বড় পর্দার মোহ ছেড়ে আবার ছোট পর্দায় ফিরছেন পার্নো, সঙ্গী হবেন ঋষি কৌশিক

বড় পর্দার মোহ ছেড়ে আবার ছোট পর্দায় ফিরছেন পার্নো, সঙ্গী হবেন ঋষি কৌশিক

এই, এই অ্যাদ্দিনে একটা ভাল কাজ করেছেন! ছোট পর্দায় ফিরে আসার সিদ্ধান্তটি এক্কেবারে যুগোপযোগী হয়েছে, তাতে কোনও সন্দেহ নেই। বেফালতু বড় পর্দায় পড়ে থেকে কী-ই বা হচ্ছিল? ওই কতগুলো পোস্টারের আঠা শুকোনোর আগে হল থেকে উঠে যাওয়ার মতো ছবিতে কাজ করে আর কয়েকটা ফোটোশুটে মুখ দেখিয়ে (serial) পার্নো মিত্র (Parno Mitra) খুব একটা কাজের কাজ তো আর কচ্ছিলেন না। তার চেয়ে আগে কী সুন্দর-সুন্দর সব টিভি ধারাবাহিকে  কাজ করেছেন। 'খেলা', 'মোহনা', 'বউ কথা কও', 'সময়', ছোট পর্দা দিয়েই আসলে খ্যাতি পেয়েছিলেন তিনি। কিন্তু তারপর ওই যা হয় আর কী। 'রঞ্জনা আমি আর আসব না'-তে যেই না অঞ্জন দত্ত তাঁকে নায়িকার ভূমিকায় কাস্ট করলেন, পার্নোও ভাবলেন, ব্যস, এটাই তাঁর আসল জায়গা। ছোট পর্দায় তো রোজ তাঁকে ফ্রি-তে দেখতে পায় লোকে। বড় পর্দায় টিকিট কেটে দেখতে না এলে কি আর মানসম্মান থাকে? 

কিন্তু এমনটা পার্নো ভাবলেও, দর্শক ভাবল না। তাঁর অভিনয় মন্দ ছিল, তা নয়। বরং ক্যামোরার সামনে যথেষ্ট সাবলীল তিনি। তাঁকে দেখতে মোটামুটি, নায়িকাসুলভ গ্ল্যামার নেই, তা-ও বলা যাবে না। কিন্তু কোথাও যেন ব্যাটে-বলে এক হল না আর পার্নো এখন পর্যন্ত বড় পর্দার নামী হিরোইন হয়ে উঠতে পারলেন না। মাঝে রাজনীতিতে যোগ দিয়ে শিরোনামে আসার একটা প্রচেষ্টা করেছিলেন বটে, কিন্তু সেটার গায়েও এখনও খুব একটা গত্তি লেগে ওঠেনি। এদিকে পাশে মিমি একটা মাত্র সিরিয়ালে অভিনয় করে ড্যাংড্যাং করে প্রথমে নায়িকা, তারপর সাংসদও হয়ে গেলেন। অথচ পার্নোর সেই সৌভাগ্য হল না। যাক গে, তাই তিনি ঠিক করেছেন যে, আবার ছোট পর্দাতেই ফিরে যাবেন। আর এই কাজে তাঁর সঙ্গী হচ্ছেন ঋষি কৌশিক ও লীনা গঙ্গোপাধ্যায়-শৈবাল বন্দ্যোপাধ্যায়।

Instagram

এবার আসি ঋষি কৌশিকের (Rishi Kaushik) প্রসঙ্গে। তিনি হচ্ছেন ছোট পর্দার আমির খান। মাঝে-মাঝে উধাও হয়ে যান পর্দা থেকে, আবার ফিরে আসেন ধমাকা দিয়ে। স্টার জলসায় পরপর দু'টি সুপারহিট ধারাবাহিক এখানে আকাশ নীল ও কুসুমদোলা-য় অভিনয় করে একটু ব্রেক নিচ্ছিলেন ঋষি। আবার ফিরে আসছেন সেই চ্যানেলেই, এবার পার্নোকে সঙ্গে নিয়ে। 

আগে জি বাংলাতেই বেশি সাফল্য পেলেও, সেকেন্ড ইনিংসের জন্য পার্নো হেছে নিয়েছেন স্টার জলসাকেই (Star Jalsha)। কেন, তা অবশ্য জানা নেই। কারণ টিআরপি দৌড়ে এখন জি বাংলার চেয়ে অনেকটাই পিছিয়ে আছে স্টার। সেক্ষেত্রে কামব্যাক করার জন্য জি বাংলাই তো বেশি ভাল ছিল। আসলে পার্নো বোধ হয় পরিচালক জুটির উপরেই বেশি ভরসা করছেন। এর আগে বিক্রম চট্টোপাধ্যায় থেকে শুরু করে কনীনিকা বন্দোপাধ্যায় পর্যন্ত অনেকেরই দ্বিতীয় ইনিংস সফলভাবে এগিয়ে নিয়ে গিয়েছেন লীনা-শৈবাল জুটি। পার্নোর সিরিয়ালের গল্প এগোবে একটি গ্রামের মেয়ের শহরে এসে এগিয়ে যাওয়ার লড়াই নিয়ে। সম্ভবত এক সাংবাদিকের চরিত্র হবে সেটি। 

অবশ্য যাঁরা টেলি সিরিয়ালের নিয়মিত দর্শক তাঁরা জানেন, প্রথমে সব গল্প আলাদা-আলাদা চরিত্র, যেমন, মেয়ে ফুটবলার, উকিল, গায়িকা ইত্যাদি নিয়ে শুরু হয়, তারপর তা দাঁড়ায় সেই শাশুড়ি-বউমার চর্বিতচর্বণে...

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

এসে গেল #POPxoEverydayBeauty - POPxo-র স্কিন, বাথ, বডি এবং হেয়ার প্রোডাক্টস নিয়ে, যা ব্যবহার করা ১০০% সহজ, ব্যবহার করতে মজাও লাগবে আবার উপকারও পাবেন! এই নতুন লঞ্চ সেলিব্রেট করতে প্রি অর্ডারের উপর এখন পাবেন ২৫% ছাড়ও। সুতরাং দেরি না করে শিগগিরই ক্লিক করুন POPxo.com/beautyshop-এ এবার আপনার রোজকার বিউটি রুটিন POP আপ করুন এক ধাক্কায়..