রিলেশনশিপ

প্রেমিকের এই সব অভ্যেস থাকলে কিন্তু দুঃখ পাবেন, আগে থেকেই সাবধান হওয়া ভাল

Swaralipi BhattacharyyaSwaralipi Bhattacharyya  |  Apr 24, 2020
প্রেমিকের এই সব অভ্যেস থাকলে কিন্তু দুঃখ পাবেন, আগে থেকেই সাবধান হওয়া ভাল

কিছুদিন আগেই বাংলা ছবি ‘সোয়েেটার’এর একটা গান ‘প্রেমে পড়া বারণ’ খুব জনপ্রিয় হয়েছিল। প্রেমে পড়তে হয়তো সকলেই চান। কেউ খুব তাড়াতাড়ি প্রেমে পড়েন। কারও আবার সময় লাগে। কিন্তু প্রেম ভেঙে গেল সেই মনখারাপ সামলানো মুশকিল হয়ে ওঠে সকলেরই। তাই প্রেমে পড়ার আগেই যদি যাচাই করে নেওয়া যায়, তাহলে হয়তো দুঃখ (heart break) পেতে হয় না। 

সেটাও কি সম্ভব? প্রাথমিক ভাবে ভাবলে হয়তো সম্ভব নয়। ভাললেগে চট করে একটা মানুষকে ভালবেসে ফেলা যায়। প্রেমের ক্ষেত্রে আবার অঙ্ক চলে নাকি? প্ল্যান করে কি প্রেম করা যায়? না, তা হয়তো সম্ভব নয়। কিন্তু বন্ধুত্বের সময় সামনের মানুষটার কয়েকটা বৈশিষ্ট্য যদি আলাদা করে লক্ষ্য করেন, তাহলে হয়তো পরে আপনারই কষ্ট কম হবে। 

১) আপনার প্রেমিকের আগের কোনও সম্পর্ক থাকতেই পারে। সেটা সমস্যার নয়। কিন্তু যখন আগের সম্পর্কের মানুষটির সঙ্গে আপনার তুলনা করতে শুরু করবেন প্রেমিক, তখনই আসল সমস্যা। আসলে এই ধরনের মানুষরা অতীত থেকে কখনও বেরতে পারেন না। প্রতিটি মানুষ আলাদা। নিজের মতো করে বিশেষ। ফলে আপনাকে মর্যাদা না দিয়ে যদি পুরনো প্রেমিকার মতো আপনাকে হতে বলেন তিনি, তাহলে সেই মানুষটির সঙ্গে সম্পর্ক না রাখাই ভাল।

 

২) স্বপ্ন দেখা ভাল। কিন্তু সেই স্বপ্ন সত্যি করার চেষ্টাও তো সকলেরই করা উচিৎ। যদি আপনার বন্ধু শুধু স্বপ্নই দেখতে ভালবাসেন, তা সত্যি করার জন্য কোনও পরিশ্রমে নারাজ হন, তাহলে তেমন বন্ধুর সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক তৈরি না করাই শ্রেয়। কারণ প্রাথমিক ভাললাগা, ভালবাসার মুহূর্তগুলো কেটে গেলেই তাঁর স্বপ্ন সার্থক না হওয়ার জন্য নিজের চেষ্টার খামতি নয়, বরং কখনও তিনি আপনাকেই দায়ি করতে পারেন। তখন সেটা মেনে নিতে কষ্ট হবে।

৩) সেলফ অবসেশন কোনও কোনও ক্ষেত্রে ভাল। কিন্তু সেলফ অবসেসড মানুষরা শুধু নিজেকে নিয়ে ভাবেন। নিজের ভাললাগার স্পেস খোঁজেন। নিজের অসুবিধে নিয়ে অভিযোগ করেন। আপনারও যে কিছু খারাপ লাগতে পারে বা আপনারও কিছু অসুবিধে হতে পারে, সে সব নিয়ে কিন্তু সেলফ অবসেশনে থাকা মানুষরা চিন্তা করবেন না। আর এমন মানুষ আপনার প্রেমিক হলে কিন্তু দুঃখ বাড়বে।

৪) প্রতিটি মানুষেরই নিজের ভুল স্বীকার করা উচিৎ। হ্যাঁ, এটা ঠিক যে, কখনও সেটা সম্ভব হয় না। ভুল করে ফেলি আমরা। জোর গলায় সেই ভুলের সপক্ষে যুক্তি দিয়ে যাই। কিন্তু সেটাই যদি কারও অভ্যেস হয় তাহলে মুশকিল। আপনার প্রেমিকের যদি ভুল স্বীকারের অভ্যেস না থাকে, তাহলে যে কোনও বিষয়ে তিনি আপনার উপর দোষ চাপিয়ে দেূেন। নিজের ভুল স্বীকার করবেন না। তখন মেনে নিতে পারবেন তো? তার থেকে প্রেম করার আগে আরও একবার ভেবে নেওয়াই ভাল।

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!