home / বিনোদন
তাণ্ডব বিতর্ক তুঙ্গে! সইফের বাড়ির সামনে পুলিশি নিরাপত্তা, কোন দিকে গড়াচ্ছে জল?

তাণ্ডব বিতর্ক তুঙ্গে! সইফের বাড়ির সামনে পুলিশি নিরাপত্তা, কোন দিকে গড়াচ্ছে জল?

জানুয়ারির ১৫ তারিখে অ্যামাজন প্রাইমে মুক্তি পায় ‘তাণ্ডব’। আলি আব্বস জাফরের পরিচালনায় ওয়েব সিরিজ তাণ্ডব মুক্তি পাওয়ার পরেই শুরু হয়েছে বিতর্ক। বয়কটের ডাক দিয়েছেন অনেকেই। তাঁদের অভিযোগ, এই সিরিজের একাধিক দৃশ্য না কি হিন্দু ধর্মের ভাবাবেগকে আঘাত করেছে। শুধুমাত্র টুইটারেই সীমাবদ্ধ থাকেনি এই বিক্ষোভ-বিতর্ক (tandav controversy)। বরং ভার্চুয়াল জগৎ পেরিয়ে তা সামনা সামনি। এমনকী দায়ের হয়েছে এফআইআরও। এইদিকে সইফ আলি খানের (saif ali khan )বাড়ির সামনে আজ বাড়ানো হয়েছে নিরাপত্তা। এইদিকে চারদিকে বয়কট তাণ্ডবের স্লোগান উঠেছে!

 

 

টুইটারেই শুধু বয়কটের ডাক তুলে থেমে থাকেননি অভিযোগকারী (tandav controversy)। এমনকী এই কথাও বলেছেন যে, সইফ আলি খানকে (saif ali khan )ক্ষমা চাইতে হবে। এমনকী জিসান আয়ুবকেও ক্ষমা চাইতে হবে বলে দাবি করেছেন তিনি। কিন্তু কে এই অভিযোগকারী? মহারাষ্ট্রের বিজেপি নেতা তথা বিধায়ক রাম কদম। তাণ্ডবের অভিনেতা, পরিচালক এবং প্রযোজকের বিরুদ্ধে রবিবার অভিযোগ দায়ের করেছেন রাম কদম। তাঁর অভিযোগ, এই সিরিজে হিন্দু দেবতা শিবকে অপমান করা হয়েছে। এই প্রথমবার নয়, বারবার হিন্দু ধর্ম নিয়েই এমন করা হয় বলেও অভিযোগ করেছেন তিনি।

 

রবিবার সকালে টুইট করেন রাম কদম। তিনি লেখেন, ঘাটকোপার থানায় তাণ্ডবের নির্মাতা, পরিচালক ও অভিনেতাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করতে যাচ্চি। এই সিরিজে হিন্দু ধর্মের ধর্মীয় ভাবাবেগকে আঘাত করা(tandav controversy) হয়েছে। হিন্দু দেবতাকে অপমান করা হয়েছে। কেন বারবার সিনেমা ও ওয়েব সিরিজে হিন্দু ধর্মকেই অপমান করা হচ্ছে সেই প্রশ্নও তোলেন তিনি।

ছবি সৌজন্য – অ্যামাজন প্রাইম

এরপরই তাণ্ডব সিরিজ থেকে ‘বিশেষ দৃশ্য’ সরানোর দাবি করেছেন রাম কদম। টুইটারে তিনি রীতমতো হুঁশিয়ার করে লেখেন, “যদি সিরিজ থেকে ওই দৃশ্য সরানো না হয় এবং অভিনেতা জিসান আয়ুব ও পরিচালক যতদিন না ক্ষমা চাইবেন ততদিন ওই সিরিজ বয়কট থাকবে।” অ্যামাজন প্রাইম বা নেটফ্লিক্স-এর মতো ওটিটি প্ল্যাটফর্মে যেসব ছবি বা ওয়েব সিরিজ (tandav controversy)দৃশ্যায়িত হয়, সেগুলির উপর রীতিমতো নজরদারি চালানোর জন্য কেন্দ্রীয় তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী প্রকাশ জাভড়েকরের কাছে সেন্সর বোর্ড গঠন করার আর্জি জানিয়েছেন তিনি।

 

তবে এখানেই থেমে যায়নি বিতর্কের ঝড়। উত্তর-পূর্ব মুম্বইয়ের বিজেপি সাংসদ মনোজ কোটাকও এই ওয়েব সিরিজের তীব্র প্রতিবাদ করে জাভড়েকরকে চিঠি লিখেছেন। তাঁর অভিযোগ, এই সিরিজের নির্মাতারা হিন্দু ধর্মের ভাবাবেগকে আঘাত করার জন্য না কি ইচ্ছে করেই হিন্দু দেবতাকে অপমান করেছে। এই সব ওটিটি প্ল্যাটফর্মে কোনও যৌনতা, খারাপ মন্তব্য, গালিগালাজ ও ভায়োলেন্ট দৃশ্যকে সেন্সর করা হয় না। তাই এই ধরনের ওটিটি প্ল্যাটফর্মে কী দেখানো হবে আর কী দেখানো হবে না তা নিয়ন্ত্রণ করার জন্য আর্জি জানিয়েছেন জাভড়েকরের কাছে। সূত্রের খবর, এই অভিযোগের ভিত্তিতেই এবার অ্যামাজন প্রাইমের কাছে উত্তর চেয়ে চিঠি পাঠিয়েছে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রক।

 

এই পরিস্থিতিতে সইফের নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। এই আতঙ্কের পরিস্থিতিতেই সইফের বাড়ির সামনেই বসানো হয়েছে পুলিশ পিকেটিং। চারদিকে বয়কটের ডাক ওঠার মধ্যেই নতুন বাড়িতে শিফট করছেন সইফ-পরিবার। শনিবার বিভিন্ন ভিডিয়োয় দেখা গিয়েছে, পুলিশি নিরাপত্তার সাহায্যে বাড়ি শিফটিংয়ের কাজ চলছে। সইফের (saif ali khan )পুরনো বাড়ির কাছাকাছিই নতুন বাড়ি।

তবে এটাই প্রথমবার নয়। এর আগেও আ স্যুটবল বয় ওয়েব সিরিজের মন্দিরে চুম্বন দৃশ্য নিয়ে সরব হয়েছিলেন হিন্দুত্ববাদীরা। সেইবারও অভিযোগ ছিল, ওয়েব সিরিজের এই বিশেষ দৃশ্যে হিন্দু ভাবাবেগকে আঘাত করা হয়েছে। সেবারও বয়কট নেটফ্লিকসের ডাক উঠেছিল। সেরকম এবারও বয়কট তাণ্ডবের হ্যাশট্যাগ নামল টুইটারে। কিন্তু সেই বয়কট তাণ্ডবেই থেমে থাকল না টুইট যুদ্ধ। বরং এবার ‘বয়কট বলিউড’-র ট্রেন্ড দেখা গেল নেট দুনিয়ায়। এক এক করে ছবির প্রস‌ঙ্গ তুলে বলা হচ্ছে, বলিউডের এখন একটাই উদ্দে‌শ্য, কী ভাবে হিন্দু ধর্মকে আঘাত করা যায়! আমির খানের ‘পিকে’ ছবির একটি স্টিল ছবি দেখা যাচ্ছে। রয়েছে অনুরাগ বসুর ‘লুডো’ ছবির পোস্টার। আর প্রতিটি পোস্টের উপরে লেখা হচ্ছে, ‘#বয়কটবলিউড’।

 

তাহলে সত্যিই কি ক্ষমা চাইবেন সইফ? কিংবা সরিয়ে নেওয়া হবে সেই ‘বিশেষ’ দৃশ্য (tandav controversy)? সেই বিষয় এখনও স্পষ্ট নয়, কিন্তু প্রতিটা সিরিজ ও ছবিকে ঘিরে যেভাবে বাকবিতণ্ডা শুরু হয়েছে, তার জল কতদূর গড়াতে পারে তা রীতিমতো আন্দাজ করা যাচ্ছে। তাহলে তাণ্ডব বিতর্ক কতদূর পর্যন্ত যাবে, এখন সেই অপেক্ষা!

মূল ছবি – অ্যামাজন প্রাইম

POPxo এখন চারটে  ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!        

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!

18 Jan 2021

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text