home / ডি আই ওয়াই লাইফ হ্যাকস
ওয়ার্ক ফ্রম হোম করছেন দীর্ঘদিন, চোখের প্রতিও যত্নশীল হন

ওয়ার্ক ফ্রম হোম করছেন দীর্ঘদিন, চোখের প্রতিও যত্নশীল হন

প্য়ানডেমিক পরিস্থিতিতে বেশিরভাগ সময়েই বাড়িতে কেটেছে। দীর্ঘদিন ওয়ার্ক ফ্রম হোম করছেন অনেকে। গত বছরের শেষের দিকে কয়েকটি অফিস কর্মীদের আবার অফিসে ডাকলেও এই বছর সংক্রমণ বাড়তেই আবার তাঁরা বাড়ি থেকেই কাজ করছেন। ওয়ার্ক ফ্রম হোম করার সময় চোখের উপর যথেষ্ট চাপ পড়ে। এখন আপনি বলতে পারেন, অফিসে কাজ করার সময়েও তো চোখে চাপ পড়ে। সেই কথা ঠিক। কিন্তু অফিসে কাজ করার সময় আপনি ব্রেক নিতেন। সহকর্মীর সঙ্গে কথা বলতেন। চা খেতে যেতেন। কিন্তু এখানে সেসব কোনওটাই করতে পারছেন না। আপনি কাজের সময়টুকু টানা কম্পিউটারের দিকে তাকিয়ে আছেন। কাজের পর মোবাইল বা টিভি-তে ব্য়স্ত হয়ে পড়ছেন। আর নিজের অজান্তেই একটু একটু করে চোখের ক্ষতি করছেন। তাই ওয়ার্ক ফ্রম হোমে চোখের যত্ন নেওয়ার দায়িত্ব আপনার। কাজ তো করবেন অবশ্যই, সঙ্গে চোখের খেয়ালও রাখতে হবে তো! কীভাবে চোখের যত্ন নেবেন( care of eyes)

কীভাবে চোখের যত্ন ( care of eyes) নেবেন : চিকিৎসকের পরামর্শ কী

বিরতি

কম্পিউটারে দীর্ঘক্ষণ কাজ করেন। যদি মোবাইল স্ক্রিনের দিকে দীর্ঘক্ষণ তাকিয়ে থাকেন, তবে কাজের মধ্যে মধ্যে বিরতি নিন(take care of eyes) । প্রতি এক ঘণ্টায় একটা বিরতি নিতে পারেন। সামান্য হেঁটে এলেন। ঘরের মধ্যেও হাঁটাচলা করতে পারেন। এতে আপনার চোখও বিশ্রাম পাবে। খুব ভাল হয় যদি এই বিরতিতে গাছের দিকে বা জলের দিকে তাকাতে পারেন। আর নাহলে চোখ বন্ধ করে থাকতে পারেন। চোখের পাশাপাশি আপনার মস্তিষ্কও বিশ্রাম পাবে।

চোখের পাতা ফেলতে হবে

কম্পিউটারে কাজ করার সময় এই বিষয়টি আমরা বেশি ফেস করি। কম্পিউটারে কাজ করার সময় আমাদের চোখের পাতা কম পড়ে। সেটা লক্ষ্য রাখবেন। চোখের পাতা পড়লে চোখ ভাল থাকবে। চিকিৎসকদের মতে, চোখের পাতা পড়লে চোখের স্বাভাবিক আর্দ্রতা বজায় থাকে। জরুরি কিছু উপাদানের সাহায্যে চোখ নিজেই নিজের যত্ন নিতে পারে। কম চোখের পাতা পড়লে ড্রাই আইজ-এর মতো সমস্য়া হতে পারে। যে কারণে চোখ জ্বালা করা বা চোখ লাল হয়ে যেতে পারে। প্রয়োজনে ড্রপ ব্যবহার করুন এবং চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।

চোখের সঠিক যত্ন নিন

২০-২০-২০ নিয়ম

২০-২০-২০ নিয়ম মেনে চলুন। প্রতি ২০ মিনিট অন্তর ২০ মিটার দূরত্বের কোনও বস্তুর দিকে ২০ সেকেন্ড ধরে তাকিয়ে থাকুন ।

মোবাইল ও কম্পিউটার স্ক্রিন আই-লেভেলে রাখার চেষ্টা করবেন

খুব ভাল হয় যদি আপনি আপনার মোবাইল ও কম্পিউটার আপনার আই লেভেলে রাখতে পারেন। আইলেভেলে মানে চোখের সামনা সামনি একই উচ্চতায় (take care of eyes) কম্পিউটার স্ক্রিন থাকতে হবে। এতে চোখের উপর চাপ কম পড়ে। এই পদ্ধতিটিও বিজ্ঞানসম্মতভাবে প্রমাণিত।

স্ক্রিন ব্রাইটনেস খুব কম বা খুব বেশি নয় ( care of eyes)

আপনার কম্পিউটারের স্ক্রিন ব্রাইটনেস যত বেশি থাকবে, আপনার চোখে তত বেশি প্রভাব পড়বে। কম্পিউটার স্ক্রিনের উজ্জ্বলতা যেন ঠিক থাকে। তাতে চোখের উপর চাপ কম পড়বে। চোখ ভাল থাকবে।

চোখের ব্যায়াম ( care of eyes)

কাজ করার সময় চোখের ব্যায়াম করবেন। প্রতি এক ঘণ্টায় এই ব্যায়াম আপনি করতে পারেন। চোখের মণি চারদিকে ঘোরানোর মতো ব্যায়াম করুন। মণি ডান দিকে, বাঁ দিকে, উপর ও নিচে করুন। এরইসঙ্গে চোখের পাতার উপরে হাতের আঙুল দিয়ে সামান্য চাপ দিয়ে মাসাজ করে নিন। এতে চোখ রিল্যাক্স হবে। চোখ ভাল থাকবে।

POPxo এখন চারটে ভাষায়! ইংরেজিহিন্দিমারাঠি আর বাংলাতেও!      

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!

06 Jan 2022

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text