অল্প বয়সে চুল পেকে যাচ্ছে? অস্বস্তি আটকাতে ট্রাই করুন এই সব ঘরোয়া সমাধান

অল্প বয়সে চুল পেকে যাচ্ছে? অস্বস্তি আটকাতে ট্রাই করুন এই সব ঘরোয়া সমাধান

একঢাল ঘন কালো চুল (hair) । না কন্যের এ হেন রূপ আজ আর ততটা পরিচিত নয়। কারণ কালো চুল রাখা অনেকেরই না পসন্দ। চুলে রং করানোটা অনেক দিন ধরেই ফ্যাশনে ইন। হালকা মেরুন বা সোনালি বাদ দিয়ে নীল, কমলা, শকিং গোলাপি রঙেও এখন চুল রাঙিয়ে নিচ্ছেন অনেকেই। কারও বা পছন্দ ধূসর। অর্থাৎ চুলে পাক না ধরলেও সাদা বা ধূসর রং করে নিচ্ছেন ফ্যাশনিস্তারা। কিন্তু যাঁদের অকালে চুলে পাক ধরেছে, অথচ সাদা চুল পছন্দ নয়, তাঁরা কী করবেন? হ্যাঁ, তাঁদের কথা ভেবেই এই প্রতিবেদন।

সাধারণত ত্বকে পর্যাপ্ত ভিটামিন এবং খনিজের অভাবে চুলে পাক ধরে। মাথার চুল সাদা হয়ে যায় কম বয়সেই। এতে অনেকেই অস্বস্তিতে পড়েন। বাজার চলতি বিভিন্ন হেয়ার ডাই ব্যবহার করেন। কিন্তু সেগুলিতে অনেক ক্ষেত্রেই কেমিক্যাল থাকে। যা চুলের জন্য খুবই ক্ষতিকর। হেয়ার ডাই ব্যবহারের ফলে চুল পড়ে যাওয়ার সমস্যায় ভোগেন অনেকেই। 

যদি অল্প বয়সে চুলে পাক ধরা প্রাকৃতিক ভাবে আটকাতে পারেন, তাহলে আর কোনও রকম হেয়ার ডাইয়ের প্রয়োজন হয় না। কীভাবে সেটা সম্ভব, আজ তা নিয়েই আলোচনা করব আমরা। 

 

গালে হাত দিয়ে আর ভাবতে হবে না, রয়েছে ঘরোয়া সমাধান। ছবি ইনস্টাগ্রামের সৌজন্যে।

১) একদিন অন্তর রাতে ঘুমোতে যাওয়ার আগে নারকেল তেল (oil) অল্প গরম করে মাথায় মাসাদ করুন। সকালে উঠে মাইল্ড কোনও শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে নিন। আর অবশ্যই কন্ডিশনার ব্যবহার করুন।

২) একদিন অন্তর পেঁয়াজ বেটে স্ক্যাল্পে মাসাজ করুন। পেঁয়াজের রস চুল কালো রাখতে সাহায্য করে। আধ ঘণ্টা রেখে সাধারণ জল এবং শ্যাম্পু দিয়ে চুল পরিষ্কার করে নিনন।

৩) এক টেবিল চামক আদার রস মধুর সঙ্গে মিশিয়ে প্রতিদিন সকালে খালি পেটে খেতে পারেন। শরীরে ভিটামিনের ঘাটতি থাকলে তা পূরণ হবে।

৪) প্রতিদিন আমলার রস খাওয়া অভ্যেস করুন। একই সঙ্গে সপ্তাহে অন্তত একদিন করে আমলার তেল দিয়ে চুল মালিশ করুন। এতে পাকা চুলের সমস্যা কমবে অনেকটাই।

৫) বাদাম তেলের সঙ্গে তিলের বীজ গুঁড়ো করে ভাল করে মিশিয়ে নিন। এ বার এই মিশ্রণটি চুলের গোড়ায় ভাল ভাবে মেখে ২০-৩০ মিনিট রেখে দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে অন্তত তিন দিন এই মিশ্রণ ব্যবহার করতে পারলে দ্রুত উপকার পাবেন।

৬) আমলকির গুঁড়োর সঙ্গে পাতিলেবুর রস মিশিয়ে প্রতিদিন অন্তত ৩০ মিনিট চুলের গোড়ায় মালিশ করুন। তারপর ভাল ভাবে ধুয়ে ফেলুন। পাকা চুলের সমস্যায় দ্রুত উপকার পাবেন।

৭) খাঁটি ঘি সপ্তাহে দুদিন স্ক্যাল্পে মাসাজ করুন। আধঘণ্টা পরে সালফেট যুক্ত শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে নিন।  

মূল ছবি ইনস্টাগ্রামের সৌজন্যে। 

 

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!