (ছবি সৌজন্য - ইনস্টাগ্রাম)

 উপকরণ – ১০০ গ্রাম মুগ ডাল, এক টেবিল চামচ আদা কুচি, দুটি কাঁচা লঙ্কা, আধ চা চামচ হলুদ গুঁড়ো, আধ চা চামচ মেথিদানা, দুই টেবিল চামচ সর্ষের তেল, স্বাদ অনুসারে নুন ও চিনি, তিন-চারটি লেবু পাতা  

কীভাবে রান্না করবেন

যেভাবে মুগ ডাল আগে শুকনো খোলায় ভেজে তারপরে রান্না করা হয়, এই রেসিপিটির ক্ষেত্রে কিন্তু সেভাবে রান্না করা যাবে না। যেহেতু আপনার সন্তান মাধ্যমিক (madhyamik) দিচ্ছে, এবং এটি জীবনের একটি বড় পরীক্ষা (exam), কাজেই তার শরীর যাতে সুস্থ থাকে সেকথা মাথায় রাখতে হবে। প্রথমেই নুন ও হলুদ দিয়ে ডাল সেদ্ধ করে নিন। এবারে কড়াইতে সর্ষের তেল দিয়ে কাঁচা লঙ্কা ও মেথি ফোড়োন দিন। ফোড়ন হয়ে গেলে আদা কুচি দিয়ে একটু নেড়ে নিয়ে সেদ্ধ করা ডাল দিয়ে দিন। সামান্য জল দিন যাতে ডাল খুব ঘন না হয়ে যায়। এবারে লেবু পাতা ও চিনি দিয়ে মিনিট পাঁচেক ফুটিয়ে নিন। ব্যস চটজলদি হয়ে গেল সুসাদু অথচ হেলদি ডাল। ভাতের সঙ্গে পরিবেশন করুন।

৩। শশার সুস্বাদু সুপ

শশার সুপ শরীর ঠাণ্ডা রাখে (ছবি সৌজন্য - ইনস্টাগ্রাম)

উপকরণ – দুটি মাঝারি শশা, এক টেবিল চামচ মাখন, দুই কাপ ভেজিটেবল স্টক, একটি মাঝারি পেঁয়াজ, এক টেবিল চামচ কর্ণফ্লাওয়ার, এক টেবিল চামচ ফ্রেশ ক্রিম, নুন ও গোলমরিচ স্বাদ অনুসারে

কীভাবে রান্না করবেন

শশা পেট ঠান্ডা রাখতে সাহায্য করে কাজেই পরীক্ষা (exam) দিতে যাওয়ার সময়ে বা পরীক্ষা দিয়ে ফিরে এসে এই সুপটি সে অনায়াসে খেতেই পারে। কড়াইতে মাখন দিন এবং পেঁয়াজ কুচি করে ভেজে নিন। এবারে ভেজিটেবল স্টকটি কড়াইতে দিয়ে দিন। শশা কুরিয়ে নিন এবং কোড়ানো শশা ওই স্টকে দিয়ে ফুটিয়ে নিন। খুব পাতলা হয়ে গেলে কর্ণফ্লাওয়ার দিয়ে নেড়ে আরও মিনিট পাঁচেক ফোটান। এবারে ঠান্ডা করে ব্লেন্ডারে একবার ব্লেন্ড করে ফ্রিজে রেখে দিন। মাধ্যমিক (madhyamik) পরীক্ষার্থী সন্তানকে ঠাণ্ডা ঠাণ্ডা শশার সুস্বাদু সুপ পরিবেশন করুন।

ছবি সৌজন্য - ইনস্টাগ্রাম 

POPxo এখন চারটে ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!

২০২০ শুরু করুন আমাদের দারুণ দারুণ প্ল্যানার আর স্টেটমেন্ট সোয়েটশার্ট দিয়ে। এগুলো সবকটাই আপনারই মতো একশ শতাংশ মজার এবং অসাধারণ! ওহ হ্যাঁ, শুধুমাত্র আপনার জন্য রয়েছে ২০ শতাংশ ছাড়ের ব্যবস্থাও। দেরি কিসের আর, এখনই POPxo.com/shop থেকে কেনাকাটা সেরে ফেলুন আর নিজেকে আরেকটু পপ আপ করে ফেলুন!