আপনি জানেন শীতকালে মধু কী কীভাবে সাহায্য করে?

আপনি জানেন শীতকালে মধু কী কীভাবে সাহায্য করে?

আস্তে আস্তে শীতটা কিন্তু ভালই জাঁকিয়ে বসল। এই মুহূর্তে আমাদের যে কতটা সাবধান থাকা প্রয়োজন, আপনিও জানেন। একেই তো কোভিডের সময়, তার উপর আবার এই সিজ়ন চেঞ্জে আমাদের হাঁচি, কাশি ইত্যাদি লেগেই থাকে। তাই সবার আগে আমাদের এই সময় সাবধান থাকাটা খুব প্রয়োজন। নিয়মমতো সময়ে স্নান করা, সঠিক খাবার খাওয়া ও শীতের জন্য সবরমক প্রিকশান নেওয়া প্রয়োজন। তাহলেই একমাত্র সবরকমভাবে অসুখকে প্রতিরোধ করা যায়। এই শীতে আমরা অনেকেই অ্যান্টি কোল্ড খাই। আবার কোভিডের জন্য মাল্টি ভিটামিন অনেকেই খাচ্ছেন চিকিৎসকের পরামর্শে। কিন্তু এই অ্যান্টি কোল্ড না খেয়েও আপনি শীতকে প্রতিরোধ করে দিতে পারেন। আপনার মনে পড়ে, মা বা ঠাকুমা সবসময় বলতেন মধু খেতে? মধু কিন্তু আমাদের অনেকভাবে সাহায্য করে। শুধুমাত্র সর্দি, কাশি থেকে বাঁচায় তা নয়, একইসঙ্গে সর্দি কাশি সারিয়েও তোলে (benefits of honey in winter)। শীতকালে ত্বকের যত্নেও মধু একইভাবে কার্যকরী। একইসঙ্গে অ্যান্টিসেপ্টিক হিসেবেও কাজ করে মধু। শীতকালে মধুর উপকারিতা অনেক (benefits of honey in winter)। তাই মধু কিন্তু বলতে গেলে সর্বঘটে কাঁঠালি কলা, তবে অবশ্যই সাহায্যের দিক থেকে...

সর্দি-কাশি থেকে বাঁচায়

প্রায় সবার বাড়িতেই কিন্তু মধু রাখা থাকে। কেউ চিনির বদলেও ইদানীং মধু ব্যবহার করেন। আবার মেদ কমাতেও মধুর বিকল্প নেই। কিন্তু মধুর সবথেকে বড় গুণ হল, মধু সর্দি-কাশি নিরমায় করে। আপনি যদি প্রতিদিন সকালে নিয়ম করে তুলশি ও মধু খান, তবে আপনার ঠান্ডা লাগবেই না। আবার পুরনো কাশিও সেরে যাবে (benefits of honey in winter)।

শীতকালে সর্দি-কাশি থেকে বাঁচায় মধু

কাশি সারায়

ঠান্ডা লেগে গলা খুসখুস করলে বা দীর্ঘদিনের কাশি থাকলে, আপনি অবশ্যই মধু খেতে পারেন। কীভাবে? মধু দিয়ে পাঁচন তৈরি করে তা খেয়ে নিন। আপনি মনে রাখবেন, গরম টক পানীয় গলার কাছে জমে থাকা কফ বের করে আনে। এবং গলার ইরিটেশন কমে যায় মধুর জন্য। নিয়মিত খেলে আপনার কাশি ঠিক হয়ে যায়। শীতকালে মধুর উপকারিতা সম্বন্ধে আপনিও জেনে নিন।

রক্তচাপ বা ব্লাড প্রেসার ঠিক রাখে

মধুতে অ্যান্টিঅক্সিডেন্টস থাকে। আর এই অ্যান্টিঅক্সিডেন্টসই রক্তচাপ কমাতে সাহায্য করে। একইভাবে হৃদরোগের সম্ভাবনাও কমিয়ে দেয়।

গরম জলে বা চায়ে মধু মিশিয়ে খেলে তার উপকারিতা অনেক...

রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায় মধু

শীতকালে এবং বিশেষত এই বছর আমাদের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা ঠিক রাখার প্রয়োজন। আর মধু আপনার রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে সাহায্য করে। মধুতে অ্যান্টিঅক্সিডেন্টস রয়েছে। তা আপনার শরীরের ইমিউন সিস্টেমকে ঠিক রাখবে এবং অসুখের থেকে বাঁচাবে। এমনকী স্মৃতিশক্তি ঠিক রাখতেও সাহায্য করে মধু। কারণ, এর শক্তিশালী অ্যান্টিঅক্সিডেন্টস মস্তিষ্ককে প্রোটেক্ট করে। ফলে, স্মৃতিশক্তি ঠিক রাখে। একইসঙ্গে অ্যালজ়াইমার’স-র মতো অসুখের সম্ভাবনাও অনেকটা কমিয়ে দেয়। তাই শীতকালে মধুর উপকারিতাই শেষ নয়, সারা বছর একইভাবে মধু আমাদের সুস্থ রাখে, ভাল থাকতে সাহায্য করে।

 

 

 

POPxo এখন চারটে ভাষায়!ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!
বাড়িতে
থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন
#POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন
নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!