home / রূপচর্চা ও বিউটি টিপস
কোন গড়নের মুখে কেমন হবে মেকআপ, জেনে নিন

কোন গড়নের মুখে কেমন হবে মেকআপ, জেনে নিন

মোটামুটি কোন পোশাকের সঙ্গে কীভাবে মেকআপ করতে হয় বা দিন আর রাতের মেকআপের মধ্যে তফাৎ ঠিক কতটা আমরা অনেকেই জানি। হাতের কাছে ইন্টারনেট আছে। ম্যাগাজিন আছে। আর আমরা তো আপনাদের সঙ্গে আছিই।

কিন্তু মেকআপ করার সময় যে মুখের আকারের (pro tips for perfect makeup according to face shapes) কথাটাও একটু মাথায় রাখতে হয়। ভেবে দেখুন না একবার। আপনার মুখ যদি নিটোল গোল হয় আপনি চাইবেন তাতে একটু লম্বাটে ভাব আসুক আবার আমার মুখ লম্বাটে হলে আমি ভাবব সেটা যেন বেশি লম্বা না দেখায়।

মেকআপ দিয়ে এগুলো অনেকটাই ম্যানেজ করা সম্ভব। তাই আজ আমরা দেখে নেব, মুখের গঠন অনুযায়ী কেমন হবে আমাদের মেকআপ।

হার্ট শেপ বা পান পাতার আকৃতির মুখ

এই ধরনের মুখে কপালের অংশ চওড়া হয় এবং থুতনির অংশ হয় সরু। তাই ব্রোঞ্জার বা গাঢ় ফাউন্ডেশান লাগান থুতনির নীচে আর কপালের দুই পাশে অর্থাৎ টেম্পল অঞ্চলে। নাকের একদম উপরে লাগান হাইলাইটিং পাউডার। চোখ নয় হাইলাইট করুন ঠোঁট (pro tips for perfect makeup according to face shapes)। এই জাতীয় মুখে স্মোকি আই মেকআপ করবেন না।

অবলং বা লম্বাটে আকৃতির মুখ

গাল ভিতরে টেনে নিয়ে গোলাপি শেডের হাল্কা ব্লাশার লাগান। আর গাঢ় শেড লাগান গালের অ্যাপল বা উঁচু অংশে। চোখের পাতা কার্ল করে নিন যাতে চোখ বড় লাগে। চোখ বড় দেখালে মুখ লম্বাটে হলেও খারাপ লাগবে না। ঠোঁটে হাল্কা গোলাপি বা নুড লিপস্টিক লাগান। 

রাউন্ড বা গোলাকৃতির মুখ

কনটুরিং করতে ব্যবহার করুন ব্রোঞ্জার। চোয়ালের নীচে আর মুখের টেম্পল অংশে এটি লাগান। কপাল আর থুতনি হাইলাইট করুন যাতে মুখ লম্বাটে দেখায়। চিকবোনে বা গালের হনু অংশে (যে জায়গা উঁচু হয়ে থাকে) সেখানে ব্লাশার লাগান আপওয়ার্ড স্ট্রোকে। বেশি উজ্জ্বল রঙের মেকআপ করবেন না (pro tips for perfect makeup according to face shapes) এতে মুখ আরও বেশি গোল দেখাবে। 

ওভাল বা ডিম্বাকৃতির মুখ

আপনাকে প্রথমেই যেটা করতে হবে সেটা হল ভুরু বেশি তির্যক করা যাবে না। আপনার ভুরুর যে স্বাভাবিক শেপ সেটা বজায় রাখুন। চোখ বা ঠোঁট যে কোনও একটির ক্ষেত্রে হেভি মেকআপ করুন।

ফাউন্ডেশান লাগানোর পর একটু ব্রোঞ্জার নিয়ে নাকের দুই পাশে উপর থেকে নীচে বুড়ো আঙুল দিয়ে লাগিয়ে দিন। এর ফলে আপনার নাক একটি শ্যাডো এফেক্ট তৈরি করবে আর মুখের শেপে সামঞ্জস্য আসবে।

আরও একটি মেকআপ ট্রিক বলে দিচ্ছি, যাতে মুখ বেশি লম্বা না লাগে। থুতনির দুই পাশে সামান্য ব্লাশার লাগিয়ে নিন। 

ডায়মন্ড বা ষড়ভূজাকৃতির মুখ

যেহেতু আপনার মুখের অনেকগুলো কৌণিক দিক আছে তাই মুখের কেন্দ্রে উজ্বল মেকআপ (pro tips for perfect makeup according to face shapes) করুন। যাতে সবার দৃষ্টি সেদিকে থাকে। এর জন্য আপনাকে ব্যবহার করতে হবে হাল্কা লিকুইড ফাউন্ডেশান বা হাইলাইটিং পাউডার।

দুই ভুরু এবং থুতনির মাঝ বরাবর ফাউন্ডেশান লাগান। ব্রোঞ্জিং পাউডার বা একটু গাঢ় রঙের ফাউন্ডেশান লাগান কপালের উপরের দিকে। একইভাবে থুতনির একদম নীচে আর চিকবোনের ভিতর দিকেও লাগান। এতে মুখের কৌণিক দিকগুলো বোঝা যাবে না। 

সব ছবি – ইনস্টাগ্রামের সৌজন্যে
POPxo এখন চারটে ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!      

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!

11 Aug 2021

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text