home / রাশিফল সম্পর্কিত আর্টিকেল
জেনে নিন, রাশি অনুজায়ী কী কারণে আপনাদের সম্পর্কে মাঝেমধ্যেই খিটপিট লেগে যাচ্ছে

জেনে নিন, রাশি অনুজায়ী কী কারণে আপনাদের সম্পর্কে মাঝেমধ্যেই খিটপিট লেগে যাচ্ছে

আপনি তাঁকে পাগলের মতো ভালবাসেন, তাঁকে খুশি করার জন্য আপনার পক্ষে যা যা সম্ভব সব করেন (why your partner gets annoyed with you as per zodiac signs); কিন্তু তার পরেও কিছু না কিছু ছোটখাটো বিষয় নিয়ে আপনাদের মধ্যে ঝগড়া-অশান্তি লেগেই থাকে! আপনাকে শুনতে হয়, “যাও তো, বিরক্ত করোনা”। সত্যিই তো, যার জন্য প্রাণপাত করা, তিনি যদি এমন রূঢ় কথা বলেন, তাহলে খারাপ লাগে বৈকি।

কিন্তু এখানে একটা ‘অদেখা’ ব্যাপার রয়েছে, এক এক সময়ে কিন্তু সত্যিই আপনার বর বা প্রেমিককে আপনি আপনার এই অতিরিক্ত যত্নশীল স্বভাবের জন্য বিরক্তই করেন। বুঝতে পারছেন না? আসলে প্রতিটি মানুষেরই স্বভাব কেমন হবে, তার কিছুটা হলেও তাঁর রাশির উপরে নির্ভর করে। আপনিও বরং এইবেলা দেখে নিন যে আপনার রাশি অনুযায়ী, কোন কোন বিষয় আপনার কাছে স্বাভাবিক হলেও আপনার বর বা প্রেমিকের মনে বিরক্তির উদ্রেক করে।

মেষ রাশি: অন্য কোনও মহিলা যদি আপনার প্রেমিক বা বরের সঙ্গে সামান্য কথা বলেন, আপনি রেগে আগুন হয়ে যান। আপনি আপনার প্রেমিকের বিষয়ে বড্ড বেশি পসেসিভ। ভালবাসার মানুষটিকে অন্য কারও সঙ্গে ভাগ করে নেওয়ার প্রশ্নই নেই, কিন্তু তার মানে এই নয় যে তিনি অন্য কারও সঙ্গে সামান্য সৌজন্য বিনিময়ও করতে পারবেন না!

বৃষ রাশি: আচ্ছা, যে মানুষটির সঙ্গে আপনি বর্তমানে সম্পর্কে রয়েছেন তাঁকে যদি সারাক্ষণ নিজের প্রাক্তনের কথা বলতে থাকেন, ভেবে দেখুন তো, তাঁর কেমন লাগে! অতীতকে পিছনে ফেলে বর্তমানকে নিয়ে বাঁচুন। আপনাদের মধ্যে ঝগড়ার কারণ কিন্তু আপনার অতীতকে বয়ে বেড়ানোর স্বভাব।

মিথুন রাশি: আপনি একজন সৎ এবং সোজাসাপ্টা মানুষ। সত্যি কথাটা সোজাভাবেই বলতে ও শুনতে পছন্দ করেন। কিন্তু তার মানে তো এই নয় যে আপনার প্রেমিক (why your partner gets annoyed with you as per zodiac signs) বা বরও এই বিষয়টি পছন্দ করেন। নিজের মনের কথা বলার অনেক ধরন আছে, না হয় একটু মিষ্টি করে সত্যি কথাটা বলুন আপনার প্রেমিককে যাতে তিনিও বিরক্ত ও বিব্রতবোধ না করেন।

কর্কট রাশি: প্রথমত, আপনি যার সঙ্গে সম্পর্কে রয়েছেন তিনি আপনার প্রেমিক, ভালবাসার মানুষ; এবং তিনি একজন প্রাপ্তবয়স্ক মানুষ। প্লিজ তার সঙ্গে প্রেমিকাসুলভ আচরণ করুন। তিনি কখন কতটা খাবার খাবেন, জল খেয়েছেন কিনা, দাঁত মেজেছেন কিনা – এসব বিষয়ে বেশি মাথা ঘামাবেন না। আপনি তার প্রতি যত্নশীল, একথা ঠিক; কিন্তু এক এক সময়ে অতিরিক্ত যত্নও কিন্তু সম্পর্ক নষ্ট করে দেয়।

সিংহ রাশি: আপনি আবার সব বিষয়ে আপনার প্রেমিকের উপরে এতটাই নির্ভরশীল যে আপনার প্রেমিক মাঝেমাঝেই বিরক্তবোধ করেন। সম্পর্ক তৈরি হওয়ার আগে তো আপনি বেশ নিজের সিদ্ধান্ত নিজেই নিতেন এবং আপনার এই স্বভাবটিই আপনার প্রেমিককে আপনার প্রতি আকৃষ্ট করেছিল। তাহলে সম্পর্কে আসার পর আপনি এমন বদলে গেলেন কেন?

কন্যা রাশি: আপনি যদিও খুব ভেবেচিন্তে সব বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেন, কিন্তু এক এক সময়ে আপনি খুব অবুঝের মতো আচরণ করেন। গুরুত্বপূর্ণ কিছু বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে হলে কখনও কখনও অন্তত আপনার বর বা প্রেমিকের মতামতও নিন। আপনার ‘আমি সব জানি’ স্বভাব কিন্তু আপনার প্রেমিকের মনে বেশ বিরক্তি জাগায়।

তুলা রাশি: আপনি কিছুতেই কোনও সিদ্ধান্তে আসতে পারেন না। কী খাবেন, কী পরবেন, কোথায় যাবেন – এই ছোট ছোট বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতেই ঘন্টার পর ঘন্টা অনায়াসে কাটিয়ে দিতে পারেন। আপনার এই স্বভাবের জন্য আপনার বর বা প্রেমিক আপনার উপরে বিরক্ত হন। একটু ভেবে দেখুন, ব্যাপারটা আপাতদৃষ্টিতে ছোট্ট মনে হলেও, এর প্রভাব কিন্তু সম্পর্কের উপরেও পড়ে।

বৃশ্চিক রাশি: আপনি বড্ড বেশি স্ট্রিক্ট প্রেমিকা বা বউ। আপনার প্রেমিক বা বর তাঁর বন্ধুদের সঙ্গে কোথাও ঘুরতে যেতে পারবেন না, ফুটবল ম্যাচ দেখতে যেতে পারবেন না, বাধাধরা সময়ের মধ্যেই বাড়ি ফিরতে হবে – আর এগুলো না হলে আপনি তাঁকে মিষ্টি করে দু’কথা শোনাতেও ছাড়েন না। আপনি হয়ত ভাবছেন যে আপনি তো চেচামেচি বা ঝগড়া করেন না, কিন্তু তার পরেও কেন আপনার প্রেমিক বা বর আপনার উপরে বিরক্ত হন।  আপনাদের সম্পর্কে আগের মতো স্পার্ক নেই – এই কথাটা যদি আপনার মনে হয় তাহলে নিজেকে একটু পাল্টান।

ধনু রাশি: আপনি চট করে বোর হয়ে যান। এই মুহূর্তে একটা কাজ করতে ভাল লাগছে, কিন্তু দশ মিনিট পরেই আর তা ভাল লাগে না। এত চঞ্চলমতি হলে হবে? (why your partner gets annoyed with you as per zodiac signs) আর বোর হলেই তখন আপনি আপনার প্রেমিক বা বরের কানের কাছে গিয়ে ঘ্যানঘ্যান করতে থাকেন। প্লিজ একটু তাঁর অবস্থাটাও বুঝুন। তিনিও তো সারাদিন খেটেখুটে বাড়ি ফেরেন একটু শান্তির খোঁজে।

মকর রাশি: আপনার প্রেমিক যদি একবারে ফোন না ধরেন তাহলে আপনি সবচেয়ে খারাপটা ভেবে নেন এবং পরে তা নিয়ে প্রেমিকের সঙ্গে ঝগড়া করেন। আচ্ছা, বলুন তো, আপনার প্রেমিক কি কোনও কাজে ব্যস্ত থাকতে পারেন না? মনের মধ্যে থেকে নেগেটিভ চিন্তাভাবনা সরান। আপনার এই নেগেটিভ চিন্তা করার স্বভাবই কিন্তু আপনার প্রেমিকের কাছে বিরক্তির কারণ।

কুম্ভ রাশি: আচ্ছা, আপনি আপনার বর বা প্রেমিকের কোনও কথাই সহজভাবে নিতে পারেন না কেন বলুন তো? উনি ডান বললে আপনি বাঁ বলবেন, উনি দিন বললে আপনি রাত বলবেন। এভাবে কি কোনও সম্পর্ক সুস্থভাবে চলতে পারে? পারলে একবার ভেবে দেখবেন।

মীন রাশি: প্রতিটি ছোটখাটো বিষয়ে যদি আপনি এত বেশি আবেগপ্রবণ হয়ে কান্নাকাটি জুড়ে দেন, তাহলে কীভাবে চলবে? আপনার বরের বা প্রেমিকের সব কথাতেই আপনি দুঃখ পান। কেন বলুন তো?

POPxo এখন চারটে ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!        

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!

10 Jul 2022

Read More

read more articles like this
good points logo

good points text