স্নানের তোয়ালে নিয়মিত কাচেন তো? না হলেই কিন্তু ত্বকের সমস্যা দেখা দিতে পারে!

স্নানের তোয়ালে নিয়মিত কাচেন তো? না হলেই কিন্তু ত্বকের সমস্যা দেখা দিতে পারে!

স্নানের তোয়ালে কতদিন অন্তর কাচেন? নাকি রোজই কেচে দেন? আপনি ভাবছেন আমি কেন এই প্রশ্ন করছি। তার অবশ্যই কারণ আছে। অনেক সময়ে আমাদের ত্বকে বেশ কিছু সমস্যা হয়। আমরা ভাবি না যে কেন হয়েছে। আমরা চিকিৎসকের পরামর্শ নিই। কিন্তু একবার ভেবে দেখি কি যে স্নানের তোয়ালেতে কত পরিমাণ জীবাণু বাসা বেঁধে রয়েছে? নিয়মতি তোয়ালে না কাচলে কিংবা সময় মতো তোয়ালে না বদলালে নানা রকম সমস্যা হতে পারে। তাই এখন থেকেই অবশ্য়ই তোয়ালে পরিষ্কার রাখা নিয়ে সতর্ক হন (wash your bath towel)। যাতে ভবিষ্যতে কোনও রকম সমস্যা আপনার না হয়।

কতদিন অন্তর স্নানের তোয়ালে কাচবেন?

স্নানের পর তোয়ালে দিয়ে যখন গা মোছেন, তখন আপনিও জানেন না। সেখানে অনেক ক্ষুদ্র জীবাণু রয়ে যায়। খালি চোখে তোয়ালে পরিষ্কার লাগলেও অনেক জীবাণু সেখানে ইতিমধ্যেই বাসা বেঁধেছে। তাই আপনার উচিত স্নানের তোয়ালে পরিষ্কার রাখা। আপনি যদি প্রতিদিন তোয়ালে কাচতে নাও পারেন, সেক্ষেত্রে আপনাকে তোয়ালে রোদে মেলে দিতে হবে। স্নান করে কখনও ভিজে তোয়ালে দলা পাকিয়ে রেখে দেবেন না। এতে জীবাণু আরও শক্তিশালী হবে যা আপনার ত্বকে সমস্যা করতে পারে। তাই প্রতি তিন দিন অন্তর অন্তত আপনাকে স্নানের তোয়ালে ধুয়ে কেচে দিতে হবে। আর তা যদি না হয়, আপনি যদি দিনে একাধিক বার স্নান করেন তবে তিন চার বার স্নান করার পরেই তোয়ালে কেচে (wash your bath towel)দিতে হবে। তোয়ালে নিয়মিত পরিষ্কার করা ও রোদে দেওয়া খুবই প্রয়োজন।

Beauty

Ultimate Germ Defence 35 Sanitizing Wipes + 30 Sanitizing Towels + 4 Moisturizing Hand Sanitizers

INR 999 AT MyGlamm

তোয়ালের যত্ন নিয়ে আরও দুই চার কথা

  • আপনার তোয়ালে অন্য কেউ ব্যবহার করলে বা আপনি অন্য কারও তোয়ালে ব্যবহার করলে ব্যবহারের পরেই স্নানের তোয়ালে ধুয়ে দেবেন। আপনার কাছের কেউ হলেও একে অপরের তোয়ালে ব্যবহার করলে সেটি পরিষ্কার রাখা উচিত। সবথেকে ভাল হয় যদি আপনি অন্যের তোয়ালে ব্যবহার না করেন।
  • জিমে যে তোয়ালে ব্যবহার করবেন, সেই তোয়ালে বাড়ি এসেই ধুয়ে দেবেন। রোজ কাচতে না পারলে দুটি আলাদা আলাদা তোয়ালে ব্যবহার করবেন।
  • যে তোয়ালে বাথরুমে রয়েছে, অর্থাৎ রোদে দিতে পারেননি যে তোয়ালে সেই তোয়ালে অন্তত একদিন অন্তর কেচে নেওয়া উচিত।
  • বেড়াতে গিয়ে নিজের তোয়ালেই ব্যবহার করা ভাল। হোটেলের তোয়ালে ব্যবহার (wash your bath towel)এড়িয়ে গেলেই ভাল হয়।
  • ত্বকে কোনও সমস্যা থাকলে প্রতিদিন তোয়ালে কাচা উচিত।

 

জিমের তোয়ালের প্রতি বেশি সতর্ক হন

এভাবেই স্নানের তোয়ালে পরিষ্কার করবেন। কারণ, মনে রাখবেন স্নান করে পরিষ্কার হওয়ার জন্যই আমরা নানারকম প্রসাধনী ও সাবান ব্যবহার করি। ত্বক ও চুল ভাল ভাবে ধুয়ে নেওয়ার পর যদি আমরা অপরিষ্কার তোয়ালে ব্যবহরা করি সেক্ষেত্রে স্নানের আর কি কোনও অর্থ রইল? এই বিষয়টি নিশ্চয়ই আপনার কাছে পরিষ্কার। তোয়ালে ধুতে না পারলে নিয়মিত রোদে দেবেন। আর যদি তোয়ালে ধুয়ে দিতে পারেন তবে খুবই ভাল হয়। মাঝেমধ্য়ে হালকা গরম জলে সামান্য ডিটারজেন্ট মিশিয়ে তাতে তোয়ালে কিছুক্ষণ ভিজিয়ে রেখে ধুয়ে দিন। এতে তোয়ালেও পরিষ্কার থাকবে ও জীবাণুমুক্ত হবে।

POPxo এখন চারটে ভাষায়!ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!
বাড়িতে
থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন
#POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন
নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!