logo
Logo
User
home / চুলের তেল
পাতলা চুলের সমস্য়া? এই কয়েকটি নিয়ম মানলেই ঘন হবে চুল

পাতলা চুলের সমস্য়া? এই কয়েকটি নিয়ম মানলেই ঘন হবে চুল

আমাদের সবার চুল একইরকম সুন্দর হয় না। কারও চুল ঘন হয়, কারও চুল পাতলা হয়। পাতলা চুলের যত্ন নেওয়ার জন্য আরও বেশি সতর্ক হতে হয়। কিন্তু ঘন চুল (thicker hair) -এর স্বপ্ন কে না দেখেন বলুন দেখি। এদিকে পাতলা চুল পড়ে গিয়ে আরও পাতলা হয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা থেকে যায়। পাতলা চুল ঘন করার উপায় (thicker hair) জানতে চান কি আপনি?

কীভাবে চুল ঘন দেখাবেন তা না ভেবে চুল কীভাবে ঘন করা যায় সেদিকেই আমাদের মন দেওয়া উচিত। কারণ চুলের যত্ন নেওয়াই আসল কথা। পাতলা চুল ঘন করবেন (thicker hair) কীভাবে? তারই কয়েকটি ঘরোয়া ও চটজলদি উপায় আজ বলে দেব আমরা।

প্রাকৃতিক উপাদানের হেয়ার মাস্ক লাগাবেন (thicker hair)

আপনিও জানেন না, আপনার হাতের কাছেই এমন কয়েকটি ঘরোয়া উপাদান রয়েছে যা আপনার চুলকে খুব ভাল রাখে। গোড়া থেকে পুষ্টি জোগায়। চুল করে মজবুত ও সুন্দর। এমনকী নিয়মিত ব্যবহারে চুল ঘন হয়। চুল পড়া বা ভেঙে যাওয়ার মতো সমস্যাও সমাধানা করে। ক্যাস্টর অয়েল, পেঁয়াজের রস, অ্যালোভেরা জেল, নারকেল তেলের মতো বিভিন্ন উপাদান আপনি হেয়ার মাস্কে ব্যবহার করুন। এইসব উপাদানে রয়েছে ভিটামিন ও মিনারেল। যা পাতলা চুল ঘন করতে ম্যাজিকের মতো কাজ করে।

ক্যাস্টর অয়েল বা অলিভ অয়েলের সঙ্গে পেঁয়াজের রস বা অ্যালোভেরা জেল মিশিয়ে আপনি হেয়ার মাস্ক তৈরি করে ফেলুন। স্ক্য়াল্পে ও চুলে লাগিয়ে রাখু। আধ ঘণ্টা লাগিয়ে রেখে ধুয়ে ফেলবেন। প্রতি সপ্তাহে অন্তত একবার ব্যবহার করবেন। চুলের পরিবর্তন আপনার নজরে আসবে।

হট অয়েল মাসাজ (thicker hair)

সপ্তাহে অন্তত একদিন হট অয়েল থেরাপির প্রয়োজন (thicker hair) । আপনার চুল এবং স্ক্যাল্পের প্রয়োজন পুষ্টির। একমাত্র প্রাকৃতিক তেলেই আপনি সেই পুষ্টি পাবেন। তাই চুলের গোড়ায় আপনাকে পুষ্টি দিতে হবে। অলিভ অয়েল, আমন্ড অয়েল বা নারকেল তেল আপনি সামান্য গরম করে নিন। তা ভাল করে স্ক্যাল্পে ঘষে মাখুন। প্রয়োজনের বেশি তেল মাখবেন না। এতেও চুলের ক্ষতি হয়। স্ক্যাল্প মাসাজ করলে স্ক্যাল্পে রক্ত সঞ্চালন বাড়ে। এতে চুলের বৃদ্ধি ভাল হয়। চুল ঘন হয়।

ড্রাই মাসাজ

শুধুই যে গরম তেল দিয়ে মাসাজ করবেন তাই নয়, আপনি কোনওরকম তেল ছাড়াও স্ক্যাল্প মাসাজ করতে পারেন। প্রতি রাতে শুতে যাওয়ার আগে আপনি নিশ্চয় চুল আঁচড়ে নেন। তার আগেই করুন মাসাজ। সম্পূর্ণ চুলটি সামনের দিকে নিয়ে নিন। তারপর ভাল করে আঙুলের ডগা দিয়ে চেপে চেপে স্ক্যাল্পে মাসাজ করুন। নিয়মিত মাসাজে স্ক্যাল্পে রক্ত সঞ্চালন বাড়ে। যা চুলের বৃ্দ্ধিতে সাহায্য় করে। আপনিও তাই অবশ্যই ড্রাই মাসাজ করুন। আপনার চুল ধীরে ধীরে ঘন হবে।

হেয়ার প্রোডাক্টে নজর দিন

আপনি যেসব হেয়ার প্রোডাক্ট ব্যবহার করেন, তাতে অবশ্য়ই রাসায়নিক সামগ্রী আছে। যা খুব সামান্য পরিমাণে হলেও চুলের ক্ষতি করে। তাই ভাল ও উন্নত মানের হেয়ার প্রোডাক্ট ব্যবহার করুন সবসময়। চুলের খুশকির সমস্যা, রুক্ষ চুলের সমস্যা সমাধান হয়, এমন হেয়ার প্রোডাক্ট ব্যবহার করুন। যদি সম্পূর্ণ প্রাকৃতিক শ্যাম্পু ব্যবহার করতে চান, তবে আপনি খাদির শ্যাম্পু অবশ্য়ই ব্যবহার করতে পারেন। না হলে আপনি বাড়িতে আপনার DIY শ্যাম্পু ও কন্ডিশনার বানিয়েও নিতে পারেন।

POPxo এখন চারটে  ভাষায়! ইংরেজিহিন্দিমারাঠি আর বাংলাতেও!            

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!

18 Mar 2022

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text