ওয়েলনেস

ডায়েবেটিস ও রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখতে নিয়মিত খান গ্রিন কফি

Debapriya BhattacharyyaDebapriya Bhattacharyya  |  Mar 30, 2021
ডায়েবেটিস ও রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখতে নিয়মিত খান গ্রিন কফি in bengali

গত কয়েক বছরে গ্রিন কফি বেশ জনপ্রিয়তা লাভ করেছে। আর কেনই বা করবে না! শরীর সুস্থ রাখতে এই পানীয়টি (health benefits of green coffee) নানাভাবে সাহায্য করে থাকে। বিশেষত, এই গ্রিন কফিতে উপস্থিত অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট, অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি উপাদান এবং ক্লোরোজেনিক অ্যাসিড শরীরে প্রবেশ করা মাত্র শরীরে নানা পজিটিভ পরিবর্তন হতে শুরু করে। তার প্রভাবে একদিকে যেমন ওজন কমতে শুরু করে, তেমনি আরও অনেক উপকার পাওয়া যায়। গ্রিন কফি নিয়মিত খেতে পারলে ঠিক কী কী উপকার পাওয়া যায়, তা নিয়েই বিস্তারিত আলোচনা করব আজ। কিন্তু প্রশ্ন হল গ্রিন কফি জিনিসটা ঠিক কী?

গ্রিন কফি কী?

গ্রিন কফি ও রেগুলার কফি

কফি গাছ থেকে কফি বিনস সংগ্রহ করার পরে তা রোস্ট করে পাউডার বানিয়ে বাজারে বিক্রি করা হয়, যার রং হয় বাদামী। সাধারণত আমরা এই ধরনের কফিই খেয়ে থাকি। কিন্তু গ্রিন কফি (health benefits of green coffee), কফি বিনসকে রোস্ট না করে বানানো হয়। আর রোস্ট না করার কারণে গ্রিন কফি বিনসে উপস্থিত পুষ্টিকর উপাদানগুলি একদম ইনট্যাক্ট থাকে, ফলে শরীরে তা ভালভাবে কাজ করতে পারে। গ্রিন কফি কী, তা তো জানা গেল, কিন্তু এই কফি কেন খাবেন, বা খেলে শরীরে কী কী উপকার হতে পারে, সে কথাও তো জানতে হবে তাই না?

১। মধুমেহ বা ডায়েবেটিস নিয়ন্ত্রণে রাখে

পরিবারে এই মারণ রোগের ইতিহাস আছে? তাহলে তো রোজের ডায়েটে গ্রিন কফিকে জায়গা করে দিতেই হবে। আসলে এই কফি বিনসের শরীরে রয়েছে প্রচুর মাত্রায় ক্লোরোজেনিক অ্যাসিড, যা রক্তে শর্করার মাত্রাকে নিয়ন্ত্রণে রাখতে বিশেষ ভূমিকা পালন করে থাকে। ফলে স্বাভাবিকভাবেই ডায়াবেটিসের মতো রোগ ধারে কাছেও ঘেঁষতে পারে না।

২। শরীরের টক্সিন ফ্লাস আউটে সাহায্য করে

কফির ফল

বিশেষজ্ঞদের মতে নিয়মিত গ্রিন কফি পান করা শুরু করলে শরীরে অ্যান্টিঅক্সিডেন্টের মাত্রা এতটাই বৃদ্ধি পায় যে দেহের ইতি-উতি জমে থাকা টক্সিন বেরিয়ে (health benefits of green coffee) যায়। ফলে শরীরের গুরুত্বপূর্ণ অঙ্গগুলির কোনও ক্ষতি হওয়ার আশঙ্কা প্রায় থাকে না বললেই চলে। শুধু তাই না, লিভারও সুস্থ থাকে এবং কোলেস্টেরলের মাত্রাও বাড়ে না।

৩। শরীরের বাড়তি মেদ ঝরাতে সাহায্য করে

গ্রিন কফিতে উপস্থিত ক্লোরোজেনিক অ্যাসিড শরীরে প্রবেশ করা মাত্র মেটাবলিক রেট প্রায় ৩-১১ শতাংশ বেড়ে যায়। আর হজম ক্ষমতা বাড়ার কারণে স্বাভাবিকভবেই অতিরিক্ত মেদ ঝরে যেতে সময় লাগে না। ওবেসিটির কারণে যদি চিন্তায় থাকেন, তাহলে এক্সারসাইজ করার পাশাপাশি নিয়মিত গ্রিন কফি খেতে ভুলবেন না। তবে ঠিক কতটা গ্রিন কফি খাবেন আর দিনে কত বারই বা খাবেন, সে সম্পর্কে একবার চিকিৎসকের সঙ্গে পরামর্শ করে নিতে হবে।

৪। রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখে

উচ্চ রক্তচাপের সমস্যা থাকলে নিয়মিত গ্রিন কফি পান করুন

গত কয়েক বছরে মানুষের শরীরে রক্তচাপের সমস্যা চোখে পড়ার মতো বৃদ্ধি পেয়েছে। আর আপনি হয়ত আশ্চরজ হবেন, এই সমস্যা বেশি দেখা দিয়েছে কম বয়সীদের মধ্যে। হবে নাই বা কেন! আমাদের জীবনে এই মুহূর্তে বাকি প্রয়োজনীয় বিষয় কম থাকলেও স্ট্রেসের মাত্রা অত্যধিক। ফলে হাইপারটেনশন এবং উচ্চ রক্তচাপের সমস্যাও বেশি। আপনি তো আর চাকরি বা ব্যবসা ছেড়ে দিতে পারবেন না, তাই এমন পরিস্থিতিতে নিয়মিত গ্রিন কফি পান (health benefits of green coffee) করুন। কারণ এতে উপস্থিত নানাবিধ উপকারী উপাদানের কারণে আর্টারিয়াল ইলাস্টিসিটি-এর উন্নতি হবে, যে কারণে রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণের বাইরে যাওয়ার আশঙ্কা প্রায় থাকে না বললেই চলে।

POPxo এখন চারটে  ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!       

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!