প্রতিটি মহিলার আলমারিতে এই ভারতীয় সনাতনী পোশাকগুলো অবশ্যই থাকা উচিত

প্রতিটি মহিলার আলমারিতে এই ভারতীয় সনাতনী পোশাকগুলো অবশ্যই থাকা উচিত

“আমার কোনও জামাকাপড়ই নেই পরার মতো!” – প্রতিবার কোথাও যাওয়ার আগে এটাই আমাদের মেয়েদের (woman) বক্তব্য! কিন্তু আমরা যে সারা বছর জামাকাপড় (outfits) কেনার খাতে কত টাকা খরচ করি সে হিসেব করলে… থাক বরং! হ্যাঁ, তো যে কথা বলছিলাম, আমাদের আলমারিতে এমন অনেক পোশাক থাকে যেগুলো আমরা শেষ বারের মতো কবে পরেছি, তা মনে নেই, আবার প্রাণে ধরে ফেলেও দিতে পারি না। না, আমি ফেলে দিতে বলছি না, তবে আপনার আলমারিতে অন্য পোশাকগুলোর সঙ্গে এই পোশাকগুলো আছে কি না তা একবার মিলিয়ে নিন তো!

জামদানী শাড়ি

একটা জামদানী শাড়ি কিন্তু আলমারিতে থাকা মাস্ট (ছবি - ইনস্টাগ্রাম)

বাঙালি মেয়ের আলমারিতে আর কিছু থাক বা না থাক, একটা ঢাকাই জামদানী শাড়ি (saree) থাকা মাস্ট! সব সময়ে যে তা সাদা জমির উপরেই হতে হবে তা নয়, তবে নিউট্রাল শেডের শাড়ি হলে ভাল। কারণ জামদানী শাড়ি হল এমন একটি পোশাক যা সকালে বা রাতে সব সময়েই পরা যায়। কাজেই এমন একটা রঙের শাড়ি রাখুন যা আপনি যে-কোনও সময়ে পরতে পারেন। হালকা সবুজ, বেবি পিঙ্ক, কাচা হলুদ বা লাল – এধরনের রং আপনি দিনে-রাতে সব সময়েই পরতে পারবেন।

জমকালো সিল্কের শাড়ি

একটা কাঞ্চিপুরম শাড়ি কিন্তু আলমারিতে থাকা মাস্ট (ছবি - ইনস্টাগ্রাম)

না, বেনারসি রাখতে বলছি না কারণ ওই শাড়ি সব সময়ে পরা যায় না। তবে অন্য ধরনের সিল্কের শাড়ি যেমন তসর, টাঙ্গাইল, বিষ্ণুপুরী সিল্ক বা কাঞ্চিপুরম সিল্ক আপনার কালেকশনে অবশ্যই থাকা উচিত। বিয়েবাড়ি বা অন্য কোনও অনুষ্ঠানে গেলে যাতে পরে যেতে পারেন। একটু গাঢ় রঙের সিল্কের শাড়ি রাখুন। কালো, লাল, মেরুন – এই রংগুলো বেশ ভাল লাগে সিল্কে।

রোজ পরার মতো কুর্তি বা চুড়িদার

অফিসে যাওয়ার জন্য বা অন্য কোনও কাজে যেতে কুর্তি-লেগিংস থাকাটাও মাস্ট (ছবি - ইনস্টাগ্রাম)

যাঁরা কর্মরতা প্রতিদিনই তাঁদের বাইরে বেরতেই হয়। কিন্তু সব সময়ে ট্রামে-বাসে যাতায়াত করার সময়ে তো আর শাড়ি পরা যায় না। যদি আপনার অফিসে তেমন কোনও ড্রেস কোড না থাকে সেক্ষেত্রে আপনি চুড়িদার বা কুর্তি-লেগিংস পরতে পারেন। অফিসে যাওয়ার জন্য প্যাস্টেল শেডের বা যে কোনও হালকা রঙের পোশাকই বাছুন।

এবারে আসি যারা কর্মরতা নন, তাঁদের কথায়। অফিস যেতে হয় না মানে তো আর এই নয় যে বাড়ি থেকে না বেরলেও চলে। সন্তানকে স্কুলে দিয়ে আসা বা নিয়ে আসা, দোকান-বাজার করা বা নিদেন পক্ষে বন্ধুদের সঙ্গে সামনের কফিশপে গিয়ে একটু আড্ডা দেওয়া বা সিনেমা দেখতে যাওয়ার জন্যও তো পোশাক লাগে নাকি! সেক্ষেত্রে আপনি আপনার পছন্দমতো যে  কোনও রঙের কুর্তি বা চুড়িদার পরতে পারেন।

সাদা রঙের একটা চিকনকারি সালোয়ার-কামিজ

একটা সাদা চিকনকারি চুড়িদারও কিন্তু আলমারিতে থাকা মাস্ট (ছবি - ইনস্টাগ্রাম)

হ্যাঁ, এই পোশাকটার কথা আগের পয়েন্টে লিখতে পারতাম হয়ত, কিন্তু সাদা রঙের চিকনকারি সালোয়ার-কামিজ তো আর প্রতিদিন আপনি পরতে পারবেন না। এই পোশাকটি রাখুন বিশেষ কোনও অনুষ্ঠানের জন্য। প্রেমিকের সঙ্গে ডেটে যাওয়ার সময়ে অথবা অফিসে বিশেষ কোনও দিনে পরতে পারবেন।

POPxo এখন চারটে ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!