home / Fitness
হজমশক্তি বাড়ানোর সঙ্গেই ওজন কমাতেও সাহায্য করে বজ্রাসন in bengali

হজমশক্তি বাড়ানোর সঙ্গেই ওজন কমাতেও সাহায্য করে বজ্রাসন। জানা ছিল কি এ’কথা?

অন্য অনেক আসনের চেয়ে এটি দেখতে ঢের সোজা! করতে অবশ্য অতটা সোজা নয়। কিন্তু আবার খুব একটা কঠিনও নয়। কিন্তু দেখতে সোজাসাপটা এই আসনটি নিয়মিত করতে পারলে কত উপকার (all you need to know about vajrasana benefits pose and cautions) যে পাবেন, তা আর গুণে শেষ করতে পারবেন না। বজ্র আর আসন, এই দু’টি শব্দ জুড়ে তৈরি হয়েছে এই বজ্রাসন শব্দটি। এই আসনটি করার সময় আপনাকে ঋজু হয়ে বসে থাকতে হবে, তাই আসনটির এরকম নামকরণ হয়েছে। যদিও আমরা জানি যে, এই আসনটি খাবার হজম করতে সাহায্য করে, তাই খাওয়ার পরে এটি অভ্যাস করতে হয়, কিন্তু এর আরও নানা উপকারিতা আছে। সেই নিয়েই আজ আলোচনা করছি আমরা… 

বজ্রাসন করলে ওজন কিভাবে কমবে?

খুবই সাধারণ ভাবে! আসলে এই আসনটি খাবার হজম করতে সাহায্য করে। যা খাবেন, সেটি যদি ভাল করে হজম করতে পারেন, তা হলে তা আর ফ্যাটরূপে গায়ে গত্তি লাগাতে পারবে না। তা ছাড়া, এই আসনটি করার জন্য আপনাকে খাবার পরে অন্তত আধটি ঘণ্টা বসে থাকতে হবে, আপনি ঘুমোতে যেতে পারবেন না। ফলে খাবারজনিত ক্যালরি খরচ করার সময়টুকু আপনার শরীর পেয়ে যাবে। এই কারণেই বজ্রাসন (all you need to know about vajrasana benefits pose and cautions) তলপেটের নাছোড়বান্দা মেদও অনায়াসে কমিয়ে দিতে পারে। 

নিয়মিত বজ্রাসন করার উপকারিতা

  • এই আসনটি যে আমাদের খাবার হজম করার শক্তি বাড়িয়ে দেয় এবং ওজন কমাতে সাহায্য করে, তা আমরা ইতিমধ্যেই অনেকেই জানি। কিন্তু এটি ছাড়াও বজ্রাসনের আরও অনেক উপকারিতা আছে। যেমন, 
  • এই আসনটি রক্ত চলাচল নিয়ন্ত্রণ করে। শরীরের নীচের অংশে রক্তের প্রবাহ কমিয়ে দিয়ে তা উপরের দিকের অংশে, বিশেষ করে পাচনতন্ত্রে বেশি করে রক্ত সরবরাহ করে। ফলে হজমের ক্ষমতা অনেকটাই বেড়ে যায়। 
  • যাঁদের সাইটিকা বা লোয়ার ব্যাক পেনের সমস্যা আছে, তাঁরা নিয়মিত এই আসনটি করলে উপকার (all you need to know about vajrasana benefits pose and cautions) পাবেন।
  • কোষ্ঠকাঠিন্য, পেটের নানা সমস্যা, হজমের গন্ডগোল দূর করতে এই আসনটি কাজে আসে। 
  • শরীরের পেশি টোন করতে সাহায্য করে এই আসনটি। ফলস্বরূপ গাঁটে ব্যথা ও ইউনিরানি ট্র্যাক ইনফেকশনের আশঙ্কাও যায় অনেকটাই কমে।
  • স্নায়ুতন্ত্রকে শান্ত করে এই যোগাসনটি। 

কিভাবে করবেন বজ্রাসন

ছবি – ইনস্টাগ্রাম

সেভাবে দেখতে গেলে বজ্রাসন কিংবা ডায়মন্ড পোজ করাটা কিন্তু খুব একটা কঠিন ব্যাপার নয়। এটি করতে চাইলে আগে শান্ত কোনও জায়গা বেছে নিন। এবার মাটির উপর হাঁটু ভাঁজ করে বসুন। আপনার নিতম্বটি থাকবে দুই পায়ের পাতার উপরে। বসার সময় পিঠ থাকবে সোজা, হাতদু’টি রাখতে হবে দুই হাঁটুর উপরে। চোখ বন্ধ রেখে ধীরে-ধীরে শ্বাস নেবেন ও ছাড়বেন। প্রথমদিকে এভাবে পাঁচ মিনিট বসার চেষ্টা করুন। পরে একটু অভ্যেস হয়ে গেলে আস্তে-আস্তে সময় বাড়ান। মনে রাখবেন, বজ্রাসন সব সময় ভরা পেটে করা ভাল। তবে খাবার খাওয়ার পরেই এই আসনটি করবেন না। মিনিটপনেরো পরে করবেন। 

কিছু সতর্কতা

১) আপনি যদি সন্তানসম্ভবা হন, তা হলে এই আসনটি করার সময় দুই হাঁটু জো়ড়া না করে ফাঁক করে রাখুন। তাতে আপনার পেট আরাম পাবে।

২) যাঁদের পায়ে কিংবা হাঁটুতে কোনও রকম ব্যথা আছে কিংবা কোনও অপারেশন হয়েছে অথবা হাঁটু পাল্টানো হয়েছে সম্প্রতি, তাঁরা এই আসনটি করার আগে ডাক্তারের পরামর্শ নিতে ভুলবেন না।

৩) যদি আসনটি (all you need to know about vajrasana benefits pose and cautions) করার সময় বা পরে হাঁটুতে কিংবা পায়ে কোনও ব্যথা হয়, তা হলে ধীরে-ধীরে মালিশ করুন, কিন্তু আসনটি করা ছেড়ে দেবেন না।

POPxo এখন চারটে  ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!

16 Dec 2020

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text