মহিলাকেন্দ্রিক শর্ট ফিল্ম 'দেবী' দিয়ে ডিজিট্যাল ডেবিউ করছেন কাজল in Bengali | POPxo

ন' জন মহিলার লড়াইয়ের গল্প নিয়ে তৈরি 'দেবী' দিয়ে ডিজিট্যাল ডেবিউ করছেন কাজল, লুক সামনে এল

ন' জন মহিলার লড়াইয়ের গল্প নিয়ে তৈরি 'দেবী' দিয়ে ডিজিট্যাল ডেবিউ করছেন কাজল, লুক সামনে এল

হলিউডের ট্রেন্ড আজকাল এসে গিয়েছে বলিউডেও। যে ডিজিট্যাল মাধ্যমকে এককালে ছোট নজরে দেখতেন সকলে, এখন সেটিকে অভিনয়প্রতিভা বিচ্ছুরণের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ মাধ্যম হিসেবে ধরা হয়। আর তারকারাও লাইন দিয়ে সেখানে কাজ করে প্রমাণ করতে চান যে, সুযোগ পেলে তাঁরাও জাস্ট ফাটিয়ে দিতে পারেন। এই তালিকায় সেফ আলি খান থেকে শুরু করে ইমরান হাশমি, হালফিলের জাহ্নবী কপূর থেকে শুরু করে কিয়ারা আদবানি, অনেকেরই নাম আছে। এবার সেই তালিকায় নাম উঠতে চলেছে কাজলেরও (Kajol)। শর্ট ফিল্ম (short film) 'দেবী' দিয়ে ডিজিট্যাল ডেবিউ (digital debut) করতে চলেছেন তিনি। অবশ্য 'দেবী' (Devi) যে শুধু কাজলের ফিল্ম, তা নয়। এই ছবিতে মুখ্য ভূমিকায় আছেন ন' জন মহিলা। আর তাঁদের চরিত্রে অভিনয় করছেন শ্রুতি হসন, নেহা ধুপিয়া, নীনা কুলকার্নি, মুক্তা বার্ভে, সন্ধ্যা মাত্রে, রমা জোশী, শিবানী রঘুবংশী এবং যশস্বিনী দয়ামা।   

আরও পড়ুন: এখন অন্তত 'ধর্ষণ' শব্দটা নিয়ে প্রকাশ্যে আলোচনা হচ্ছে, সেটা ভাল: কাজল

দেবী-দিয়ে-ডিজিট্যাল-ডেবিউ-কাজলের
Instagram

নাম যখন দেবী, যখন বোঝাই যাচ্ছে যে, গল্পটি অতি অবশ্যই মহিলাকেন্দ্রিক। চরিত্রদের লুক থেকে এটাও স্পষ্ট যে, তাঁরা সমাজের বিভিন্ন স্তরের লোক, বিভিন্ন জাতি-ধর্মের লোক। সুতরাং, প্রত্যেকের জীবনের লড়াই-সমস্যা, সবই হবে আলাদা-আলাদা। প্রেস নোটে সেকথাই একবাক্যে জানিয়েছেন কাজল থেকে শুরু করে নীনা, সকলেই। কাজল বলেছেন, "আজকাল যেখানে লিঙ্গবৈষম্য, মহিলাদের উপর অত্যাচার বেড়েই চলেছে, সেখানে 'দেবী'র মতো ছবি করতে পেরে আমি সত্যিই খুব গর্বিত। এই ছবিতে আমার চরিত্রের নাম 'জ্যোতি।' দেখতে গেলে, আমি আর জ্যোতি একেবারেই সমাজের এক স্তর থেকে আসিনি, কিন্তু আমাদের দু'জনের মধ্যে কিছু অদ্ভুত মিল রয়েছে। আসলে আমরা দুজনেই তো মহিলা, কাজেই আমাদের গল্পে মিল থাকাটা খুবই স্বাভাবিক।" অন্যদিকে শ্রুতি হসন, যাঁরও এটি ডিজিট্যাল ডেবিউ, তিনিও উচ্ছ্বসিত দেবী নিয়ে, "এটি শুধু আমার ডিজিট্যাল ডেবিউ, তাই নয়। 'দেবী' আরও অনেক দিক থেকেই আমার জন্য স্পেশ্যাল। এই প্রথম কোনও অল-উইমেন ক্রু নিয়ে কাজ করলাম আমি। বেশি কিছু বলতে পারব না আমার চরিত্রটি সম্বন্ধে, কারণ, ফস করে ছবির শেষটা বেরিয়ে গেলে মজাটাই মাঠে মারা যাবে, তবে এটুকু বলব, দেবী একেবারে অন্যভাবে মেয়েদের কথা বলবে আপনাদের সামনে।" নেহা ধুপিয়া বলেছেন, তিনি এই ছবিটি করতে রাজি হয়েছিলেন শুধুমাত্র এটির বিষয়বস্তু দেখে। মহিলাদের উপর হওয়া অত্যাচারের কথা দেবী এত পরিষ্কার করে বলেছে যে, এইর স্ক্রিপ্ট শুনেই রাজি হয়ে গিয়েছিলেন তিনি।

এই ছবিটির প্রযোজক হলেন নীরঞ্জন আয়ার এবং রায়ান স্টিফেনের ইলেকট্রিক অ্যাপল এন্টারটেনমেন্ট। ছবির পরিচালনার দায়িত্বে রয়েছেন এক বাঙালি, প্রিয়ঙ্কা বন্দ্যোপাধ্যায়। 

আরও পড়ুন: ১১ বছর পরে জুটি বাঁধছেন কাজল-অজয়, সৌজন্যে 'তানাজি: দ্য আনসাং ওয়ারিয়র'

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

আমাদের এক্কেবারে নতুন POPxo Zodiac Collection মিস করবেন না যেন! এতে আছে নতুন সব নোটবুক, ফোন কভার এবং কফি মাগ, যেগুলো দারুণ ঝকঝকে তো বটেই, আর একেবারে আপনার কথা ভেবেই তৈরি করা হয়েছে। হুমম...আরও একটা এক্সাইটিং ব্যাপার হল, এখন আপনি পাবেন ২০% বাড়তি ছাড়ও। দেরি কীসের, এখনই POPxo.com/shopzodiac-এ যান আর আপনার এই বছরটা POPup করে ফেলুন!