home / Uncategorized
বাবা ও মায়ের মধ্যে সব সময় অশান্তি হলে শিশুর মনে তার কী প্রভাব পড়ে জানেন?

বাবা ও মায়ের মধ্যে সব সময় অশান্তি হলে শিশুর মনে তার কী প্রভাব পড়ে জানেন?

শিশুর জন্য তার বাড়িই সবথেকে নিরাপদ। সেখানেই সে আদর ও ভালবাসা পায়। শিশু বাড়ির সদস্য থেকেই ভালবাসা পায়। সে সুরক্ষিত বোধ করে। কিন্তু সে যদি সব সময় তার অভিভাবকদের অশান্তি (parents fighting) করতে দেখে, তাদের মধ্য়ে বিতর্ক দেখে, তবে তার উপরেও তার প্রভাব পড়ে। শিশুর মধ্য়েও একটি ভয় বা আতঙ্ক তৈরি করে। ওদের মধ্য়ে অসহায়বোধ করে কাজ করে। যা তাদের মধ্য়ে এমন প্রভাব তৈরি করে, যার জন্য সারা জীবনের জন্য তাদের মধ্য়ে পরিবর্তন তৈরি করে।

আরও পড়ুন – আপনার সন্তান এখন কৈশোরে? মত পার্থক্য হবেই, ওকে বুঝুন

অভিভাবকদের মধ্য়ে অশান্তি (parents fighting) হলে শিশুদের উপর কী প্রভাব পড়ে?

তারা ভয় পায়। কারণ, তারা জানে না কীভাবে পরিস্থিতির মোকাবিলা করবে। তারা কান্নাকাটি শুরু করে। তারা আরও ভয় পায় যখন, তাদের নিয়েই অশান্তি শুরু হয়।

শিশুদের মধ্য়ে তাদের অভিভাবকদের ব্যবহার নকল করার সম্ভাবনা থাকে। তাই তারা যখন অন্য শিশুদের সঙ্গে খেলে, সেই ব্যবহার সে সবার সামনে মিমিক্রি করে দেখাতে পারে।

অভিভাবকদের অশান্তির (parents fighting) জন্য শিশুরা নিজেদের দায়ি করে।

শিশুরা একটু বড় হলে অনেকক্ষেত্রে বাড়ি থেকেও পালিয়ে যায়। অনেকেই স্কুলে বেশিরভাগ সময়টা থাকতে চায়। বাড়ি ফিরতে চায় না।

শিশুর মানসিক স্বাস্থ্যের উপর প্রভাব

সামাজিক ব্যবহারে সমস্যা তৈরি হয়

শিশুরা যা দেখে বড় হয়, তাই শেখে। তাদের মধ্য়ে ঠিক ও ভুল বেছে নেওয়ার ক্ষমতা থাকে না। তাই বড় হয়েও তাদের কাছে সেই ব্যবহারই সাধারণ লাগতে পারে। যা তাদের জীবনেও প্রভাব ফেলতে পারে। পরবর্তী সময়ে যখন তারা সামাজিক ও ব্যক্তিগত সম্পর্ক তৈরি করবে, সেই সম্পর্কেও সেই বিষয়টি প্রভাব ফেলতে পারে। তারা অনেকেই মিথ্য়েবাদী হতে পারে। চুরি করার প্রবণতা থাকতে পারে। কোনও সম্পত্তি নষ্ট করার প্রবণতাও তাদের মধ্য়ে থাকতে পারে। অনেকসময় তারা বাজে ভাষাও ব্যবহার করে। অনেক সময় তারা চিৎকারও করে থাকে।

মানসিক স্বাস্থ্যে প্রভাব ফেলে (parents fighting)

গবেষণায় দেখা গেছে, যারা ছোট থেকে এরকম অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে বড় হয়, তাদের ডেফিসিট হাইপারঅ্যাক্টিভিটি ডিসঅর্ডার (এডিএইচডি), অ্যাংজাইটি, ডিপ্রেশন এবং অবসেসিভ-কম্পালসিভ ডিসঅর্ডার (ওসিডি)-এর শিকার হতে পারে।

সম্পর্কে সমস্যা

যেসব শিশুরা ছোট থেকেই বাবা ও মায়ের মধ্য়ে অশান্তি (parents fighting) দেখে, তারা তাই শেখে। যদি দিনের পর দিন তার বাবাকে মায়ের উপর চিৎকার করতে দেখে, তবে সেটাকেই সে সাধারণ ব্যবহার বলে ধরে নেবে। তাই শিখবে। পরবর্তী কালে নিজের ব্যক্তিগত সম্পর্কেও সেই প্রভাব পড়বে। থেরাপির মাধ্য়মে তার এই সমস্যা সমাধান করা সম্ভব হতে পারে। শুধুই প্রেমের সম্পর্ক নয়, বন্ধুদের সঙ্গেও তার সমস্য়া তৈরি হতে পারে। কর্মক্ষেত্রে এবং অচেনা মানুষের সঙ্গে কথা বলতেও সমস্যা হতে পারে তাদের।

তাই আপনার দাম্পত্য তিক্ত হলে শিশুর কথা মাথায় রেখে পদক্ষেপ করুন। আপনার তিক্ত সম্পর্কের প্রভাব যেন আপনার সন্তানের উপর না পড়ে।

POPxo এখন চারটে  ভাষায়! ইংরেজিহিন্দিমারাঠি আর বাংলাতেও!            

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!

26 Jul 2021

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text