সঞ্জয় লীলা বনসালীর ছবিতে শাহরুখ-সলমন একসঙ্গে কাজ করতে রাজি হয়েছিলেন, কিন্তু হল ছন্দপতন...

সঞ্জয় লীলা বনসালীর ছবিতে শাহরুখ-সলমন একসঙ্গে কাজ করতে রাজি হয়েছিলেন, কিন্তু হল ছন্দপতন...

যাক, অ্যাদ্দিনে রাখি গুলজারের বক্তব্যকে কেউ গুরুত্ব দিল! সেই কবে থেকে বেচারি বলে যাচ্ছেন মেরে করণ-অর্জুন আয়েঙ্গে, কিন্তু কেউ কথা কানেই তোলে না। অবশেষে সঞ্জয় লীলা বনসালী (Sanjay Leela Bhansali) গুরুত্ব দিয়ে শুনলেন। অবশ্য তাঁর জীবনে বরাবরই মায়ের গুরুত্ব অপরিসীম। নিজের নামের মধ্যেই তিনি মায়ের নাম যোগ করে নিয়েছেন, লীলা, তা হলেই বুঝুন। তিনি রাখি মায়ের কথাকে গুরুত্ব দেবেন না তো কে দেবেন শুনি? তাই সঞ্জয়বাবু ঠিক করেছিলেনন যে, সলমন (Salman Khan) আর শাহরুখ (Shah Rukh Khan), মানে করণ আর অর্জুনকে নিয়ে তিনি আবার ছবি করবেন। তাঁদের একসঙ্গে নিয়ে আসবেন।

শুধু রাখি মায়ের নয়, এই ইচ্ছা ভাই আপামর ভারতবাসীর। আমরা সক্কলেই চাই দুই খান আবার একসঙ্গে পর্দায় দেখা দিয়ে যত কপূর-অন্য খানদের রেকর্ড একেবারে খানখান করে দিন! এতদিনে বনসালী সাহেবের কল্যাণে সেই ইচ্ছে প্রায় পূর্ণও হয়ে গিয়েছিল। শাহরুখ-সলমনকে একসঙ্গে কাজ করতে রাজিও করে ফেলেছিলেন তিনি। এই দুই হেভিওয়েট অভিনেতাই এর আগে সঞ্জয়ের সঙ্গে দুটি গাবদা হিট দিয়েছেন। প্রথমজন হম দিল দে চুকে সনম এবং পরেরজন দেবদাস। তাই একসঙ্গে যদি পর্দায় দেখা দিতেই হয়, তা হলে বনসালীই ভাল, এই ভেবেই তাঁরা বোধ হয় রাজি হয়ে গিয়েছিলেন। আরপ সত্যি কথা বলতে গেলে, বনসালী ভাই এখন রাজা মিডাস, তিনি যে ছবি করেন, তাই ভারতবাসী হামলে পড়ে দেখে। তাঁর ছবিতে কাজ করতে গিয়ে রণবীর-দীপিকা প্রেমে পড়ে গিয়ে বিয়ে পর্যন্ত করে ফেললেন...এহেন বনসালীই তো এই জুটিকে নিয়ে ধমাকা করতে পারবেন। 

Instagram

সবকিছু ঠিকঠাক হয়ে স্ক্রিপ্ট নিয়ে কাজ করলেন বনসালী। দুই খান একসঙ্গে পৌঁছেও গেলেন সেই স্ক্রিপ্ট রিডিং সেশনে। কিন্তু তারপরই বাধল ঝামেলা। চিত্রনাট্যটি নাকি একেবারেই পছন্দ হয়নি সলমনের। তিনি সেকথা স্পষ্ট জানিয়ে দেন সঞ্জয়কে। ছবির গল্প অনেকটা সেই সুভাষ ঘাইয়ের সওদাগর ছবির মতো ছিল। সেখানে দিলীপ-রাজকুমার বন্ধু থেকে শত্রু হয়ে গিয়েছিলেন, এখানে শাহরুখ-সলমন হতেন। ছবির প্রথম হাফটা নাকি সকলেরই ভারী ভাল লেগেছিল। কিন্তু গন্ডগোল বাধে দ্বিতীয় হাফে গিয়ে। সেটা নাকি আর সলমন কিংবা সঞ্জয় কারও অতটা ভাল লাগেনি। তাই বাধ্য হয়ে সঞ্জয় জানান যে, তিনি আরও কিছুদিন সময় চান। তারপর সেকেন্ড হাফটা আরও তাগড়া করে তাঁরা আবার বসবেন...

কী জ্বালা রে বাবা, মেনস্ট্রিম বলিউড ছবিতে আবার কবে স্ক্রিপ্ট নিয়ে লোকে মাথা ঘামিয়েছে শুনি? আর সঞ্জয়ের ছবি লোকে সেলুলয়েডে বোনা গল্প দেখবে বলে হলে যাওয়া অনেকদিন ছেড়ে দিয়েছে। আমরা যাই, চোখধাঁধানো স্টারকাস্ট আর সেটিংয়ের কামাল দেখব বলে। প্লাস এই ছবিতে তো খানভাই আর ভাইজান একসঙ্গে আবির্ভূত হতেন। ছবি তো হলে যাওয়ার আগেই হিট হয়ে যেত। কিন্তু আমাদের কথা তো আর কেউ কানে তোলে না!  তাই তাঁরাও তোলেননি এবং ২০২০ সালের মাঝামাঝি যে ছবির শুটিং শুরু হওয়ার কথা ছিল, সেই ছবি এখন বিশ বাঁও জলে...

উফ, রাখিকে না জানি আর কতদিন বলতে হবে, মেরে করণ অর্জুন আয়েঙ্গে...বেচারি!

এই দশকটি আমরা শেষ করতে চলেছি #POPxoLucky2020-র মাধ্যমে। যেখানে আপনারা প্রতিদিন পাবেন নতুন-নতুন সারপ্রাইজ। আমাদের এক্কেবারে নতুন POPxo Zodiac Collection মিস করবেন না যেন! এতে আছে নতুন সব নোটবুক, ফোন কভার এবং কফি মাগ, যেগুলো দারুণ ঝকঝকে তো বটেই, আর একেবারে আপনার কথা ভেবেই তৈরি করা হয়েছে। হুমম...আরও একটা এক্সাইটিং ব্যাপার হল, এখন আপনি পাবেন ২০% বাড়তি ছাড়ও। দেরি কীসের, এখনই POPxo.com/shopzodiac-এ যান আর আপনার আগামী বছরটা POPup করে ফেলুন!