home / বিনোদন
মহালয়ার ভোরে ‘মহামায়া’, ভিন্ন ভাবনার রসদ

মহালয়ার ভোরে ‘মহামায়া’, ভিন্ন ভাবনার রসদ

রাত পোহালেই মহালয়া (mahalaya)। পিতৃপক্ষের অবসান আর দেবীপক্ষের সূচনা। মা আসছেন। মা আসবেন, প্রতি বছরের মতোই। কিন্তু এ বছর সব হিসেবই যেন আলাদা।

করোনা আতঙ্কে ত্রস্ত গোটা পৃথিবী। লকডাউনের ফলে ভেঙে পড়েছে অর্থনীতি। এখনও করোনার কোনও প্রতিষেধক আবিষ্কার হয়নি। কার্যত প্রাণ হাতে করে মানুষ বেরচ্ছেন। এর মধ্যেই ক্যালেন্ডার মেনে এসেছে মহালয়া। আর ক্যালেন্ডার মেনেই এই বছর দুর্গাপুজো আসতে আরও এক মাস বাকি।

মহালয়ার পরে এই দীর্ঘ অপেক্ষায় অভ্যস্ত নয় বাঙালি। এই নিয়ম নেহাতই ব্যতিক্রম। যেমন ব্যতিক্রম করোনার আবহে মায়ের আবাহানের আয়োজন। মহালয়ার ভোরে রেডিওর নস্টালজিয়া বাঙালির থাকবে। বিভিন্ন চ্যানেলে কোন চেনা মুখ দুর্গা হচ্ছেন, সে নিয়েও উত্তেজনা থাকবে। তার মধ্যেই ব্যতিক্রমী ভাবে মহালয়ার কথা ভেবেছেন অভিনেত্রী এনা (Ena) সাহা। তাঁর অনুষ্ঠানের শিরোনাম ‘মহামায়া’। আগামিকাল সোশ্যাল ওয়ালে দেখা যাবে এই কাজ।

‘মহামায়া’-র বিশেষত্ব কী? আসলে আমরা দেবী বন্দনা করি ঠিকই। কিন্তু রক্তমাংসের দেবী অর্থাৎ নারী এখনও অবহেলার পাত্রী। সমাজের দিকে নজর দিলেই তা বুঝতে পারবেন। আজও কন্যা ভ্রুণ হত্যা হয়। আজও গার্হস্থ্য হিংসার শিকার হয় মেয়েরা। আজও কর্মক্ষেত্রে লাঞ্ছনা হয় মেয়েদেরই। আজও লিঙ্গ বৈষম্যের চর্চা চলে সব ক্ষেত্রে। এ সবের বিরুদ্ধেই প্রতিবাদী স্বর হয়ে উঠতে পারে ‘মহামায়া’।

 

নতুন ভূমিকায় এনা।

জারেক এন্টারটেনমেন্টের প্রযোজনায় ‘মহামায়া’ পরিচালনা করেছেন অমিত বিট্টু দে। মুখ্য ভূমিকায় এনা। দুর্গা হিসেবে গৌরব এবং অসুর হিসেবে দীপায়ন ঘোষকে দেখবেন দর্শক। বিশেষ চরিত্রে রয়েছেন সনাতন রুদ্র পাল। অমিতের কথায়, “বলিষ্ঠ কিছু তৈরি করার মতো গর্বের আর কিছু নেই। গত দু’বছর ধরে এটা পরিকল্পনা করেছি। আমার বন্ধু এনা এবং প্রযোজক জারেক এন্টারটেনমেন্টকে ধন্যবাদ। রাজিমূল হক, সৌরভ সিনহা রায় এবং অবশ্যই সনাতন রুদ্র পাল যে আমার উপর বিশ্বাস রেখেছেন, তার জন্য ধন্যবাদ।” রাহুল রায়ের চিত্রনাট্যে সংগীত সাজিয়েছেন ডিজে আলভি। ক্যামেরার দায়িত্ব সামলেছেন সূরজ দাস। সম্পাদনায় করেছেন প্রণয় দাশগুপ্ত।

এনা সাহা এখন আর শুধু অভিনয়ে নিজেকে আটকে রাখেননি। শুরু করেছেন প্রযোজনাও। ‘এসওএস কলকাতা’ এনার প্রযোজিত প্রথম ছবি। মিমি চক্রবর্তী, নুসরত জাহান, যশ এই ছবিতে অভিনয় করেছেন। এনা প্রযোজনার পাশাপাশি অভিনয়ও করেছেন। অর্থাৎ কনটেন্ট নিয়ে নতুন ভাবে চিন্তা ভাবনা করছেন। তাঁর প্রথম প্রযোজিত ছবি যেমন সেই ইঙ্গিতই দিচ্ছে। আবার ‘মহামায়া’ও সেই ভিন্ন ভাবনারই ফসল। একই ধারার মহালয়া দেখে দর্শক অভ্যস্ত। ‘মহামায়া’য় নিশ্চয়ই অন্য স্বাদ পাবেন দর্শক। নিজেদের কাজ নিয়ে কনফিডেন্ট গোটা টিম। আপাতত আগামিকালের অপেক্ষা। মহালয়ার দিনেই অন্তত আমাদের চিন্তায়, চেতনায় জন্ম নিক ‘মহামায়া’।

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!

15 Sep 2020

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text