home / ওয়েলনেস
মুখের ভিতরে ছাল উঠে গেছে? উপশম হবে মাত্র তিনটি উপকরণে

মুখের ভিতরে ছাল উঠে গেছে? উপশম হবে মাত্র তিনটি উপকরণে

এমন কখনও হয়েছে যে, সবে একটা ফুচকা মুখে ঢুকিয়েছেন আর টক জলটা মুখে যেতেই সঙ্গে-সঙ্গে মুখের ভিতরে জ্বালা করে উঠেছে? অথবা দাঁত মাজতে গিয়ে ব্রাশের খোঁচা লেগে মুখের ভিতরে যেখানে ছাল উঠেছিল, সেখানে আরও জ্বলুনি হয়েছে? আমরা সবাই কোনও না-কোনও সময়ে এই সমস্যায় পড়েছি এবং বেশিরভাগ সময়েই মা-ঠাকুরমার বলে দেওয়া নানা ঘরোয়া টোটকার উপরেই ভরসা করেছি। বেশিরভাগ সময়েই চিনি রেখে দিতে বলতেন মা মুখের ভিতরে। তবে চিনি ছাড়াও যে মাউথ আলসার কমানোর আরও ঘরোয়া টোটকা রয়েছে, আজ সেগুলোই জানব। (how to prevent mouth ulcer and infections)

হলুদ-জল

কী কী উপকরণ প্রয়োজন – দুই টেবিল চামচ হুলুদ গুঁড়ো, এক টেবিল চামচ জল

কীভাবে মাউথ আলসারে লাগাবেন – জলের সঙ্গে হলুদ গুঁড়ো মিশিয়ে পেস্ট তৈরি করে নিন এবং মুখের ভিতরে যেখানে ছাল উঠে গেছে সেখানে লাগিয়ে নিন। পাঁচ মিনিট রেখে ভাল করে কুলকুচি করে নিন এবং প্রয়োজনে দাঁত মেজে নিতে পারেন, তবে নরম ব্রাশ দিয়ে। (how to prevent mouth ulcer and infections)

কত বার করে লাগাতে হবে – মাউথ আলসার সাধারণত হয় মুখের মধ্যে বাসা বেঁধে রাখা জীবাণু থেকে। হলুদ যে-কোনও রকমের জীবাণু সংক্রমণ প্রতিরোধ করতে এবং সারাতে সাহায্য করে। দিনে দু’বার করে হলুদের পেস্ট লাগান, কিছুদিনের মধ্যেই সমস্যার সমাধান হবে।

নুন-জল

কী কী উপকরণ প্রয়োজন – এক টেবিল চামচ নুন, আধ গ্লাস ঊষ্ণ জল

কীভাবে মাউথ আলসারে লাগাবেন – ঊষ্ণ জলে নুন মিশিয়ে মুখে নিয়ে কুলকুচি করতে পারেন অথবা গার্গলও করতে পারেন। জল শেষ হয়ে গেলে প্লেন জলে কুলকুচি করে নিতে পারেন।

কত বার করে লাগাতে হবে – অনেকেই মুখের ভিতরে ছাল উঠে গেলেও প্রথমদিকে অবহেলা করেন। ফলস্বরূপ, জীবাণু সংক্রমণ অনেকটা জায়গায় ছড়িয়ে যায় এবং কষ্ট বাড়ে। নুন জল যেহেতু অ্যান্টিসেপ্টিকের কাজ করে, কাজেই নুন জল মাউথ আলসার বাড়তে দেয় না এবং কষ্টও প্রশমিত করে। দিনে দুই থেকে তিনবার নুন জলে গার্গল করুন।

হারবাল টুথপেস্ট

কী কী উপকরণ প্রয়োজন – যে-কোনও ভাল ব্র্যান্ডের হারবাল টুথ পেস্ট এবং একটি কিউ টিপ বা কটন বাড

কীভাবে মাউথ আলসারে লাগাবেন – সকালে ঘুম থেকে উঠে এবং রাতে ঘুমোতে যাওয়ার আগে কটন বাডে টুথ পেস্ট নিয়ে মুখের ভিতরে যেখানে ছাল উঠেছে, সেখানে লাগান। মিনিটপাঁচেক রেখে কুলকুচি করে নিন। টুথ পেস্ট লাগালে সামান্য জ্বালা করতে পারে, তবে এতে ভয় পাওয়ার কোনও কারণ নেই। (how to prevent mouth ulcer and infections)

কতবার করে লাগাতে হবে – যেহেতু যে-কোনও ভাল ব্র্যান্ডের টুথ পেস্টে অ্যান্টি-মাইক্রোব্যাক্টেরিয়াল প্রপারটিস থাকে, কাজেই মাউথ আলসার সারাতে টুথ পেস্ট খুব ভাল ঘরোয়া টোটকা হিসেবে কাজ করে। প্রতিদিন অন্তর দিনে দু’বার করে কটন বাড দিয়ে টুথ পেস্ট লাগান, সপ্তাহখানেকের মধ্যেই আরাম পাবেন।

POPxo এখন চারটে ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!      

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!

08 Oct 2021

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text