Advertisement

পোষ্য

কম খরচে অ্যাকোয়ারিয়াম সেট আপ করুন! তবে খেয়াল রাখুন এই বিষয়গুলোও

Indrani BoseIndrani Bose  |  Dec 2, 2020
কম খরচে অ্যাকোয়ারিয়াম সেট আপ করুন! তবে খেয়াল রাখুন এই বিষয়গুলোও

শোনা যায়, বসার ঘরে অ্যাকোয়ারিয়াম না কি বাড়ির জন্য শুভ। অনেকেই তা মানেন। অনেকে আবার অ্যাকোয়ারিয়াম ঘরের শোভা বাড়ায় বলে অ্যাকোয়ারিয়াম রাখেন। রঙিন মাছ জলের মধ্যে ঘুরে বেড়ালে তা অবশ্যই দেখতে ভাল লাগে। তাই অনেকেই অ্যাকোরিয়াম কেনেন।

কিন্তু যখন আপনি অ্যাকোয়ারিয়াম সেট আপ করেন (aquarium at low cost), আপনি কি মনে রাখেন যে, অ্যাকোয়ারিয়াম একটি কৃত্রিম বাস্তুতন্ত্র। অর্থাৎ, আপনি জলের বাস্তুতন্ত্রকে নতুন করে সেট করছেন। তাই সেটি এমনভাবেই সেট করা উচিত, যাতে জলের ভিতরের প্রাণীগুলোও ভাল থাকে। তবে একথাও ঠিক , আপনার বাজেটের দিকটাও খেয়াল রাখতে হবে। তাই কম খরচে অ্যাকোয়ারিয়াম সেট আপ করার কথা ভাবতে হবে। কম খরচে অ্যাকোয়ারিয়াম সেট আপ কি সম্ভব? অবশ্যই সম্ভব। একই সঙ্গে যেমন, ফিশ ট্যাঙ্ক সাইকেলও বজায় থাকবে, আবার কম খরচে অ্যাকোয়ারিয়াম সেট আপ (aquarium at low cost) হবে। তবে সব মিলিয়ে অন্তত এক হাজার টাকা খরচ হতে পারে (aquarium at low cost)। এই পরিমাণ টাকা আগে থেকেই জমিয়ে রাখুন।

মাছ পোষার সময় আপনি যে ভুলগুলো করেন

ফিশ বোল’কে না বলুন

কম খরচে অ্যাকোয়ারিয়াম সেট আপ করব ভেবে অনেকেই মাছ রাখার জন্য ফিশ বোল বেছে নেন। সেই বোলে গোল্ড ফিশের মতো মাছ রাখেন। এবং মাছ কয়েক মাসের মধ্যে মারা গেলে দুঃখ পান। মাছের কথা ভেবে কখনও ফিশ বোলে মাছ রাখবেন না। এতে মাছের খুব ক্ষতি হয়। সবসময় চৌকো ফিশ ট্যাঙ্ক কিনুন।

অকারণ কেমিক্যাল ব্যবহার করবেন না

মাছের দোকানে অনেকরকম ওষুধ কিনতে পাওয়া যায়। আপনি জলের পিএইচ লেবেল জেনে তবেই সেই ওষুধ ব্যবহার করুন। অযথা কেমিক্যাল ব্যবহার করে জলের ভারসাম্য নষ্ট করবেন না।

কৃত্রিম জিনিস ব্যবহার করবেন না

প্লাস্টিকের গাছ অ্যাকোয়ারিয়াম ব্যবহার করবেন না। বা প্রাকৃতিকভাবে রঙিন পাথর ব্যবহার করবেন। কম খরচে অ্যাকোয়ারিয়াম সেট আপ -র সময় এই বিষয়গুলি মাথায় রাখুন।

সঠিক মাছ বেছে নিন…

অ্যাকোরিয়াম সেট আপের আগে যে যে বিষয় খেয়াল রাখবেন

সঠিক মাপের অ্যাকোয়ারিয়াম বেছে নিন

বাড়ির জায়গা অনুযায়ী অ্যাকোয়ারিয়াম বেছে নিন। তবে এটা মাথায় রাখবেন ছোট অ্যাকোয়ারিয়াম মাছের জন্য ক্ষতিকর। তাই ২x১x১ ফুটের কমে অ্যাকোয়ারিয়াম নেবেন না।

পর্যাপ্ত অক্সিজেনের ব্যবস্থা করুন

যে অ্যাকোয়ারিয়ামে আপনি মাছ রাখবেন, সেই অ্যাকোয়ারিয়ামে পর্যাপ্ত অক্সিজেনের ব্যবস্থা করুন অবশ্যই। অ্যাকোয়ারিয়ামের মাপ অনুযায়ী আপনি অক্সিজেন ও ফিল্টার লাগান।

মাছ নিয়ে ইন্টারনেটে পড়ে নিন

আপনি মাছ কেনার আগে সেই মাছের বিষয়ে ইন্টারনেটে পড়ে নিন। কীভাবে যত্ন নেবেন, তার ফুড হ্যাবিটও জেনে নিন।

সঠিক পরিমাণ খাবার দিন

কোনও মাছের খাবার বেশি লাগে, কোনও মাছের কম। মাছকে বেশি খাইয়ে ফেললে তাতে মাছের ক্ষতি হয়। এমনকী মাছের ক্ষতি পর্যন্ত হতে পারে। মাছের চোখের আকারে মাছের পাকস্থলী হয়। তাহলে বুঝতেই পারছেন। বেশি খাবার দিলে যেমন মাছের ক্ষতি হতে পারে, একইভাবে জলও নোংরা হয়। কম খরচে অ্যাকোয়ারিয়াম সেট আপ করছেন, তবে এই বিষয়গুলি অবশ্যই মাথায় রাখুন।

 

নিয়মিত রক্ষণাবেক্ষণ করুন…

মাছ বেছে নিন ঠিকভাবে

কোন মাছের সঙ্গে কোন মাছ রাখা যাবে, তা জেনে নিন। তবে কিছু সহজ মাছ হল- সোর্ড টেল, মলি, গাপ্পি, ক্রোকোডাইল(প্লেকো),  টাইগার বার্ব ইত্যাদি। ৩-৪ ফুটের থেকে ছোট অ্যাকোয়ারিয়ামে গোল্ডফিশ জাতীয় মাছ না রাখাই ভাল।

প্রাকৃতিক গাছ ব্যবহার করুন

প্লাস্টিক গাছ ব্যবহার না করে প্রাকৃতিক বা আসল গাছ ব্যবহারের চেষ্টা করুন। তবে পর্যাপ্ত আলো অবশ্যই দেবেন। আমাজ়ন সোর্ড,  স্যাজিটিরিয়া, লিলি, ক্রিপ্টোকোরিন ইত্যাদি গাছ রাখতে পারেন।

রক্ষণাবেক্ষণে গুরুত্ব দিন

প্রতি সপ্তাহে সম্পূর্ণ জলের অন্তত এক তৃতীয়াংশ তুলে নিন। স্পঞ্জ দিয়ে অ্যাকোয়ারিয়ামের গা মুছে নিন। তারপর নতুন করে জল দিন। সম্পূর্ণ সেট-আপ তুলে জল বদলাতে পারবেন। এইভাবেই কম খরচে অ্যাকোয়ারিয়াম সেট আপ করে ফেলুন।

https://bangla.popxo.com/article/how-to-reduce-your-electricity-bill-in-bengali

POPxo এখন চারটে ভাষায়!ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!
বাড়িতে
থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন
#POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন
নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!