home / পেরেন্টিং টিপস
সন্তানের আগামিকাল থেকে মাধ্যমিক পরীক্ষা? শেষ মুহূর্তে কেমন হবে আপনার আচরণ?

সন্তানের আগামিকাল থেকে মাধ্যমিক পরীক্ষা? শেষ মুহূর্তে কেমন হবে আপনার আচরণ?

আগামিকাল থেকে শুরু হচ্ছে মাধ্যমিক। জীবনের প্রথম বড় পরীক্ষা দেবে কয়েক লক্ষ পড়ুয়া। পরীক্ষার্থীদের জন্য লাস্ট মিনিট সাজেশন তো অনেকেই দিয়েছেন। বিশেষত শিক্ষক-শিক্ষিকাদের কাছ থেকে সেই পরামর্শ পেয়েছে পড়ুয়ারা। কিন্তু মাধ্যমিক (madhyamik) পরীক্ষার্থীদের মায়েদের (Guardian) এই শেষ মুহূর্তে ঠিক কেমন আচরণ করা উচিত? সাজেশন দিলাম আমরা। 

 

১) আজ রাত জাগতে দেবেন না

অনেকেরই রাত জেগে পড়ার অভ্যেস থাকে। তাতেই পড়া মনে থাকে ভাল। আপনার সন্তানেরও হয়তো সেই অভ্যেস রয়েছে। তবে আজ একেবারেই রাত জাগতে দেবেন না। জীবনের প্রথম বড় পরীক্ষার আগে ঘুম খুব জরুরি। অনেকেরই হয়তো উদ্বেগে ঘুম আসবে না। সেক্ষেত্রেও মা হিসেবে আপনি পাশে থাকুন। সন্তানকে ঘুমিয়ে পড়তে সাহায্য করুন। 

২) হালকা ডিনার

আজকের রাতের মেনু যেন একেবারে হালকা হয়। সহজপাচ্য যে কোনও খাবার। হজমের সমস্যা হতে পারে এমন কোনও খাবার আজ সন্তানকে দেবেন না। যাতে সুস্থ শরীরে পরীক্ষা দিতে পারে, সেদিকে নজর আপনাকেই রাখতে হবে। 

৩) নির্দিষ্ট সময়ে ডিনার

রাত করে ডিনার করাই হয়তো আপনাদের অভ্যেস। সেই নিয়ম আজ থেকেই বদলাতে হবে। অন্তত পরীক্ষা চলাকালীন খুব বেশি রাত করে ডিনার করবেন না। পরীক্ষার্থী তাড়াতাড়ি খেয়ে নিলে সহজে খাবার হজমও হবে। আবার ঘুমেরও ব্যাঘাত ঘটবে না।

৪) অত্যধিক রিভিশন নয়

Students

জীবনের প্রথম বড় পরীক্ষার মুখোমুখি। ছবি ইনস্টাগ্রামের সৌজন্যে।

আগামিকাল পরীক্ষা। তার আগে সিলেবাস ঝালিয়ে নেওয়ার কার্যত আজই শেষ সুযোগ। কিন্তু পুরো সিলেবাস রিভিশন দেওয়া অনেক সময়ই সম্ভব হয় না। সেক্ষেত্রে সন্তানকে দুর্বল অংশ গুলো ঝালিয়ে নেওয়ার পরামর্শ দিতে পারেন। শুধুমাত্র ভাল প্রিপারেশন থাকলেই যে ভাল পরীক্ষা হবে, তা তো নয়। পরীক্ষার হলে তিন ঘণ্টাটা খুব জরুরি। সময়ের মধ্যে সঠিক উত্তর দিতে হবে। তাই সিলেবাসের যে অংশ কোনওদিনই আপনার সন্তান পড়েনি, তা যেন আজ রাতে নতুন করে পড়তে না শুরু করে, সে পরামর্শও দিতে পারেন। 

৫) আত্মীয়-বন্ধুদের ফোন

আগামিকাল থেকে পরীক্ষা শুরু। তাই আজ হয়তো আপনাদের অনেক আত্মীয়, বন্ধু ফোন করে আপনার সন্তানকে শুভেচ্ছা জানাতে চাইবেন। সন্তান কী চাইছে, তার উপর গুরুত্ব দিন। যদি মনে করেন, সন্তান শুভেচ্ছা বার্তা এনজয় করছে, ফোনে সকলের সঙ্গে কথা বলতে চাইছে, তাহলে অ্যালাও করুন। আর তার বিপরীত হলে, এসব ফোন সামলাতে হবে আপনাকেই।

৬) সন্তানকে রিল্যাক্স রাখুন

হয়তো আপনার সন্তান গান শুনতে ভালবাসে। অথবা টিভির নির্দিষ্ট একটি অনুষ্ঠানের নিয়মিত দর্শক। আগামিকাল পরীক্ষা বলে সে সব বাতিল করতে হবে, এমন কোনও নিয়ম নেই কিন্তু। সন্তান যদি চায়, তাকে রিল্যাক্স করতে দিন। অবশ্যই সেটা যেন মাত্রাছাড়া না হয়ে যায়, তার খেয়াল রাখবেন। খাবার টেবিলে বা শুতে যাওয়ার আগে হালকা আড্ডা দিন। এমনকি আগামিকালের জন্য অনেক শুভ কামনা জানান আপনি। যাতে আপনাকে দেখে ও সাহস পায়। 

৭) সন্তানের সামনে প্যানিক করবেন না

আগামিকাল জীবনের প্রথম বড় পরীক্ষা দেবে আপনার সন্তান। মা হিসেবে হয়তো এটা আপনারও পরীক্ষা। সে কারণেই টেনশন হচ্ছে। কিন্তু কখনও সন্তানের সামনে নিজের উদ্বেগ প্রকাশ করবেন না। ওর সামনে প্যানিক করলে হারিয়ে যাবে ওর মনোবল। সেটা তো কাম্য নয়। 

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!

২০২০ শুরু করুন আমাদের দারুণ দারুণ প্ল্যানার আর স্টেটমেন্ট সোয়েটশার্ট দিয়ে। এগুলো সবকটাই আপনারই মতো একশ শতাংশ মজার এবং অসাধারণ! ওহ হ্যাঁ, শুধুমাত্র আপনার জন্য রয়েছে ২০ শতাংশ ছাড়ের ব্যবস্থাও। দেরি কিসের আর, এখনই POPxo.com/shop থেকে কেনাকাটা সেরে ফেলুন আর নিজেকে আরেকটু পপ আপ করে ফেলুন!

17 Feb 2020

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text