home / Care
কোঁকড়ানো চুলের যত্ন কেমন হবে যাতে তা হয় ম্যানেজেবল

কোঁকড়ানো চুলের যত্ন কেমন হবে যাতে তা হয় ম্যানেজেবল

একটা সময় এসেছিল যখন মোটামুটি সবার চুলই স্ট্রেট ছিল, কারণ তখন সেটা ছিল বিউটি ট্রেন্ড। কিন্তু এখন আবার যার যেমন চুলের ধরন সেরকম রাখাই ফ্যাশন। অনেক মহিলারই চুল কোঁকড়ানো, আর সত্যি বলতে কী, সুন্দর করে যত্নে রাখা কোঁকড়ানো চুল (hair care routine for curls)  কিন্তু দেখতেও ভাল লাগে। তবে একথাও ঠিক যে কোঁকড়ানো চুলের যত্নের প্রয়োজন একটু বেশি, কারণ তা স্বাভাবিকভাবেই একটু রুক্ষ প্রকৃতির হয়। শ্যাম্পু করা, চুলে কন্ডিশনার লাগানো, তার পরে হেয়ার সিরাম লাগানো – বেশ সময় সাপেক্ষ ব্যাপার। এসব না করলে চুল বেলুনের মত ফুলে যায় আর ফ্রিজি হয়ে যায়, যা ম্যানেজ করা বেশ শক্ত। চলুন দেখে নেওয়া যাক, কোঁকড়ানো চুলের যত্ন ঠিক কিভাবে নেওয়া উচিত।

কোঁকড়ানো চুলের হেয়ার কেয়ার রুটিন

বলিউডের অভিনেত্রী কঙ্গনা রাণাওত তাঁর কোঁকড়ানো চুলের যত্নে নানা নিয়ম মেনে চলেন (ছবি – ইনস্টাগ্রাম)

১। আপনার চুলের স্বাভাবিক কোঁকড়ানো ব্যাপারটাই রাখুন। যদি আপনার চুল খুব বেশি কোঁকড়ানো (hair care routine for curls) হয়, সেক্ষেত্রে টেনে হিঁচড়ে তা সোজা করতে যাবেন না, এতে হিতে বিপরীত হতে পারে। আবার যদি চুল অল্প কোঁকড়ানো হয় সেক্ষেত্রেও স্টাইলিং টুল ব্যবহার করে এক্কেবারে নুডলসের মত পাকিয়ে ফেলবেন না। এতে চুলের টেক্সচার নষ্ট হয়ে যায় ও চুল ড্যামেজ হওয়ার আশঙ্কা বেড়ে যায়।

২। অনেকের চুল কোঁকড়ানো হলেও এক এক জনের কোঁকড়ানো চুলের ধরন কিন্তু এক এক রকমের হয়। কাজেই প্রত্যেকের চুলের যত্নই আলাদা হওয়া উচিত। আপনার বন্ধু বা আত্মীয়ের চুলের যত্ন এক রকমের বলে যে সেটি আপনার চুলের জন্যও সঠিক হবে, তার কোনও মানে নেই। কাজেই নিজের চুলের ধরন ও পোরোসিটি দেখে তবেই হেয়ার কেয়ার প্রোডাক্ট ব্যবহার করুন।

৩। কোঁকড়ানো চুল (hair care routine for curls) কিন্তু নিয়মিত আঁচড়াতে হবে, তা না হলে চুলে জট পড়ে যাবে। স্ট্রেট চুলের জট ছাড়ানো যতটা সহজ, কোঁকড়ানো চুলে একবার জট পড়লে তা ছাড়ানো কিন্তু খুব শক্ত কাজ। কাজেই, ইচ্ছে করছে না বা পরে করব বলে চুল আঁচড়ানো ফেলে রাখবেন না। সম্ভব হলে দিনে দুই-তিন বার চুল আঁচড়ে নিন। কোঁকড়ানো চুল আঁচড়ানোর সময়ে কিন্তু সব সময়ে মোটা দাঁতের চিরুনি ব্যবহার করবেন। এতে চুল ছিঁড়বে কম আর ভাঙবেও না।

বলিউডের অভিনেত্রী তাপসী পন্নু তাঁর কোঁকড়ানো চুলের যত্নে নানা নিয়ম মেনে চলেন (ছবি – ইনস্টাগ্রাম)

৪। আপনি কী হেয়ার কেয়ার প্রোডাক্ট ব্যবহার করছেন তার উপরেও কিন্তু আপনার চুল কেমন থাকবে তা নির্ভর করে। যতটা সম্ভব প্রাকৃতিক উপকরণযুক্ত প্রোডাক্ট ব্যবহার করুন। প্যারাবেন, সালফেট ও অন্যান্য কড়া রাসায়নিকযুক্ত শ্যাম্পু এক্কেবারে এড়িয়ে চলুন। এছাড়াও কোঁকড়ানো চুল (hair care routine for curls) যেহেতু এমনিতেই ফ্রিজি ও রুক্ষ হয়, কাজেই চুলে আর্দ্রতা ধরে রাখাটাও জরুরি। সপ্তাহে একবার করে হেয়ার প্যাক লাগাতে পারেন। শ্যাম্পুর পর কন্ডিশনার লাগাতে ভুলবেন না।

POPxo এখন চারটে  ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!

27 Oct 2020

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text