Advertisement

বলিউড ও বিনোদন

Love Aaj Kal-এর ট্রেলারে সারা-কার্তিকের সিরিয়াস ডায়লগ হাসির তুফান তুলছে টুইটারে…

Swaralipi BhattacharyyaSwaralipi Bhattacharyya  |  Jan 20, 2020
Love Aaj Kal-এর ট্রেলারে সারা-কার্তিকের সিরিয়াস ডায়লগ হাসির তুফান তুলছে টুইটারে…

Advertisement

সারা (Sara) আলি খান এবং কার্তিক (Kartick) আরিয়ানের প্রেমটা আদৌ হল কি? এ প্রশ্ন তুলে দিয়ে যে ছবির শুটিং শুরু হয়েছিল, তা হল ইমতিয়াজ আলির ‘লভ আজ কল’। না! সে প্রশ্নের উত্তর আজও পাওয়া যায়নি। যদিও এর মধ্যে গঙ্গা দিয়ে অনেক জল বয়ে গিয়েছে। আরব সাগরেও ঢেউ এল আর গেল। সারা-কার্তিক প্রেমে গদগদ ভাব দেখালেন বটে কদিন! তারপর আবার যে কে সেই! 

সদ্য মুক্তি পেয়েছে এই ছবির ট্রেলার। সেখানে কি রয়েছে? সারা আলি খান কিংবা কার্তিক আরিয়ান জাস্ট বোল্ড আউট। তাঁদেরকে একপাশে সরিয়ে দর্শক যে দু’জনকে নিয়ে আলোচনায় মত্ত, তাঁরা ইমতিয়াজ আলি এবং আরুষি শর্মা! তবে সারা, কার্তিক এক্কেবারে বাদ পড়বেন, তা আবার হয় নাকি? তাঁরা রয়েছেন। সোশ্যাল মিডিয়ার ওয়ালে মিম হয়ে। হ্যাঁ, ঠিকই ধরেছেন। ট্রেলার রিলিজ হওয়ার পরই সারা আর কার্তিককে নিয়ে প্রচুর মিম (meme) তৈরি হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। 

কখনও কার্তিকের সিরিয়াস ডায়লগের এক্সপ্রেশনের উপর লেখা রয়েছে, জীবনের শেষ দিন পর্যন্ত তোমার সঙ্গে থাকব। আবার কখনও বা লেখা, সব সাবজেক্টে পাশ করেও এগ্রিকেটে ফেল করে গিয়েছে যে ছাত্র। আবার কখনও বা সারার ডায়লগের ছবির ওপর লেখা, শীতে মুম্বইয়ের তাপমাত্রা কমতে থাকলে মুম্বইবাসীর কী অবস্থা হয়! কখনও বা মা বাড়িতে পছন্দের খাবার না তৈরি করলে, কী অবস্থা হয় তা সারার এক্সপ্রেশন দিয়ে বোঝানো হয়েছে। 

 

ইমতিয়াজ আলির এই লভ আজ কল (Love aaj kal)-এর ট্রেলার নেটিজনেজনদের একটা বড় অংশের মতো ইমতিয়াজের কেরিয়ারের নাকি সবথেকে খারাপ ছবির ট্রেলার। সারা বা কার্তিক কারও অভিনয়েই কোনও আবেগ খুঁজে পাননি দর্শক। এর আগের ছবিতে অভিনয় করেছিলেন সারার বাবা অর্থাৎ সেফ আলি খান। তাঁরও মনে হয়েছে, এই ছবিটা কিছুই হয়নি। সারার আগের ছবিগুলো এর থেকে অনেক ভাল। পারফর্মার হিসেবে নিজেকে সারা আগেই প্রমাণ করেছেন। তাহলে এই ছবিতে এত খারাপ পারফরম্যান্স হল কি করে? এমনকি দুটো ছবির মধ্যে যদি কিছু আলাদা না থাকে তাহলে কেন দর্শক হলে গিয়ে ছবিটি দেখবেন, প্রশ্ন উঠছে তা নিয়েও।  

শুধু সারা নন, কার্তিকও এক কথায় ট্রেলারে জিরো পেয়েছেন। নিউ এজ হিরো হিসেবে কার্তিককে বলিউড আলাদা জায়গা দিতে শুরু করেছিল। কিন্তু এই ছবি দেখার পর সেই আসনও নাকি টলোমলো। তবে অনেকেরই মনে হচ্ছে, ট্রেলার দেখেই এত সমালোচনা না করে, রিলিজ পর্যন্ত অপেক্ষা করা উচিত। সিনেমা তো অন্য় রকম পারফরম্যান্স থাকতেও পারে। অন্যদিকে নির্মাতাদের একটা অংশ নেগেটিভ পাবলিসিটিতেই খুশি! সব কিছু ঠিক থাকলে আগামী ভ্যালেন্টাইন ডে-তেই মুক্তি পাবে এই ছবি। তখনই বাকি প্রশ্নের উত্তর পাওয়া যাবে বলে মত সিনে মহলের। 

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

আমাদের এক্কেবারে নতুন POPxo Zodiac Collection মিস করবেন না যেন! এতে আছে নতুন সব নোটবুক, ফোন কভার এবং কফি মাগ, যেগুলো দারুণ ঝকঝকে তো বটেই, আর একেবারে আপনার কথা ভেবেই তৈরি করা হয়েছে। হুমম…আরও একটা এক্সাইটিং ব্যাপার হল, এখন আপনি পাবেন ২০% বাড়তি ছাড়ও। দেরি কীসের, এখনই POPxo.com/shopzodiac-এ যান আর আপনার এই বছরটা POPup করে ফেলুন!