home / বিনোদন
দাদারা, ভাইরা…আপনি ‘টেকো’ হলেও কোনও অসুবিধে নেই, এখন ওটাই হট, বললেন শ্রাবন্তী

দাদারা, ভাইরা…আপনি ‘টেকো’ হলেও কোনও অসুবিধে নেই, এখন ওটাই হট, বললেন শ্রাবন্তী

টেকো (Teko)। আপনার কোনও প্রিয়জনকে হয়তো এই ভাবেই সম্বোধন করেন সকলে। পাড়ায় বা অফিস চত্বরে এই বিশেষণের আবার অন্য রকম মানে হয়। চুল উঠে টাক হয়ে যাওয়ায় হয়তো বিয়েও ভেঙে গিয়েছে তাঁর। লজ্জায়, অপমানে সেই মানুষটার কনফিডেন্স শেষ হয়ে যেতে হয়তো আপনি নিজেই দেখেছেন। সেই ঘোর বাস্তব এবার অভিমন্যু মুখোপাধ্যায়ের পরিচালনায় আসতে চলেছে বড়পর্দায়। মুখ্য ভূমিকায় অভিনয় করছেন ঋত্বিক চক্রবর্তী ও শ্রাবন্তী (Srabanti)। আগামীকাল মুক্তি পাবে এই ছবি। 

ঋত্বিকের সঙ্গে তাঁর সম্পর্ক ঘিরে এগোবে ছবির গল্প। কেমন ছিল এই ছবিতে কাজের অভিজ্ঞতা? শ্রাবন্তী বললেন, “আসলে সাবজেক্টটাই এত ইউনিক, খুব ভাল লেগেছে কাজ করে। আর ঋত্বিকদা এক কথায় অসাধারণ। এত তাড়াতাড়ি এক্সপ্রেশন চেঞ্জ করতে পারে, ভাবতে পারবেন না।”

চুল নিয়ে অবসেশন হয়তো অনেকেরই রয়েছে। আর সেটাই এই ছবিতে এসেছে ভিন্ন ভাবে। শ্রাবন্তীরও কি এই অবসেশন রয়েছে? নায়িকার জবাব, “হ্যাঁ, সে তো আছেই। চুল পড়ে গেলে খুব মন খারাপ হয়ে যায়। আর আমার প্রফেশনের কারণে মেনটেন তো করতেই হবে। ঘরোয়া যে সব টোটকা আছে চুল বা ত্বক ভাল রাখার সে সব এক সময় আমি করেছি।”

 

ADVERTISEMENT

‘টেকো’র শুটিংয়ে শ্রাবন্তী এবং ঋত্বিক। (Instagram)

https://bangla.popxo.com/article/arjun-rampal-and-mehr-jesia-get-divorced-in-bengali-862588

‘টেকো’র চিত্রনাট্যে রয়েছে অলকেশ এবং মীনার গল্প। সরকারি চাকুরে অলকেশ তাঁর চুল নিয়ে খুব গর্বিত। মীনারও নিজের চুল নিয়ে গর্বের সীমা নেই। দুই পরিবার থেকে বিয়ের সম্বন্ধ করা হয়। একে অপরকে পছন্দ করে ফেলেন চুল দেখেই। একদিন বিজ্ঞাপনের ফাঁদে পড়ে অলকেশ চুলে একটি বিশেষ তেল লাগান। পরের দিন থেকেই চুল পড়তে থাকে। সকলের হাসির পাত্র অলকেশের দিক থেকে মীনাও মুখ ঘুরিয়ে নেন। এহেন পরিস্থিতিতে একদিকে প্রতিশোধ, অন্যদিকে মীনার মন পাওয়ার লড়াই শুরু করেন অলকেশ।

এই ছবিতে সাধারণ মানুষের জীবনে বিজ্ঞাপনের ভূমিকাকে অন্য ভাবে প্রেজেন্ট করা হয়েছে। সত্যিই কি বিজ্ঞাপন দেখে জিনিস কেনা উচিত? শ্রাবন্তীর মতে,”আমি যে সব ব্র্যান্ড এনডোর্স করি, সেগুলোর কিন্তু খুব ভাল ফিডব্যাক। গয়না হোক বা অন্য কিছু, আমাকে পরেও অনেকে বলেছে। ফলে সেটার ব্যাপারে আমি জানি। আর সত্যিই যাঁরা আমাদের মত, মানে আমাদের দেখে অনেকে অনেক কিছু কিনে ফেলেন, তাঁদের কোন বিজ্ঞাপনে কাজ করবেন, আর কোনটাতে করবেন না, সে বিষয়ে সতর্ক থাকা উচিত। যাতে কোনও ভুল বার্তা না যায়।”

ADVERTISEMENT

 

https://bangla.popxo.com/article/aishwarya-rai-celebrates-dads-birth-anniversary-in-bengali-862572

যাঁর চুল নেই, তাঁকে হয়তো আমরা অনেকেই ‘টেকো’ বলে ডেকে ফেলি। কিন্তু সেই মানুষটার কেমন লাগবে, তা কি কখনও ভেবে দেখি আমরা? এই ছবির মাধ্যমে সে বিষয়েও মেসেজ দিতে চান শ্রাবন্তী। তাঁর কথায়, “শুধু টেকো নয়, যার যেটা মাইনাস পয়েন্ট সেটা হাইলাইট না করাই তো ভাল। হ্যাঁ, একেবারে ক্লোজ বন্ধুদের মধ্যে কখনও ঠাট্টা, ইয়ার্কি হল, সেটা আলাদা। কিন্তু জেনারালাইজ করা ঠিক নয়। আর এখনকার দিনে চুল না থাকাটা কোনও সমস্যা নয় কিন্তু। অনেকে তো নিজের ইচ্ছেতেই নেড়া হয়ে যান। সেটাই ফ্যাশন।”

সব শেষে নায়িকার অনুরাগীদের মধ্যে তো কেউ কেউ ‘টেকো’ থাকতেই পারেন। তাঁদের কিছু বলবেন? “দাদারা, ভাইরা যদি আপনি টেকো হন, কোনও অসুবিধে নেই। আপনার গার্লফ্রেন্ড বা বউ তো সেটা নিয়েই খুশি। এখন ওটাই হট।”

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

ADVERTISEMENT

এসে গেল #POPxoEverydayBeauty – POPxo-র স্কিন, বাথ, বডি এবং হেয়ার প্রোডাক্টস নিয়ে, যা ব্যবহার করা ১০০% সহজ, ব্যবহার করতে মজাও লাগবে আবার উপকারও পাবেন! এই নতুন লঞ্চ সেলিব্রেট করতে প্রি অর্ডারের উপর এখন পাবেন ২৫% ছাড়ও। সুতরাং দেরি না করে শিগগিরই ক্লিক করুন POPxo.com/beautyshop-এ এবার আপনার রোজকার বিউটি রুটিন POP আপ করুন এক ধাক্কায়..

21 Nov 2019

Read More

read more articles like this
good points

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text