গর্ভবতী মহিলাদের করোনা ভাইরাস প্রতিরোধ করতে কী কী করা উচিত in bengali | POPxo

করোনার প্রকোপ থেকে সুরক্ষিত থাকতে গর্ভবতীদের এই নিয়মগুলি অবশ্যই মানা উচিত

করোনার প্রকোপ থেকে সুরক্ষিত থাকতে গর্ভবতীদের এই নিয়মগুলি অবশ্যই মানা উচিত

করোনা ভাইরাস (coronavirus) যে গোটা বিশ্বে থাবা বসিয়েছে সে ব্যাপারে আমরা সকলেই অবগত। প্রতিদিন সোশ্যাল মিডিয়া থেকে শুরু করে টেলিভিশন, খবরের কাগজ সব জায়গাতেই সতর্কবার্তা আসছে কীভাবে করোনা ভাইরাসের প্রকোপ থেকে নিজেকে ও আশপাশের মানুষদের সুরক্ষিত রাখবেন। সরকার থেকে তো বটেই, বার্তা দিচ্ছেন সেলেবরাও। যাঁদের ইমিউনিটি অর্থাৎ রোগপ্রতিরোধ ক্ষমতা বেশ কম তাঁদেরকে বেশি সতর্কতা (prevention) অবলম্বন করতেও বলা হচ্ছে। শিশু, বয়স্ক মানুষ এবং গর্ভবতী মহিলাদের বেশি সতর্কতা অবলম্বন করা জরুরি। বিশেষ করে যারা এই মুহূর্তে মা হতে চলেছেন, কারণ তাঁরা একটি নয় বরং দুটি প্রাণের ভার বহন করছেন। আজ আমরা কয়েকটি সহজ অথচ জরুরি বিষয় নিয়ে আলোচনা করব যাতে গর্ভবতী (pregnant) মহিলারা করোনা ভাইরাসের প্রকোপ থেকে নিজেদের এবং নিজেদের সন্তানকে (baby) রক্ষা করতে পারেন। কিন্তু তার আগে জেনে নেওয়া জরুরি যে গর্ভবতী মহিলাদের কেন এই মুহূর্তে বেশি সুরক্ষার প্রয়োজন।

গর্ভবতী মহিলাদের করোনা ভাইরাসের প্রকোপে পড়ার ঝুঁকি বেশি কেন

pregnant women should take more prevention to avoid coronavirus
গর্ভবতী মহিলাদের কেন এই মুহূর্তে বেশি সুরক্ষার প্রয়োজন (ছবি - শাটারস্টক)

মা হওয়া যেকোনও মহিলার কাছে একটি খুবই সুখকর অনুভূতি। তবে এসময়ে মহিলাদের শরীরে নানা পরিবর্তন হয় যার ফলে অনেক গর্ভবতী মহিলাই শারীরিকভাবে দুর্বল হয়ে পড়েন। এই জন্যই বাড়ির বড়রা এবং চিকিৎসকেরা প্রতিটি গর্ভবতী মহিলাকেই এই সময়ে বিশেষ যত্নে থাকার পরামর্শ দিয়ে থাকেন। যত্নে থাকার পাশাপাশি এসময়ে মহিলাদের খাওয়াদাওয়ার উপরেও বিশেষ নজর দিতে বলা হয়। অতিরিক্ত তেলমশলাযুক্ত খাবার, চাইনিজ খাবার, ফাস্ট ফুড ও জাঙ্ক ফুড, বাইরের খাবার, প্রসেসড ফুড বা কাঁচা খাবার খাওয়া উচিত নয় এসময়। এছাড়াও নিজেদের জীবনযাত্রায়ও বেশ কিছু পরিবর্তন আনা জরুরি। গর্ভবতী মহিলাদের মদ্যপান ও ধূমপানও ত্যাগ করার পরামর্শ দেওয়া হয়। করোনা ভাইরাস যেহেতু একটি সংক্রামক রোগ, কাজেই এখন যারা গর্ভবতী, তাঁদের উচিত খুব বেশি সাবধানে থাকা এবং নানা সতর্কতা অবলম্বন করা। এসময়ে যেহেতু প্রতিটি মহিলারই রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বেশ কিছুটা হলেও কমে যায়, কাজেই করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কাও অনেকটাই বেড়ে যেতে পারে। আর ঠিক এই কারণেই এখন গর্ভবতী মহিলাদের উচিত বিশেষ সতর্কতা অবলম্বন করা।

করোনা ভাইরাসের হাত থেকে সুরক্ষিত থাকার জন্য গর্ভবতী মহিলাদের কী কী সতর্কতা অবলম্বন করা উচিত

  • আপনি যদি কর্মরতা হন, তাহলে অবশ্যই এই মুহূর্তে বাড়ি থেকে কাজ করুন। এই মুহূর্তে শুধু দেশের নয়, সারা বিশ্বের অবস্থাই খুব খারাপ, কাজেই সম্ভব হলে গর্ভবতী মহিলাদের এমন কোথাও যাওয়া উচিত নয় যেখানে অনেক মানুষের ভিড়। যদিও দেশের নানা জায়গায় ১৪৪ ধারা এবং লকডাউন জারি করা হয়েছে, তবুও বেশ কিছু উৎসাহী মানুষ করোনা ভাইরাসের তোয়াক্কা না করেই বাইরে বেরচ্ছেন। কিন্তু গর্ভবতী মহিলাদের এসময়ে একেবারেই বাড়ির বাইরে যাওয়া চলবে না।
  • যদি এমন কোনও আপৎকালীন পরিস্থিতি উদয় হয় যখন আপনাকে বাইরে বেরোতেই হবে, তাহলে মাস্ক না পরে বাইরে বেরবেন না। যদিও আমাদের প্রত্যেকেরই উচিত করোনা ভাইরাসের জন্য বিশেষভাবে তৈরি N-95 সারজিকাল মাস্ক পরে বাইরে যাওয়া, কিন্তু গর্ভবতী মহিলাদের এই মাস্কের বিশেষ প্রয়োজন। তবে চেষ্টা করুন বাইরে বেরনো যতটা এড়িয়ে চলা যায়!
  • সব সময়ে স্যানিটাইজার সঙ্গে রাখুন। আপনি যদি বাড়িতেও থাকেন, সেক্ষেত্রেও কিছুক্ষণ পর পর সাবান দিয়ে হাত ধুয়ে নিন। কিছু খাবার আগে হাতে স্যানিটাইজার লাগিয়ে জীবাণুমুক্ত করে তবেই খান। দরজার হাতল, লিফটের বোতাম, বাজারের থলি, বাথরুমের ফ্লাস ইত্যাদি ধরার পরেও হাত স্যানিটাইজ করতে ভুলবেন না। মনে রাখবেন আপনি একজন গর্ভবতী মহিলা এবং আপনার শিশুর সুরক্ষার দায়িত্বও কিন্তু আপনার!

POPxo এখন চারটে ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!

২০২০ শুরু করুন আমাদের দারুণ দারুণ প্ল্যানার আর স্টেটমেন্ট সোয়েটশার্ট দিয়ে। এগুলো সবকটাই আপনারই মতো একশ শতাংশ মজার এবং অসাধারণ! ওহ হ্যাঁ, শুধুমাত্র আপনার জন্য রয়েছে ২০ শতাংশ ছাড়ের ব্যবস্থাও। দেরি কিসের আর, এখনই POPxo.com/shop থেকে কেনাকাটা সেরে ফেলুন আর নিজেকে আরেকটু পপ আপ করে ফেলুন!