home / Natural Care
ফুলদানির বাসি গোলাপ ফেলে না দিয়ে রূপ-রুটিনে কাজে লাগান

ফুলদানির বাসি গোলাপ ফেলে না দিয়ে রূপ-রুটিনে কাজে লাগান

বলা হয় ফুলের রাণী হল গোলাপ। ভালবাসার প্রতীক হল গোলাপ। ঘরের ফুলদানিতে গোলাপ সাজিয়ে রাখলে দেখতে যেমন ভাল লাগে, তেমনই সুগন্ধও ছড়ায় দারুণ। কিন্তু দু-একদিন পরেই গোলাপ বাসি (how to use old roses for skin care routine) হয়ে যায় আর তারপরে ফেলে দিতে হয়। কিন্তু এখন থেকে আর বাসি গোলাপ ফেলবেন না, বরং বাসি গোলাপের পাপড়ি দিয়েই রূপচর্চা করুন। কিভাবে করবেন, আমরা বলে দিচ্ছি

গোলাপের পাপড়ির ফেস প্যাক

অল্প সময়েই ত্বকের সৌন্দর্য বাড়ুক, এমনটা চান নাকি? তা হলে চামচতিনেক বেসনের সঙ্গে দুই চামচ টক দই, ছোট বাটির আধ বাটি শুকিয়ে যাওয়া গোলাপের পাপড়ি এবং অল্প করে গোলাপ জল মিশিয়ে ভাল করে চটকে নিয়ে পেস্ট তৈরি করে ফেলুন। এবার সেই মিশ্রণটি সারা মুখে লাগিয়ে কম করে মিনিটপনেরো অপেক্ষা করে ঠান্ডা জল দিয়ে মুখ ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে বারদুয়েক এই ভাবে ত্বকের যত্ন নিলে উপকার পাবেই পাবেন!

তৈরি করে ফেলুন গোলাপ জল

বাসি গোলাপ ফুলের পাপড়ি দিয়ে বাড়িতেই গোলাপ জল তৈরি করে ফেলা সম্ভব (ছবি – পেক্সেলস ডট কম)

ত্বকের যত্নে গোলাপ জলের জুড়ি মেলা ভার। এই প্রাকৃতিক উপাদানটি দিয়ে নিয়মিত মুখ পরিষ্কার করলে pH balance ঠিক থাকে। ফলে ত্বকের তেলতেলে ভাব কমতে সময় লাগে না। এছড়াও ব্রণ এবং চুলকানির প্রকোপ কমাতেও কাজে আসে গোলাপ জল। তবে এখানেই শেষ নয়, ত্বকের সৌন্দর্য ধরে রাখতে এবং দাগ ছোপ দূর করতেও গোলাপ জলের কোনও বিকল্প হয় না বললেই চলে। তাই গোলাপ জল দিয়ে ত্বকের যত্ন নিতে ভুলবেন না যানে! আর মজার বিষয় কি জানেন, বাসি গোলাপ ফুলের পাপড়ি দিয়ে বাড়িতেই গোলাপ জল তৈরি করে ফেলা সম্ভব।

এক-দু’দিনের বাসি খানদশেক গোলাপ ফুল (how to use old roses for skin care routine) নিয়ে পাপড়িগুলো সংগ্রহ করে ঈষদুষ্ণ জলে ভাল করে ধুয়ে নিন। তাতে পাপড়িতে থাকা ক্ষতিকর রাসায়নিক ধুয়ে যাবে। এবার একটা বড় বাটিতে পাপড়িগুলি রেখে সেই বাটির আধ বাটি ডিস্টিল ওয়াটার নিয়ে মিনিটপাঁচেক জলটা ফুটিয়ে নিন। যখন দেখবেন পাপড়িগুলির রং ফ্যাকাসে হতে শুরু করেছে, তখন গ্যাসটা বন্ধ করে জলটা ছেঁকে নিয়ে একটা কাচের শিশিতে ঢেলে নিন। তবে মাথায় রাখবেন আপনার তৈরি গোলাপ জল যেহেতু ১০০ শতাংশ খাঁটি, অর্থাৎ এতে যেহেতু কোনও প্রিজারভেটিভ নেই, তাই বেশি দিন ফেলে রাখলে কিন্তু নষ্ট হয়ে যাবে।

মধু আর গোলাপ

দিন তিনেকের বাসি তিনটি গোলাপ ফুল নিয়ে তার পাপড়িগুলো সংগ্রহ করে বেটে নিন। এবার তার সঙ্গে দুই চামচ মধু মিশিয়ে তৈরি পেস্ট সারা মুখে লাগিয়ে কম করে আধ ঘণ্টা অপেক্ষা করুন। সময় হওয়া মাত্র মুখ ধুয়ে নিন। সপ্তাহে বারদুয়েক এই ফেসপ্যাকটি মুখে লাগাতে হবে, তা হলেই উপকার পাবেন।

ডি আই ওয়াই টোনার

সারাদিন কাজ করার পরে শরীর এবং মন যেমন ক্লান্ত হয়ে পড়ে, তেমনই দিনব্যাপী প্রাকৃতিক দূষণ এবং রোদ-জলের মারে ত্বকেরও বারোটা বেজে যায়। এই সময় অল্প করে টোনার মুখ স্প্রে করে নিলে ত্বকের হারিয়ে যাওয়া জেল্লা ফিরে আসতে সময় লাগে না। আর যখন টোনার বাড়িতেই তৈরি করে ফেলা সম্ভব, তখন কিনতে যাবেন কেন! এক্ষেত্রে চামচ তিনেক গোলাপ জলের সঙ্গে সম পরিমাণে ডিস্টিল ওয়াটার মিশিয়ে নিলেই তৈরি হয়ে যাবে টোনার (how to use old roses for skin care routine)। রাতে শুতে যাওয়ার আগে নিয়মিত এই টোনার মুখে স্প্রে করতে ভুলবেন না যেন!

POPxo এখন চারটে  ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!

16 Oct 2020

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text