home / Acne
পিম্পল দূর করতে ভরসা রাখুন আয়ুর্বেদে

পিম্পল দূর করতে ভরসা রাখুন আয়ুর্বেদে

পিম্পল! কত ছোট্ট শব্দ একটা। কিন্তু সমস্যাটা মোটে ছোট্ট নয়। কারণ পিম্পল (5 effective ayurvedic treatment for pimple) হলে ত্বকের সৌন্দর্যের বারোটা বেজে যেতে সময় লাগে না। সেই সঙ্গে লেজুড় হয় একরাশ অস্বস্তি। আর যদি অজান্তে একবার পিম্পল চুলকে ফেলা হয়, তাহলে তো আরও সমস্যা। কারণ সেক্ষেত্রে সারা মুখ জুড়ে দাগ দেখা দেয়। ফলে সৌন্দর্য কমে চোখে পড়ার মতো। তাই তো এমন সমস্যা থেকে চিরস্থায়ী মুক্তি মিলবে কীভাবে, সে সম্পর্কে জেনে নেওয়াটা একান্ত প্রয়োজন। আর সেই কারণেই ভরসা রাখতে হবে আয়ুর্বেদের উপরে। কারণ প্রাচীন এই শাস্ত্র মতে এক্ষেত্রে যদি বিশেষ কিছু প্রাকৃতিক উপাদানকে কাজে লাগানো যায়, তাহলে পিম্পলের মতো ত্বকের রোগের খপ্পর থেকে নিস্তার মিলতে সময় লাগে না। সেই সঙ্গে যে কোনও ধরনের দাগও মিলিয়ে যায়। শুধু তাই নয়, ত্বকের জেল্লাও বাড়ে।

নিম ও গোলাপ জল

পরিমাণ মতো নিম পাতা নিয়ে এর বাটি জলে ফেলে ২-৩ মিনিট ফুটিয়ে নিন। তারপর জলটা ছেঁকে নিয়ে নিমপাতাগুলি পিষে নিয়ে একটা পেস্ট বানিয়ে ফেলুন। এবার সেই পেস্টে পরিমাণ মতো গোলাপ জল মিশিয়ে সেই মিশ্রণটি মুখে লাগিয়ে ততক্ষণ অপেক্ষা করুন, যতক্ষণ না পেস্টটা একেবারে শুকিয়ে যায়। তারপর ঠান্ডা জল দিয়ে ভালো করে মুখ ধুয়ে নিন।

সপ্তাহে ৩-৪ দিন এই পেস্টটি (5 effective ayurvedic treatment for pimple) মুখে লাগানো যায়, তাহলে ত্বকের ভিতরে একদিকে যেমন অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল উপাদানের মাত্রা বৃদ্ধি পেতে শুরু করে, তেমনি অন্যদিকে পিএইচ লেভেলও ঠিক থাকে। ফলে পিম্পলের প্রকোপ কমতে সময় লাগে না।

লাউয়ের খোসা ও নুন

একটা মাঝারি মাপের লাউ নিয়ে খোসাটা ছাড়িয়ে নিন। তারপর ছোট ছোট টুকরো করে নিয়ে সেগুলি মিক্সিতে ফেলে জুস বানিয়ে ফেলুন। এবার তাতে অল্প করে জল এবং নুন মিশিয়ে পান করুন। দিনে এক গ্লাস করে এই রস খাওয়া শুরু করলে শরীরের ভিতরে বাত, পিত্ত এবং কফের হারিয়ে যাওয়া ভারসাম্য ফিরে আসে। ফলে স্বাভাবিকভাবেই পিম্পলের মতো সমস্যা কমতে সময় লাগে না। সেই সঙ্গে সার্বিকভাবে শরীরের ক্ষমতাও বৃদ্ধি পায়।

গরম জলে ত্রিফলা

এই প্রাকৃতিক উপাদানটি শরীরের ভিতরে কফ, পিত্ত এবং বাতের ভারসাম্য ঠিক রাখে। সেই সঙ্গে সিবেসিয়াস গ্ল্যান্ড থেকে যাতে অতিরিক্ত মাত্রায় তেলের ক্ষরণ না হয়, সেদিকেও নজর রাখে। ফলে স্বাভাবিকবাবেই বারে বারে পিম্পল (5 effective ayurvedic treatment for pimple) প্রকাশ পাওয়ার আশঙ্কা আর থাকে না। এক্ষেত্রে ১ গ্লাস জলে ১ চামচ ত্রিফলার পেস্ট মিশিয়ে নিয়মিত একবার করে পান করতে হবে, তাহলেই দেখবেন কেল্লা ফতে!

আমলকি ও মৌরি

৩-৪ টে আমলকি নিয়ে ছোট ছোট টুকরো করে নিতে হবে। তারপর তা মিক্সিতে নিয়ে তাতে পরিমাণ মতো মৌরি মিশিয়ে ভালো করে ব্লেন্ড করে নিতে হবে। এবার সেই পাউডারটা একটা পাত্রে সংগ্রহ করে রেখে দিতে হবে। প্রতিদিন তার থেকে ১ চামচ করে পাউডার নিয়ে এক গ্লাস জলের সঙ্গে মিশিয়ে যদি দিনে দুবার করে পান করা যায়, তাহলে ত্বকের সৌন্দর্য বাড়তে তো সময় লাগেই না, সেই সঙ্গে শরীরে ভিটামিন সি এবং অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট সহ নানাবিধ উপকারী উপাদানের মাত্রা বূদ্ধি পাওয়ার কারণে এরাধিক রোগ-ব্যাধি দূরে থাকতেও বাধ্য হয়।

পাকা পেঁপে ও চন্দন

প্রথমে পরিমাণ মতো পেঁপে নিয়ে তা চটকে নিন। তারপর তাতে অল্প করে চন্দন গুঁড়ো এবং জল মিশিয়ে একটা পেস্ট বানিয়ে ফেলুন। এবার সেই মিশ্রণটি সারা মুখে লাগিয়ে কম করে ১৫-৩০ মিনিট অপেক্ষা করুন। সময় গেলে ধুয়ে ফেলুন পেস্টটা।

সপ্তাহে ৩-৪ দিন এইভাবে ত্বকের যত্ন নিলে স্কিনের ভিতরে প্রদাহের মাত্রা তো কমবেই, সেই সঙ্গে ত্বকের ছিদ্রগুলিও খুলতে শুরু করবে। ফলে পিম্পল কমে যেতে দেখবেন একেবারে সময়ই লাগবে না।

POPxo এখন চারটে ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!   

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!

28 Feb 2022

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text