logo
Logo
User
home / লাইফস্টাইল
শেষপাতে চাটনি, নানা রকমের টক-মিষ্টি চাটনির রেসিপি রইল আপনাদের জন্য

শেষপাতে চাটনি, নানা রকমের টক-মিষ্টি চাটনির রেসিপি রইল আপনাদের জন্য

চাটনি (Chutney) খেতে ভালোবাসে না এমন মানুষ পাওয়া খুব মুশকিল। যে কোনও খাবারের সঙ্গে টকমিষ্টি আর অল্প ঝাল ঝাল চাটনি (Chutney) টাকরায় দিলেই যে স্বাদের স্বর্গ পাওয়া যায় সেটা ভাষায় বোঝানো মুশকিল। বাঙালি বাড়িতে বিশেষ করে যাই রান্না হোক না কেন, শেষপাতে একটু চাটনি না হলে ঠিক যেন জমে না। আর তাই তো আমাদের ভাণ্ডার থেকে আমরা আপনাদের সঙ্গে শেয়ার করে নিচ্ছি চাটনির (Chutney) তিনটে দুর্দান্ত পদ (Recipes)। চেখে দেখুন আর বলুন কেয়া বাত!

রসগোল্লার চাটনি

rasogolla

উপকরণঃ রসগোল্লা ৬ টা, চিনি ৪ টেবিল চামচ, তেঁতুলের কাই ৪ চা চামচ, নুন অল্প, ছোট এলাচ ২ টি, লবঙ্গ ১ টি ও সামান্য দারচিনি, মেথি অল্প, বাদাম তেল ২ বড় চামচ

প্রণালীঃ

বাদাম তেল গরম করে এলাচ, দারচিনি, লবঙ্গ মেথি ফোড়ন দিয়ে তেঁতুলের কাইটা দিয়ে দিন। ২ কাপ জল, চিনি ও ১ চিমটে নুন দিন। জল ফুটে উঠলে রসগোল্লা ছেড়ে দিন। চটচটে হয়ে গেলে নামিয়ে নিন।

পেঁপের চাটনি

papaya chutney

উপকরণঃ কাঁচা পেঁপে ১কেজি, চিনি হাফ সের, ছাঁকা লেবুর রস ছোট কাপে, নুন অল্প, ঝাল কাঁচা লঙ্কা ১ খানা

প্রণালীঃ পেঁপে প্রথমে লম্বায় দুফালি করে কেটে নিন। খোসা ছাড়িয়ে পেঁপের বীজ ফেলে দিন। আবার প্রতিটা ফালি লম্বা করে কাটুন। এবার আড়াআড়ি করে পেঁপে পাতলা পাতলা করে কাটুন। একটা সসপ্যানে চিনি ও জল মেশান। অল্প আঁচে চিনি গুলে নিন। তাতে পেঁপের ফালিগুলো ফেলে অল্প আঁচে সামান্য সিদ্ধ করুন। পেঁপে একটু নরম হলে ছাঁকনি দয়ে তুলে অন্য একটি পাত্রে রাখুন। জল ও চিনির মিশ্রণটি ফুটিয়ে ঘন করুন। আঠা আঠা হয়ে গেলে পেঁপের টুকরো, লেবুর রস, নুন ও কাঁচা লঙ্কা ছেড়ে দিন। পেঁপেগুলো এমনভাবে সেদ্ধ করুন যেন নরম হয় অথচ আস্ত থাকে। থকথকে ঘন হয়ে এলে নামিয়ে ফেলুন।

নারকেলের চাটনি

coco chutni

উপকরণঃ ঝুনো নারকেল কুচি দেড় কাপ, দই দেড় কাপ (এক কাপ দই এবং আধ কাপ মাঠা মিশিয়েও করতে পারেন), জল হাফ কাপ, তাজা আদাকুচি ১ টেবিল চামচ, তাজা কাঁচালঙ্কার কুচি ২ চামচ, গোলমরিচের গুঁড়ো ছোট চামচে, নুন ছোট চামচের হাফ চামচ, ঘি ২ টেবিল চামচ, কালো সর্ষে এক চামচ, বিউলির ডাল ভাঙা দেড় চামচ, তাজা কারিপাতা ১২ টা, হলদে হিং গুঁড়ো সামান্য।

প্রণালীঃ নারকেল কুচি, দই, জল, আদা কুচি, লঙ্কা, গোল মরিচ এবং নুন একসঙ্গে ব্লেন্ড করে লেই প্রস্তুত করুন। এটা না করে দই এবং জল ছাড়া সবগুলো শিলনোড়ায় বেটে পড়ে দই এবং জল মিশিয়ে নিন। অবশ্য বাটার সুবিধের জন্য সামান্য জল বা দই বাটার সময়েও মেশাতে পারেন।মাঝামাঝি আঁচে একটা ভারী পাত্রে ঘি গরম করুন। ধোঁয়া ওঠার ঠিক আগের মুহূর্তে কালো সর্ষে ছেড়ে দিন। সর্ষে ফুটে ওঠার সঙ্গে সঙ্গেই বিউলি ডাল ছাড়ুন। বিউলি ডাল সামান্য বাদামি হলেই কারিপাতা ও হিং দিয়ে নামিয়ে নিন। ঠাণ্ডা হলেই নারকেল-দইয়ের মিশ্রণ ঢেলে দিন। নোনতা খাবারের সঙ্গে পরিবেশন করুন।  

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

21 Feb 2019

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text