সংবেদনশীল ত্বকের যত্নে ভরসা রাখুন ঘরোয়া টোটকায়

সংবেদনশীল ত্বকের যত্নে ভরসা রাখুন ঘরোয়া টোটকায় in bengali

সংবেদনশীল ত্বকের যত্ন নেওয়ার আগে যে বিষয়টা না জানলেই নয় সেটা হল, সংবেদনশীল ত্বক ব্যাপারটা কি। যখন স্কিন একেবারে রুক্ষ হয়ে যায় কিংবা স্কিনে দানা, ব্রণ, লালচে ছোপ, র‍্যাশ, অ্যালার্জি অথবা অন্য স্কিনের সমস্যা দেখা দেয় তখন সেটা সেনসিটিভ স্কিনের (beauty tips for sensitive skin) লক্ষণ। এমতাবস্থায় ত্বকে টান ধরে এবং শুষ্ক হয়ে যায়। এই ধরনের ত্বকের যত্ন নেওয়াটা সারা বছরই কিন্তু ভীষণ জরুরি, আর শীতকালে তো বিশেষভাবে যত্ন নেওয়া উচিত। ফেস প্যাক কিম্বা বডি স্ক্রাব তো ছেড়েই দিন, কোন ক্রিম লাগানোর আগেও বারবার ভাবতে হয়। সেনসিটিভ স্কিনের সমস্যা যে শুধু ত্বকের ওপরেই প্রভাব ফেলে তা নয়, ভ্রু থ্রেডিং করার সময়ও র‍্যাশ বেরিয়ে যায়, লালচে ছোপ পড়ে আর চুলকোয়ও। আমরা কয়েকটি ঘরোয়া পদ্ধতির হদিশ দিচ্ছি যাতে করে আপনার সংবেদনশীল ত্বকের যত্ন (beauty tips for sensitive skin) নিতে কোনও অসুবিধে না হয়

কিভাবে যত্ন নেবেন সংবেদনশীল ত্বকের

সংবেদনশীল ত্বকের যত্ন নেবার জন্য আপনি ঘরোয়া টোটকা ট্রাই করে দেখতে পারেন। আপনার বাড়িতেই, বিশেষকরে রান্নাঘরে এমন অনেক উপকরণ আছে যে দিয়ে আপনি আরামসে ত্বকের যত্ন নিতে পারেন এবং সেটাও কোনরকম পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া ছাড়াই –

Beauty

Glow Skincare Everyday Essentials Kit

INR 3,585 AT MyGlamm

১। দই আর মধু তো সবার বাড়িতেই থাকে। দই আর মধুর সাথে কয়েক ফোঁটা ল্যাভেন্ডার অয়েল (এসেনশিয়াল অয়েল নেবেন, অ্যারোমা অয়েল না) মিশিয়ে পেস্ট বানিয়ে মুখে লাগিয়ে নিন। দশ মিনিট পরে ভালো করে ঠাণ্ডা জলে ধুয়ে ময়েশ্চারাইজার লাগিয়ে নিন। এতে আপনার স্কিনের (beauty tips for sensitive skin) শুষ্কভাব দূর হবে।

২। সেনসিটিভ স্কিনের জন্য অ্যালোভেরা খুব ভালো কাজ দেয়। অ্যালোভেরাতে ভিটামিন ই রয়েছে যা নানাধরনের স্কিন প্রবলেম যেমন র‍্যাশ, ইচিং ইত্যাদির উপশমে অতুলনীয়। অ্যালোভেরার পাতা কেটে নিয়ে তার ভেতর থেকে জেল বার করে নিন। যেখানে যেখানে র‍্যাশ আছে সেখানে এবং গলায় অ ঘাড়ে জেল লাগিয়ে নিন। সারা রাত এভাবে রেখে পরদিন সকালে ভালো করে জল দিয়ে ধুয়ে নিন। অ্যালোভেরা জেল লাগানোর পরে একটু ইচিং হতে পারে কিন্তু তাতে ভয় পাওয়ার কিছু নেই।

সেনসিটিভ স্কিনের জন্য অ্যালোভেরা খুব ভালো কাজ দেয়

৩। প্রাকৃতিকভাবে উজ্জ্বল ত্বক পাবার জন্য অনেকেই মধু ব্যবহার করেন। একটা কাঁচের বা চিনামাটির বাটিতে দুই টেবিল চামচ মধু আর দুই চা চামচ দারচিনি পাউডার ভালো করে মিশিয়ে মুখে আর গলায় লাগিয়ে নিয়ে ১৫ মিনিট রেখে দিন। পরে শুধু জল দিয়ে ধুয়ে নিন। এই মিশ্রণ সেনসিটিভ ত্বককে (beauty tips for sensitive skin) নরম এবং কমনীয় রাখতে সাহায্য করে।

৪। আপনার কাছে যদি অ্যাভোকাডো থাকে তাহলে একটা অ্যাভোকাডোর ভেতরের অংশ নিয়ে তার সাথে মধু মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করুন। এবারে যেখানে যেখানে ইচিং বা র‍্যাশ আছে সেখানে ওই পেস্ট লাগিয়ে নিন। ১০ মিনিট পর জল দিয়ে ধুয়ে নিন। এতে সেনসিটিভ স্কিনের ইচিং এবং জ্বালা দূর হয় আর আরাম মেলে।

সংবেদনশীল ত্বক কমনীয় করে তুলতে মধু দারুণ কাজ দেয়

৫। কলা খাওয়া যে স্বাস্থ্যের পক্ষে ভালো, সেটা তো আমরা সবাই জানি, কিন্তু সেনসিটিভ স্কিনের (beauty tips for sensitive skin) জন্যও যে কলা খুব উপকারী সেটা কি আপনি জানেন? একটা পাকা কলার পেস্ট বানিয়ে তার মধ্যে এক চামচ মধু আর ২ চামচ টক দই মিশিয়ে ভালো করে মুখে লাগিয়ে নিন। ৭ থেকে ১০ মিনিট এই প্যাক রেখে ধুয়ে ফেলুন।

৬। হলুদ অ্যান্টিসেপ্টিক হিসেবে খুবই ব্যবহৃত হয়। আপনার যদি সেনসিটিভ স্কিন হয় তাহলে আপনি হলুদ দিয়ে তৈরি এই ফেস প্যাকটি লাগাতে পারেন। খুব সহজেই আপনি এই প্যাকটি বানাতে পারবেন। এক টেবিল চামচ হলুদ নিয়ে (আপনি চাইলে কাঁচা হলুদ বেটে নিতে পারেন) তাতে কয়েক ফোঁটা অলিভ অয়েল এবং দুই টেবিল চামচ মধু মিশিয়ে এই প্যাক মুখে লাগিয়ে নিন, সাথে গলায় এবং ঘাড়েও লাগান। শুকিয়ে গেলে ঠাণ্ডা জল দিয়ে ধুয়ে নিন। হলুদ যেহেতু অ্যান্টিসেপ্টিক তাই ব্রণ ফুসকুড়ি এবং ত্বকের অন্যান্য ইনফেকশন দূর করতে সাহায্য করে (beauty tips for sensitive skin), আবার অন্যদিকে মধু স্কিনকে উজ্জ্বল করে এবং অলিভ অয়েল ত্বককে ময়েশ্চারাইজড রাখতে সাহায্য করে।

POPxo এখন চারটে  ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!