ওজন তো কমায়ই, সঙ্গে শরীরও ভাল রাখে এই ফল

ওজন তো কমায়ই, সঙ্গে শরীরও ভাল রাখে এই ফল

ওজন কমানো (weight loss) না কি অত সহজ নয়। ওজন কমানোর স্বপ্ন দেখলেই ওজন কমে যায় না। তার জন্য প্রয়োজনীয় পরিশ্রম প্রয়োজন, এদিকে প্রয়োজন স্বাস্থ্যকর ডায়েটও। ঘাম ঝরানো ব্যায়াম ও তার সঙ্গে কঠোর ডায়েটের মধ্যে থাকলেই না কি একমাত্র ওজন কমবে। কিন্তু সারাদিন কাজ করার পর মানে এই অফিস সেরে আবার সংসার সামলে ব্যায়াম করার সময় কোথায় বলতে পারেন? ব্যায়াম করার সময় যদিও বা থাকে তবে শরীর এতটাই ক্লান্ত হয়ে পড়ে যে ব্যায়াম করার মতো শক্তি আর থাকে না। আর তার জন্য ওজন বেড়েই চলে। 

কিন্তু আপনার হাতের কাছেই এমন সব সমাধান আছে যার সাহায্যে চটজলদি ওজন কমিয়ে ফেলা সম্ভব। না তার জন্য কোনও সাপ্লিমেন্টের প্রয়োজন আপনার নেই। বরং প্রয়োজন কয়েক টুকরো আমলকি! সে কী, আমলকি খেয়ে সত্যিই ওজন কমানো যায় না কি? যায়। কীভাবে এই অসাধ্য সাধন করে আমলকি। ওজন কমানোয় আমলকির ভূমিকা কী, আসুন সেসব বিষয়েই জেনে নেওয়া যাক। আমলকির উপকারিতা (amla juice) জেনে নিই।

আমলকি কত উপকারী জানেন?

আমলকি ডিটক্স করে

নিয়মিত আমলকি খেলে (amla juice)শরীরে ফাইবারের মাত্রা বাড়ে। ফলে রক্তে মিশে থাকা ক্ষতিকারক টক্সিক উপাদান ধ্বংস করে দেয়। তাই জন্য মেটাবলিজম রেটেরও উন্নতি ঘটে। ফলে শরীর যেমন রোগমুক্ত থাকে, একইভাবে ওজন কমতেও সাহায্য করে। কোষ্ঠকাঠিন্যর মতো সমস্যাও সমাধান হয়। তাহলে বুঝতেই পারছেন, আপনি যখন ওজন কমানোর জন্য আমলকি খাবেন, আমলকি আপনার শরীরের আরও অনেকগুলো সমস্যা সমাধান করবে।

কীভাবে ওজন কমায়

আচ্ছা, আমলকি যে শুধুই ওজন কমায় তা নয়, একই সঙ্গে দেহের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়। ফলে ছোট বড় কোনও অসুখ সহজে কাছে ঘেঁষতে পারে না। এদিকে সংক্রমণ হওয়ার আশঙ্কাও কমে যায়।

আমলকিতে আছে ভিটামি সি, অ্যান্টি অক্সিড্যান্টস, পলিফেনল। বিভিন্ন মিনারেলও আছে, যা আপনার হজম ক্ষমতা বাড়ায়। একইসঙ্গে দেহের মেদ ঝরে চট জলদি। তাই ওজন কমানোর জন্য় চোখ বন্ধ করে আমলকির উপর ভরসা করতে পারেন আপনি।

আপনিও প্রতিদিন খান

আমলকি অ্যান্টি ইনফ্ল্যামেটরি

এই ফলে (amla juice)আছে অ্যান্টি-ইনফ্ল্যামেটরি উপাদান। যার জন্য শরীরে প্রদাহের মাত্রা একেবারে তলানিতে এসে ঠেকে। তাই ওজন বাড়ার আশহঙ্কাও থাকে না। একইসঙ্গে ফ্যাটি লিভার ও কোলেস্টেরলের মতো সমস্যাও নিয়ন্ত্রণ করে। এদিকে ওজনও নিয়ন্ত্রণে থাকে।

ওজন কমাবে ঝটপট

আপনি কীভাবে খাবেন

এক গ্লাস গরম জল নিন। তার সঙ্গে মিশিয়ে নিন চার চা চামচ আমলকির রস (amla juice)। যদি তা না থাকে তবে আমলকির পাউডার মিশিয়ে নিতে পারেন। খালি পেটে খাওয়া শুরু করুন। এক মাস টানা খাওয়ার পরেই ফলাফল আপনার চোখে পড়বে। প্রতিদিন আমলকির রস খাওয়ার পর ব্যায়াম করলে তো কোনও কথাই নেই!

তবে অবশ্যই বেশি খেলে বেশি ফল পাব এই ভেবে বেশি খাবেন না। তাহলে শরীরে তার খারাপ প্রভাব পড়বে।

POPxo এখন চারটে  ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!       

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!