Diet

আজ থেকেই হলুদ দুধ খাওয়া শুরু করুন, সুস্থ থাকবেন

Indrani BoseIndrani Bose  |  Jan 16, 2021
আজ থেকেই হলুদ দুধ খাওয়া শুরু করুন, সুস্থ থাকবেন

সোনালি দুধ বা হলুদ দুধ। বাঙালিরা এই গোল্ডেন মিল্ককে হলুদ মেশানো দুধ বলেই জানেন। আমরা যখন ছোট ছিলাম, তখন সারাদিন খুব পরিশ্রম গেলেই মায়েরা জোর করে হলুদ মেশানো দুধ খাইয়ে দিতেন। ছোটবেলার কথা মনে নেই, তাই বলতে পারব না হলুদ দুধ ম্য়াজিকের মতো কাজ করত কি না। কিন্তু বড় হয়েও যখন কোনও কোনওদিন খুব পরিশ্রম গিয়েছে, মায়ের পরামর্শ মতো রাতে শোওয়ার আগে হলুদ দুধ খেয়ে শুতে গিয়েছি (health benefits of turmeric milk) । 

সত্যিই পরেরদিন সকালে উঠে দেখেছি হলুদ দুধ ম্যাজিকের মতোই কাজ করেছে। তবে শুধুই ক্লান্তিভাব নিরাময় বা শরীরের ব্যথা ঠিক করাতেই হলুদ দুধের ভূমিকা আছে তাই নয়, একইসঙ্গে তার অন্যান্য গুণও রয়েছে। হলুদ দুধের উপকারিতা (health benefits of turmeric milk) আজ আরও একবার জেনে নেওয়া যাক। আসুন জেনে নিই।

আজ থেকেই হলুদ দুধ খাওয়া শুরু করুন

হলুদ দুধে আছে অ্যান্টি অক্সিড্যান্টস

হলুদ দুধে প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টি অক্সিড্যান্টস রয়েছে যা শরীরের অনেক কঠিন অসুখের সঙ্গে মোকাবিলা করে। শরীরের ভিতরের যে কোনও ধরনের ইনফেকশন বা সংক্রমণও সারিয়ে তুলতে পারে। তাই অসুস্থতার সময় বা নিয়মিত হলুদ দুধ (health benefits of turmeric milk) খেলে অবশ্য়ই ফল পাবেন।

শরীরের ফোলাভাব কমাতে সাহায্য করে

হলুদ দুধে রয়েছে শক্তিশালী অ্যান্টি-ইনফ্ল্যামাটরি প্রপার্টিস। বিশেষত আপনি যখন দুধে হলুদ মেশাচ্ছেন তখনই তা আরও শক্তিশালী হয়ে উঠছে। হলুদের গুণাবলী শরীরের ফোলাভাব কমাতে সাহায্য করে।

এক গ্লাস দুধে হলুদ মিশিয়ে খান

জয়েন্টে ব্যথা কমায় হলুদ দুধ

হলুদ দুধে অনেকেই শুধু হলুদ মিশিয়ে খান। অনেকে হলুদের সঙ্গে মিশিয়ে নেন আদা ও দারচিনিও। আর এর প্রত্যেকেরই রয়েছে অ্যান্টি ইনফ্ল্যামাটরি প্রপার্টিস। যা শরীরের ফোলাভাব যেমন কমায়, তার পাশাপাশি জয়েন্টে ব্যথাও নির্মূল করে। গবেষণায় দেখা গিয়েছে, অস্টিও আর্থারাইটিসের রোগীদের হলুদ দুধ দেওয়া হয়েছে নিয়মিত। প্রায় ছয় সপ্তাহ ধরে দেওয়া হয়েছে। ফলত তাঁরা কম যন্ত্রণা বোধ করেছেন। এবং ব্যথা কমানোর ওষুধও তাঁদের অনেক কম পরিমাণে খেতে হয়েছে(health benefits of turmeric milk) ।

মেধা ও স্মৃতিশক্তি আরও উন্নত করে হলুদ দুধ

হলুদে রয়েছে কারকিউমিন(health benefits of turmeric milk) । যা মস্কিষ্কের ক্ষমতা আরও বাড়ায়। স্মৃতিশক্তিও উন্নত করে। তাই অনেক গবেষণায় এও দেখা গিয়েছে, অ্যালজাইমার বা পার্কিনসনের মতো অসুখেও কাজে দিয়েছে হলুদ দুধ।

ইমিউনিটি বাড়ায়

শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়

এটা আমরা অনেকেই জানি যে, হলুদ রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়(health benefits of turmeric milk) । তাই আপনি যদি প্রতি রাতে হলুদ দুধ খান, তবে আপনার রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা অবশ্য়ই বাড়বে। প্রতি আবহাওয়া পরিবর্তনের সময় অবশ্যই হলুদ দুধ খান। তাহলে আপনিও কাশি, সর্দি থেকে দূরে থাকবেন। আপনার শরীর ভাল থাকবে।

হলুদ খুবই উপকারী

হরমোনের পরিবর্তনকে উন্নত করে

প্রতি রাতে এক গ্লাস হলুদ দুধ আপনার শরীরের হরমোনাল পরিবর্তনকে ভাল করবে। তাই জন্য আপনার অ্যাকনের মতো সমস্যাও নিয়ন্ত্রণে আসতে পারে।

পিরিয়ড আনার জন্যও হলুদ দুধ উপযোগী

অনেক সময় পিরিয়ডের তারিখ চলে গেলেও পিরিয়ড আসতে চায় না। সেই সময় অনেকেই হলুদ দুধ খান রাতে। এই হলুদ দুধের গুণে (health benefits of turmeric milk) হরমোর ভারসাম্য থাকে। তখন পিরিয়ড শুরু হতে পারে।

POPxo এখন চারটে ভাষায়!ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন
#POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন
নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!