আপনার বডি শেপ অনুযায়ী বেছে নিন ব্লাউজ, আপনার জন্য রইল গাইড

আপনার বডি শেপ অনুযায়ী বেছে নিন ব্লাউজ, আপনার জন্য রইল গাইড

ব্লাউজ পরার সময়ও সতর্ক থাকতে হবে? এই প্রশ্নই সবার প্রথম মাথায় এলো তাই তো। আজ্ঞে হ্যাঁ, ব্লাউজ পরার সময়ও সতর্ক থাকতে হবে। বিশেষজ্ঞদের মতে, আপনার শরীরের গড়ন যেমন আপনাকে সেরকম ব্লাউজ বেছে নিতে হবে। অর্থাৎ, আমাদের সবার জন্য সব ব্লাউজের ডিজাইন (blouse design) নয়। আপনি যদি ডিপ নেক পরতে পারেন, তবে আমায় তেমন মানাবে না। আবার আমি যদি ডিপ ব্যাক পরি, আপনাকে হয়তো সেটা ঠিক মানাবে না। 

আপনার বডি শেপ (body shape) যেমন, সেই অনুযায়ী আপনি যেমন পোশাক বেছে নেন, আবার বডি শেপ অনুযায়ী ব্লাউজ বেছে নিতে হবে। তবে আপনি আপনার মন পছন্দ ব্লাউজ (blouse design) পরতেই পারেন। কিন্তু এই ধরনের ব্লাউজে আপনাকে বেশি সুন্দর দেখতে লাগবে। তবে আর দেরি না করে চলুন আলোচনা শুরু করা যাক।

রোগা শরীরের জন্য

আপনি কি বেশ রোগা? আপনার হাতও বেশ সরু? তা হলে যে-কোনও ভারী কাজ করা ব্লাউজ কিন্তু আপনাকে বেশ মানাবে। আপনি গলা-পিঠ ঢাকা ডিজাইন পছন্দ করুন। কলার দেওয়া কিংবা বোট নেকও ট্রাই করতে পারেন। ব্রোকেড, সাটিন, লিনেন ও সিল্কের ব্লাউজ পরতে পারেন। ব্লাউজের হাত (blouse design) আপনার মনের ইচ্ছে মতো পরতে পারেন। তবে হাত যদি খুব সরু হয় তবে স্লিভলেস বা হাতকাটা ব্লাউজ এড়িয়ে যাওয়াই বুদ্ধিমানের কাজ হবে।

ভারতীয় ফিগারের জন্য

ভারতীয় নারীদের বেশিরভাগেরই আপেলের মতো শরীরের গড়ন হয়। অর্থাৎ, আমাদের বেশিরভাগেরই স্তন ভারী হয়। এবং হাতেও বেশ মেদ থাকে। তার জন্য আমাদের ব্লাউজ বেছে নেওয়ার সময় যথেষ্ট সতর্ক থাকতে হবে। তাঁরা কখনওই ডিপ নেকের দিকে হাত বাড়াবেন না। তবে ডিপ নেক চলতে পারে। কিন্তু আপনার যদি পিঠেও মেদ থাকে তবে সেদিকেও সতর্ক হতে হবে বৈ কী। বেশি কাজ করা ব্লাউজ না পরাই ভাল। গেলাস হাতা কিংবা থ্রি কোয়ার্টার হাতা ট্রাই করুন। হাত কাটা ব্লাউজ না পরাই ভাল হবে। হাতের পেশি যদি টোনড হয় তবে ঠিক আছে। না হলে এড়িয়ে যান।

কাঁধ চওড়া যদি হয়

ব্রড নেকলাইন ও ছোট হাতা এই দুই হল আপনার আদর্শ ব্লাউজ ডিজাইন। ব্লাউজ হালকা প্যাডেড নিতে পারেন। নেকলাইন নিয়ে আপনি নানা রকম এক্সপেরিমেন্ট করতে পারেন। বোটনেক, ডিপ কাট আপনাকে বেশ ভাল মানাবে। স্লিভলেসও পরতে পারেন। তবে হাতের পেশি টোনড হলে বেশি ভাল লাগবে। খুব ভারী কাজের ব্লাউজ এড়িয়ে যাওয়া ভাল।

নাসপাতির মতো শরীরে গড়ন

এই ক্ষেত্রে কোমরের নীচের অংশ তুলনামূলক চওড়া হয়। তাঁদের ব্লাউজ হবে ডিপ কাট ব্যাকওয়ালা কিংবা ব্যাকলেস। ভারী কাজের ব্লাউজ পরতে পারেন। একটু বেশি লম্বা ঝুলের ব্লাউজও (blouse design) পরতে পারেন, এতে একটা ইলিউশন তৈরি হবে। তবে বেশি টাইট ফিটিং, করসেট টাইপের ব্লাউজ পরবেন না। এতে আপনার শরীরের উপরের অংশ আরও রোগা দেখাবে। হাতায় ফ্রিল দেওয়া থাকলে কিংবা কলারওয়ালা ডিজাইনও আপনি বেছে নিতে পারেন।

POPxo এখন চারটে  ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!       

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!