Advertisement

ডি আই ওয়াই বিউটি টিপস

মেকআপে ঢেকে যাবে মুখের দাগ-ছোপ–মেনে চলুন ছয়টি স্টেপ

Debapriya BhattacharyyaDebapriya Bhattacharyya  |  Sep 14, 2021
কাজল পরতে ভালবাসেন, কিন্তু স্মাজ হয়ে যায়? এবার থেকে আর হবে না  in bengali

যত দিন যাচ্ছে, আমরা যেন তত বেশি ব্যস্ত হয়ে পড়ছি, আর এই ব্যস্ততায় আমাদের ত্বকের যত্ন নেওয়ার মত সময় খুব একটা হয়ে ওঠে না। কিন্তু সামনেই যদি বিয়েবাড়ি বা অন্য কোনও অনুষ্ঠান থাকে, সেখানে তো আর একমুখ দাগ-ছোপ নিয়ে যাওয়া যায় না। ব্রণর দাগ থেকে শুরু করে ডার্ক সার্কেল বা কেটে-ছড়ে যাওয়ার মত অনেক দাগই আমাদের মুখে থাকে। তবে মেকআপের সাহায্যে খুব সহজেই সেসব দাগ লুকিয়ে ফেলা সম্ভব। কিভাবে? সে বিষয়েই আজ আমরা আলোচনা করব। (5 step makeup to hide dark spots)

কীভাবে সম্ভব?

মুখের দাগ-ছোপ লুকিয়ে ফেলার জন্য মেকআপ হল সবচেয়ে ভাল উপায়। কিন্তু মেকআপ করতে হবে এমনভাবে যাতে বোঝা না যায় যে মেকআপের তলায় কোনও দাগ বা ডার্ক সার্কেল রয়েছে। আবার মেকআপ যেন বেশি চড়াও না হয় সেদিকেও নজর দিতে হবে। আজ আমরা শিখব, কিভাবে প্রফেশনালদের মত মেকআপ করতে হয় –

স্টেপ ১ – ক্লেনজিং

প্রথমেই খুব ভাল করে মুখ পরিষ্কার করুন। আপনি নিজের ত্বকের ধরন অনুযায়ী ফেস ওয়াশ অথবা ক্লেনজার বা ক্লেনজিং মিল্কের সাহায্যে মুখ পরিষ্কার করতে পারেন। এতে ত্বক মসৃণ হয় এবং মেকআপের বেস তৈরি করতে সুবিধে হয় (5 step makeup to hide dark spots)

স্টেপ ২ – ময়শ্চারাইজিং

মেকআপ করার আগে মুখে ময়শ্চারাইজার না লাগালে মেকআপ কিন্তু ঠিকভাবে বসবে না এবং কিছুক্ষণ পরেই চড়চড়ে একটা কেকি লুক আসবে। আপনার ত্বক যদি অয়েলিও হয়, তাহলেও ময়শ্চারাইজার লাগাবেন। ভাল একটা ময়শ্চারাইজার লাগিয়ে কিছুক্ষণ শুকোতে দিন। এতে পরে যখন ফাউন্ডেশন লাগাবেন, তখন একটা ন্যাচারাল লুক আসবে।

স্টেপ ৩ – দুই কোট প্রাইমার

অনেকেই প্রাইমার লাগান না, মেকআপের আগে। এতে কিন্তু মেকআপ ঠিকভাবে বসেও না, আর মেকআপ করার কিছুক্ষণ পর মুখের দাগ-ছোপও স্পষ্ট হয়ে ফুটে ওঠে। আপনি নিশ্চয়ই তা চান না। (5 step makeup to hide dark spots)

স্টেপ ৪ – কালার কারেক্টর

বেশিভাগ মহিলাই প্রাইমারের পর সোজা কনসিলার লাগান। এটি এক্কেবারে করবেন না, যদি আপনার ডার্ক সার্কেল থাকে। শুধু ডার্ক সার্কেল লুকিয়ে ফেলতেই না, ব্রণর নাছোড় দাগ-ছোপ লুকোতেও এই মেকআপ প্রোডাক্টটি সাহায্য করে।  কালার কারেক্টরের নানা শেড রয়েছে। আপনার স্কিনটোনের সঙ্গে মিলিয়ে কালার কারেক্টর লাগান।

স্টেপ ৫ – কনসিলিং

এবারে আপনি কনসিলার লাগাতে পারেন। স্টিক হোক বা লিকুইড বা রোল-অন – যেটি আপনার পছন্দ সেটি ব্যবহার করুন। মেকআপের এই প্রোডাক্টটি আপনার ত্বকের দাগ-ছোপ ঢাকতে ও ডার্ক সার্কেল লুকোতেই সাহায্য করে তা নয়, আপনার ত্বকে একটা ইভন টোন অর্থাৎ মসৃণভাব ফুটিয়ে তোলে। মুখের এক এক জায়গার রং এক এক রকম লাগে না। কনসিলার লাগানোর সময়ে একটা বিষয় অবশ্যই মাথায় রাখবেন, আপনার স্কিনটোনের থেকে এক শেড লাইট কনসিলার লাগাবেন। (5 step makeup to hide dark spots)

স্টেপ ৬ – ফাউন্ডেশন

অনেকেই ফাউন্ডেশন লাগানোর পরে কনসিলার লাগান। কিন্তু এতে মুখের দাগ-ছোপ লুকোনো যায় না। আপনার মুখে যদি বেশি দাগ-ছোপ থাকে সেক্ষেত্রে বেস মেকআপের শেষ ধাপ হবে ফাউন্ডেশন। ফাউন্ডেশন ব্রাশ অথবা বিউটি ব্লেন্ডারের সাহায্যে ফাউন্ডেশন ভাল করে মিশিয়ে দিন ত্বকের সঙ্গে। আঙুল দিয়ে লাগাবেন না, এতে মেকআপ শুকিয়ে গেলে আঙুলের স্ট্রোকের দাগ দেখা যেতে পারে।

যে প্রোডাক্টগুলি আপনি ব্যবহার করতে পারেন

POPxo এখন চারটে ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!      

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!