home / লাইফস্টাইল
গায়ের দুর্গন্ধ দূর করতে পারফিউম-ডিওডোরেন্ট ভুলে ভরসা রাখুন ঘরোয়া পদ্ধতির উপর

গায়ের দুর্গন্ধ দূর করতে পারফিউম-ডিওডোরেন্ট ভুলে ভরসা রাখুন ঘরোয়া পদ্ধতির উপর

শীতের দু’মাস বাদ দিলে তো সারা বছরই ঘামে প্যাচপ্যাচে অবস্থা হয়। সঙ্গে লেজুড় হয় গায়ের দুর্গন্ধও। অগত্যা নানা কোম্পানির ডিওডোরেন্টের ব্যবসা বাড়ানো ছাড়া আর কোনও গতি থাকে না। কিন্তু প্রশ্ন হল, বোতল বোতল পারফিউম-ডিওডোরেন্ট (Deodorant) ঢেলেও কি ঘামের দুর্গন্ধ ধামা চাপা পড়ে? না, তা তো পরে না! তাই পারফিউম-ডিওডোরেন্টের উপর চোখ বন্ধ করে ভরসা না রেখে বরং এই সব ঘরোয়া পদ্ধতিগুলিকে একবার কাজে লাগিয়ে দেখুন। উপকার যে পাবেনই পাবেন, সেকথা হলফ করে বলতে পারি।

সারাদিন সুগন্ধে মেতে থাকতে রইল বাছাই করা ১৫টি ডিওডোরেন্টের হদিশ

ADVERTISEMENT

 

১. নারকেল তেল

বলেন কী, নারকেল তেল গায়ের দুর্গন্ধ কমাবে! কীভাবে শুনি? ঘামে তখনই দুর্গন্ধ হয়, যখন শরীরে ব্যাকটেরিয়ার মাত্রা বাড়তে শুরু করে। নারকেল তেল এই সব ক্ষতিকর ব্যাকটেরিয়াগুলিকে মেরে ফেলে। ফলে গা থেকে দুর্গন্ধ (Body Odor) বেরনোর আশঙ্কা আর থাকে না। যদিও এক্ষেত্রে নারকেল তেলের সঙ্গী হিসেবে আর একটা উপাদানও কাজে লাগাতে হবে, তবেই কিন্তু দীর্ঘমেয়াদি উপকার মিলবে। কী করতে হবে? শরীরের যে-যে জায়গায় বেশি ঘাম হয়, সেখানে অল্প করে নারকেল তেল লাগিয়ে মিনিটদুয়েক মালিশ করার পরে স্নান শুরু করুন। স্নানের শেষে এক মগ জলে এক চামচ citric acid powder মিশিয়ে জলটা গায়ে ঢালে নিন। নিয়মিত স্নানের সময় এই টিপসগুলি মানলে দেখবেন গা থেকে আর বদ গন্ধ বেরবে না।

ADVERTISEMENT

২. অ্যাপেল সিডার ভিনিগার

এক কাপ জলে হাফ কাপ অ্যাপেল সিডার ভিনিগার মিশিয়ে সেই মিশ্রণটি তুলোর সাহায্যে বগলে এবং শরীরের সেই সব জায়গায় লাগান, যেখানে বেশি ঘাম হয়। তাতে কী হবে? অ্যাপেল সিডার ভিনিগার হল প্রকৃতিতে অ্যাসিডিক, যা বদ গন্ধ সৃষ্টিকারী ব্যাকটেরিয়াগুলি নিমেষে মেরে ফেলবে। ফলে দুর্গন্ধ দূর হতে সময় লাগবে না।

৩. ইপসাম লবণ

নিয়মিত ইপসাম লবণ মেশানো জলে স্নান শুরু করুন। তাতেই ঘামের দুর্গন্ধ দূর হবে। কারণ, এই নুনে এমন কিছু উপাদান রয়েছে, যা ঘামের মাত্রা কমায়, সেই সঙ্গে ক্ষতিকর ব্যাকটেরিয়াগুলিকেও মেরে ফেলে। ফলে নিমেষেই দুর্গন্ধ দূর হয়। তবে এত উপকার পেতে এক বালতি জলে কম করে আধ কাপ ইপসাম লবণ মেশাতে ভুলবেন না যেন!

ADVERTISEMENT

৪. মৌরি এবং মধু

গায়ের দুর্গন্ধের কারণে কি মাঝেমধ্যেই লোকসমাজে নাক কাটা যায়? তা হলে কাল থেকেই মৌরি ভেজানো জল খাওয়া শুরু করুন। দেখবেন, ঘাম কম হবে। সঙ্গে দুর্গন্ধও কমবে। আসলে মৌরিতে এমন কিছু উপাদান রয়েছে, যা এক্ষেত্রে বিশেষ ভূমিকা নেয়। কিন্তু প্রশ্ন হল, এমন সব উপকার পেতে কীভাবে মৌরি জল তৈরি করতে হবে, সে সম্পর্কে জান আছে কি? এক কাপ জলে এক চামচ মৌরি গুঁড়ো মিশিয়ে জলটা মিনিটদুয়েক ফুটিয়ে নিন। তারপর তাতে এক চামচ মধু মিশিয়ে পান করুন।

৫. গ্রিন টি

এক্কেবারে ঠিক শুনেছেন! গায়ের দুর্গন্ধ দূর করতে গ্রিন টির কোনও বিকল্প হয় না বললেই চলে। কিন্তু তাই বলে ভাববেন না গ্রিন টি পান করলেই উপকার মিলবে। তা হলে কী করণীয়? এক কাপ গ্রিন টি তৈরি করে তুলোর সাহায্যে সেই মিশ্রণটি শরীরের সেই সব জায়গায় লাগান, যেখানে বেশি মাত্রায় ঘাম হয়, তা হলেই উপকার পাবেন। কিন্তু গ্রিন টিতে এমন কী আছে, যা ঘামের দুর্গন্ধ দূর করে? এই পানীয়টিতে মজুত রয়েছে প্রচুর পরিমাণে tannic acid, যা ঘামের মাত্রা কমায়, সঙ্গে ব্যাকটেরিয়ার খেল খতম করে দেয়। ফলে দুর্গন্ধ দূর হতে সময় লাগে না।

ADVERTISEMENT

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

আপনি যদি রংচঙে, মিষ্টি জিনিস কিনতে পছন্দ করেন, তা হলে POPxo Shop-এর কালেকশনে ঢুঁ মারুন। এখানে পাবেন মজার-মজার সব কফি মগ, মোবাইল কভার, কুশন, ল্যাপটপ স্লিভ ও আরও অনেক কিছু!

ADVERTISEMENT
23 Aug 2019
good points

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text