home / লাইফস্টাইল
শিশুকে প্রকাশ্যে স্তন্যপান করাতে লজ্জা নয়, এটি আপনার অধিকার

শিশুকে প্রকাশ্যে স্তন্যপান করাতে লজ্জা নয়, এটি আপনার অধিকার

সদ্যই যাঁরা মা হয়েছেন, কিংবা যাঁরা মা হবেন তাঁদের জন্য় আজ কয়েকটা কথা লিখব। যাঁরা সদ্যই মা হয়েছেন, তাঁদের সন্তানকে স্তন্যপান করাতে হয়। অনেক সময় রাস্তায় বা কোনও জায়গায় ঘুরতে গেলে বা পাবলিক ট্রান্সপোর্টেও আপনাকে আপনার সন্তানকে স্তন্যপান করাতে হতে পারে। এই সময়গুলোতে অনেকেই খুব অসুবিধার সম্মুখীন হন (normalize breastfeeding) । 

কয়েকবছর আগে দক্ষিণ কলকাতার এক নামী শপিং মলে এরকমই এক ঘটনার সম্মুখীন হয়েছিলেন একজন মহিলা। তিনি তাঁর সন্তানকে স্তন্যপান করাচ্ছিলেন বলে শপিং মল কর্তৃপক্ষের তরফে বলা হয়েছিল, তিনি প্রকাশ্যে সন্তানকে স্তন্যপান করাতে পারেন না (normalize breastfeeding)। ওয়াশরুমে গিয়ে তিনি এই কাজ করতে পারেন। এই মন্তব্য প্রকাশ্যে আসার পরেই এই ঘটনার প্রচুর সমালোচনা হয়। কিন্তু ভেবে দেখুন তো, এইরকম ঘটনার সম্মুখীন কি শুধু সেই মহিলাই হয়েছেন? আপনারা কখনও হননি?

পাবলিক স্পেসে স্তন্যপান করানোর সময় ইতস্তত করেন?

একজন শিশুর মাতৃদুগ্ধের প্রয়োজন। তার বেড়ে ওঠা, তার শরীরের পুষ্টির জন্য মাতৃদুগ্ধের প্রয়োজন। আমরা যেরকম খাবার খাই, ঠিক সেরকমই। আপনার শিশুকে স্তন্যপান করানো আপনার অধিকারের মধ্যে পড়ে। আপনি তার জন্য কেন ইতস্তত বোধ করবেন? বরং যাঁরা স্তন্যপান করাতে দেখে মন্তব্য করেন, তাঁদের ভেবে দেখা প্রয়োজন। মা হিসেবে আপনি শিশুকে স্তন্যপান (normalize breastfeeding)করাবেন, সেটাই স্বাভাবিক।

 

স্তন্যপান করানো আপনার অধিকার

স্তন্যপান করানো আপনার অধিকার, লজ্জার নয়

আপনি শিশুকে জন্ম দিয়েছেন, তার যাবতীয় খেয়াল রাখা, তাকে সময়ে খাবার পৌঁছে দেওয়া আপনার দায়িত্বের মধ্যে পড়ে। এটা যেমন আপনার কর্তব্য, একইসঙ্গে আপনার অধিকার। একজন মায়ের অধিকার। আপনি শিশুকে খাওয়ানোর সময় কখনওই লজ্জা পাবেন না।

কেউ প্রশ্ন করলে তাঁকে পালটা প্রশ্ন করুন

আপনি প্রকাশ্যে স্তন্যপান করাচ্ছেন দেখে যদি কেউ আপনাকে প্রশ্ন করেন, আপনি তাঁকে পালটা প্রশ্ন করুন। কেন তিনি আপনাকে এই প্রশ্ন করলেন? তাঁর কি প্রশ্ন করার অধিকার ছিল?

 

প্রকাশ্যে স্তন্যপান করানোতে আর ইতস্তত বোধ নয়

২০১৭ সালে অস্ট্রেলিয়ান পার্লামেন্টে একজন সেনেটর তাঁর শিশুকে স্তন্যপান করিয়েছিলেন। সেই সময় তিনি পার্লামেন্টের অধিবেশনেও তাঁর দায়িত্ব পালন করেছিলেন। একইসঙ্গে মা হিসেবে কর্তব্য পালন করেছিলেন। তিনি কোনও ভূমিকা থেকেই পিছিয়ে আসেননি। বিবিসির রিপোর্ট অনুযায়ী, তিনিই প্রথম যিনি পার্লামেন্টে স্তন্যপান (normalize breastfeeding)করিয়েছিলেন। তাঁর নাম লারিসা ওয়াটারস। তবে তিনি যদি এত বড় এক পদক্ষেপ করতে পারেন, তবে আপনি নয় কেন?

নিজের উপর ভরসা রাখুন। মানুষ কী বলল, সেই বিষয়ে গুরুত্ব দেবেন না। প্রথমে আপনার সন্তানের স্বাস্থ্যের কথা ভাবুন। তারপর আপনার অধিকারকে গুরুত্ব দিন। সমালোচনা, মন্তব্য থাকবেই। কিন্তু আপনাকে এগিয়ে যেতে হবে। মনে রাখবেন, আপনি একজন মা, আপনি একজন নারী, সর্বোপরি একজন মানুষ। আপনার অধিকার বুঝে নিন, আপনার প্রতিটা কাজ সফলভাবে করুন।

POPxo এখন চারটে  ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!        

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!

19 Jan 2021

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text