বাস্তবে দীপিকা পাড়ুকোনের 'ড্রাগ অ্যাডিক্ট' হওয়ার কারণ নাকি রণবীর সিং!

বাস্তবে দীপিকা পাড়ুকোনের 'ড্রাগ অ্যাডিক্ট' হওয়ার কারণ নাকি রণবীর সিং!

মাদকাসক্ত। অর্থাৎ ড্রাগ (drug) অ্যাডিক্ট। অথবা আরও কোনও ভয়ঙ্কর নেশায় আচ্ছন্ন। কে বা কারা? 

আসলে সিনে দুনিয়ার তারকাদের সম্পর্কে এ হেন গসিপ প্রায়ই শোনা যায়। বিশেষত বলিউডে এ হেন জল্পনা নতুন নয়। অনেক সময় এমন কিছু ছবি ফাঁস হয়, যা দেখে হয়তো সন্দেহ হয় আপনার প্রিয় তারকা হয়তো নেশায় আসক্ত। আবার এই স্বপ্নের দুনিয়ার বাসিন্দাদের সম্পর্কে নানা রকম গসিপ শোনা যায়। দিনভর টানা শুটিং। স্টেজ পারফরম্যান্স। রাত পার্টি। এত এনার্জি কোথা থেকে পান তারকারা? সে প্রশ্নের উত্তর খুঁজতে গিয়েই বেরিয়ে পড়ে নেশার নানা রকম গল্প।

কে কে আছেন এই তালিকায়? আজ পর্যন্ত কাদের গোপন ক্যামেরায় ফাঁস হওয়া ছবি আপনি দেখেছেন? কোন কোন তারকাকে নিয়ে মাদকাসক্তির জল্পনা বেশি বলুন তো? 

না! সে সব নিয়ে প্রমাণ ছাড়া আলোচনা করাটা মুশকিল। কিন্তু বলিউডের এক তারকার রিয়েল লাইফেই মাদকাসক্তির ঘটনা রয়েছে। আর তা তিনি স্বীকার করেছেন নিজেই। তিনি হলেন দীপিকা (Deepika) পাড়ুকোন।

অবাক হলেন তো? অবাক তো হওয়ারই কথা! দীপিকা মাদকাসক্ত জানলে তাঁর অনুরাগীদের তো খারাপ লাগবেই। কিন্তু এখানেই রয়েছে টুইস্ট। আর সেটা আপনাকে জানতে হবে। কারণ পুরো সত্যিটা না জেনে কাউকে বিচার করা কি ঠিক বলুন?

 

View this post on Instagram

& you...my super drug!💝

A post shared by Deepika Padukone (@deepikapadukone) on

আসলে দীপিকার রিয়েল লাইফে ড্রাগ হলেন রণবীর (Ranveer) সিং। তাঁর স্বামী। রণবীরের একটি ছবি ইনস্টাগ্রামে শেয়ার করেছেন দীপিকা। যেখানে রণবীরের মুখ দেখা যাচ্ছে না। কিন্তু তিনি যে টিশার্ট পরে রয়েছেন, তার পিঠের ওপর লেখাটি স্পষ্ট। লেখা রয়েছে, লভ ইজ আ সুপার পাওয়ার। সেই ছবির ক্যাপশনেই দীপিকা লিখেছেন, 'অ্যান্ড ইউ.. মাই সুপার ড্রাগ'। এরপর থেকেই সোশ্যাল ওয়ালে মজা করে শুরু হয়েছে এই আলোচনা। দীপিকা সত্যিই ড্রাগ অ্যাডিক্ট! আর সেই ড্রাগের নাম হল রণবীর!

বিয়ের পর থেকে সোশ্যাল মিডিয়ায় পিডিএ-এর একটা চান্সও মিস করেন না দম্পতি। সদ্য এক বছরের বিবাহবার্ষিকী সেলিব্রেট করলেন তাঁরা। তিরুপতি এবং অমৃতরের স্বর্ণমন্দিরে গিয়ে সপরিবারে পুজো দিয়েছেন রণবীর-দীপিকা। শুধু অফস্ক্রিন নয়। অনস্ক্রিনেও একসঙ্গে কাজ করছেন তাঁরা। কপিল দেবের বায়োপিক এইট্রি থ্রি-তে একসঙ্গে অভিনয় করছেন। ফলে শুটিং হোক বা শুটিংয়ের বাইরে প্রেমে মজে রয়েছেন দু'জনে। তাই রণবীরকে নিজের ড্রাগ বলায় খুব একটা অত্যুক্তি বলে মনে করছেন না ইন্ডাস্ট্রির কোনও মহলই। তবে এই মজাটাকে আবার সিরিয়াসলি নেবেন না প্লিজ! এ নিছকই দাম্পত্য খুনসুটি! ফলে সেটা সেভাবেই গ্রহণ করুন।

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

এসে গেল #POPxoEverydayBeauty - POPxo-র স্কিন, বাথ, বডি এবং হেয়ার প্রোডাক্টস নিয়ে, যা ব্যবহার করা ১০০% সহজ, ব্যবহার করতে মজাও লাগবে আবার উপকারও পাবেন! এই নতুন লঞ্চ সেলিব্রেট করতে প্রি অর্ডারের উপর এখন পাবেন ২৫% ছাড়ও। সুতরাং দেরি না করে শিগগিরই ক্লিক করুন POPxo.com/beautyshop-এ এবার আপনার রোজকার বিউটি রুটিন POP আপ করুন এক ধাক্কায়..