home / Diet
শেষপাতে মিষ্টি চাই’ই? সুগার ক্রেভিং হচ্ছে না তো?

শেষপাতে মিষ্টি চাই’ই? সুগার ক্রেভিং হচ্ছে না তো?

আজ একটা কনফেশন করতে চাই। রোজ দুবেলা খাওয়ার পর মিষ্টি না খেতে পারলে আমার কেমন যেন শরীর খারাপ লাগে। স্ট্রেস হয়। খিদে পায়। অথচ পুজোর আগে ওজন কমাবো বলে পণ করেছি আমি এদিকে! তবে এই যে মিষ্টি না হলে চলে না, এই ব্যাপারটাই আমার সব প্ল্যানে এক্কেবারে ফুটন্ত গরম জল ঢেলে দিচ্ছে। (reasons for sugar craving)

এই সমস্যাটা শুধুমাত্র আমার না। অনেকেই মিষ্টি খেতে ভালবাসেন আর প্রতিদিন তাঁদের মিষ্টি কিছু খাবার না খেলে চলে না। এই সমস্যাটি ডাক্তারি পরিভাষায় সুগার ক্রেভিং নামে পরিচিত। মিষ্টি পছন্দ করা আর মিষ্টি ছাড়া থাকতে না পারা – দুটো বিষয়ে তফাৎ রয়েছে। দ্বিতীয়টি যদি ঘটে, তবে বলা যায় সেই ব্যক্তিটি সুগার ক্রেভিং-এ আক্রান্ত। কিন্তু কেন হয় সুগার ক্রেভিং সে বিষয়ে জানেন কি? না জানলে জেনে নিন, তাহলে সমস্যার সমাধান করতেও সুবিধে হবে।

অতিরিক্ত স্ট্রেস

স্ট্রেস কমাতে অনেকেই চকলেট খেয়ে ফেলেন

আপনি শুনলে অবাক হবেন, তবে এটি অন্যতম প্রধান কারণ। অনেকেই মনে করেন যে যারা মিষ্টি খেতে ভালবাসে, তাঁদেরই সুগার ক্রেভিং হয়। তবে বিশেষজ্ঞদের মতে, সুগার ক্রেভিং তখন হয়, যখন আমরা অতিরিক্ত স্ট্রেসে থাকি। এমনকি একদল এমনও মনে করেন যে সুগার ক্রেভিং অবসাদগ্রস্থ হওয়ার একটি লক্ষন। স্ট্রেস হরমোন আমাদের মস্তিষ্কে সিগনাল পাঠায় এবং জিভের স্বাদকোরক সেই মুহূর্তে মিষ্টি কিছু চায়। ফলে মিষ্টি না খেলে অস্বস্তি হয়। (reasons for sugar craving)

অতিরিক্ত কার্বোহাইড্রেট

আমাদের খাবারে অর্থাৎ ভারতীয় খাবারে কার্বোহাইড্রেটের পরিমান অন্যান্য নিউট্রিশনের তুলনায় বেশি হয়। ফলে শরীরে শর্করার ঘাটতি হয়। সে’সময়েও মিষ্টি কিছু খেতে ইচ্ছে করে। খেয়াল করে দেখবেন, যে-কোনও অনুষ্ঠানে শেষ পাতে মিষ্টি দেওয়া হয়। সে রসগোল্লাই হোক বা মিষ্টি দই অথবা অন্য কোনও ডেজারট।

ক্লান্তি

আপনিও কি মিষ্টি দেখলে আর নিজেকে সামলাতে পারেন না?

আমরা অনেক সময়েই ডায়েট ফলো করি। সকাল থেকে উঠে হেলদি ব্রেকফাস্ট খাই, অফিসেও সারা দিন হেলদি খাবার খাই। কিন্তু যেই সন্ধে নামে, তখনই অন্যরকম কিছু খেতে ইচ্ছে করে। আসলে সারাদিন হেলদি খাবার খেয়ে একঘেয়েমি আসে এবং তখন মনে হয় একটু পেস্ট্রি বা চকলেট খেলে ভাল হয়। আপনি যদি এই ইচ্ছে দমন করতে পারেন, তাহলে ভাল। তবে অনেকেই মেপে খাওয়ার নিয়মে ক্লান্ত হয়ে পড়েন এবং জিভের কাছে মাথা হেরে যায়। (reasons for sugar craving)

ডায়েবেটিসের লক্ষনও হতে পারে

খেয়াল করে দেখবেন, বেশি মিষ্টি খেলে বেশি জল তেষ্টা পায়। আপনি হয়ত সন্ধেবেলা একটা পেস্ট্রি খেলেন তার পরেই ঢকঢক করে জল খেয়ে ফেলবেন। অথবা খাওয়ার পর শেষপাতে হয়ত মিষ্টি না হলে আপনার চলেই না, আর জেই না মিষ্টি খেলেন, বিশেষ করে সন্দেশ বা শুকনো মিষ্টি, ওমনি তেষ্টা পাবেই। অনেকেই ভাবেন যে মিষ্টি শুকনো হলে গলায় আটকে যেতে পারে বলে জল তেষ্টা পায়, কিন্তু আসল কারণ সেটি না। রক্তে শর্করার মাত্রা বেড়ে গেলে বার বার জল তেষ্টা পায়, কারণ রক্তসঞ্চালন ঠিকভাবে হয় না। আর এটি কিন্তু ডায়েবেটিসে আক্রান্ত হওয়ার পূর্বাভাস। কাজেই সাবধান!

POPxo এখন চারটে ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!      

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!

18 Sep 2021

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text