রাজ কপূরের মেয়ে তথা শ্বেতার শাশুড়ি ঋতু নন্দার জীবনাবসান

রাজ কপূরের মেয়ে তথা শ্বেতার শাশুড়ি ঋতু নন্দার জীবনাবসান

প্রয়াত হলেন অমিতাভ বচ্চনের মেয়ে অর্থাৎ শ্বেতা (shweta) বচ্চনের শাশুড়ি ঋতু নন্দা (Ritu Nanda)। সোমবার রাতে নয়াদিল্লিতে জীবনাবসান হয় তাঁর। মৃত্যুকালে বয়স হয়েছিল ৭১ বছর। 

সোমবার রাত ১টা বেজে ১৫ মিনিট নাগাদ ঋতুর প্রয়াণ হয়। খবর পেয়েই দিল্লির উদ্দেশ্যে রওনা দেন অমিতাভ (Amitabh)। ঋতুর প্রয়াণের খবর সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করেন তিনি। 

রাজ কপূরের (Raj) বড় মেয়ে ছিলেন ঋতু। অর্থাৎ ঋষি, রণধীর এবং রাজীব কপূর তাঁর ভাই। রণধীর এদিন সংবাদমাধ্যমে বলেন, "ঋতু আমাদের ছেড়ে চলে গিয়েছে। ও ক্যানসারে ভুগছিল। আমরা দিল্লিতেই রয়েছি। আজই শেষকৃত্য হবে।"

 

বাবা, মা রাজ এবং কৃষ্ণার সঙ্গে ঋতু। ছবি ইনস্টাগ্রামের সৌজন্যে।

শোনা যায় কপূর পরিবারে ঋষির স্ত্রী অর্থাৎ নীতুর সঙ্গে বন্ধুর মতো সম্পর্ক ছিল ঋতুর। এদিন ঋতুর সঙ্গে নীতু নিজের একটি ছবি পোস্ট করে তাঁর আত্মার শান্তি কামনা করেছেন। ঋষি, নীতুর মেয়ে ঋদ্ধিমা লিখেছেন, তোমার মতো আর কেউ হবে না। 

ঋতুর জন্ম ১৯৪৮-এ। জীবনবিমা অর্থাৎ লাইফ ইনসিওরেন্সের কাজের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন তিনি। শিল্পপতি রাজন নন্দাকে বিয়ে করেন তিনি। তাঁদের সন্তান নিখিলের সঙ্গে বিয়ে হয় শ্বেতার।

 

কপূর ভাই-বোনেরা। ছবি ইনস্টাগ্রামের সৌজন্যে।

শিল্পপতি স্বামীর ছায়ায় ঢাকা পড়েননি ঋতু। বরং নিজস্ব কেরিয়ার তৈরি করেছিলেন। জীবনবিমার কাজে তুমুল সাফল্য এসেছিল। এমনকি গিনেস বুক অব ওয়ার্ল্ড রেকর্ডে নাম ছিল তাঁর। একদিনে ১৭ হাজার পেনশন প্ল্যান বিক্রি করে রেকর্ড তৈরি করেছিলেন। বাবাকে নিয়ে একটি বইও লিখেছিলেন তিনি। এক এবং একমাত্র শো-ম্যান। 

কেরিয়ারের বাইরে বাকি সময়টা পরিবারের সঙ্গে কাটাতে পছন্দ করতেন ঋতু। নাতনি নব্য নভেলি এবং নাতি অগস্ত্যর সঙ্গে তাঁর বন্ধুর মতো সম্পর্ক ছিল। শ্বেতার বাবা, মা অর্থাৎ অমিতাভ-জয়ার সঙ্গে পারিবারিক বন্ধনের আগেই বন্ধুত্বের সম্পর্ক ছিল। ঐশ্বর্যাকে তিনি নিজের মেয়ের মতোই স্নেহ করতেন। কপূরদের যে কোনও পারিবারিক অনুষ্ঠানে মধ্যমণি ছিলেন ঋতু। পরিবারের নয়া প্রজন্মের কাছে তিনি ছিলেন সাফল্যের উদাহরণ। 

 

বিয়ের দিন বাবা ও রাজনের সঙ্গে ঋতু। ছবি ইনস্টাগ্রামের সৌজন্যে।

শুধু তাই নয়। পরিবারের কারও বিপদে সব সময় পাশে থাকতেন ঋতু। আধুনিক মনের মানুষ ছিলেন। তাই নতুন প্রজন্মের চিন্তা-ভাবনার সঙ্গে নিজেকে মানিয়ে নিতে কোনও অসুবিধে হয়নি। শোনা যায়, পারিবারিক গেট টুগেদারে রণবীরের বিশেষ বান্ধবী আলিয়া ভট্টের প্রতিও নাকি তাঁর স্নেহ ছিল আলাদা রকমের। কারণ নীতু ছিলেন ঋতুর খুব কাছের মানুষ। সেই সূত্রেই আলিয়াকেও আপন করে নিয়েছিলেন। অন্যদিকে বচ্চন পরিবাবের সঙ্গেও নিয়মিত যোগাযোগ রাখতেন। শোনা যায় কোনও গুরুতর সমস্যায় অনেক সময় ঋতুর কাছেও পরামর্শ নিয়েছেন অমিতাভ। তাঁর চলে যাওয়ায় শোক জ্ঞাপন করেছেন বলিউডের বিশিষ্টরা। শোকের আবহে কপূর পরিবারের পাশে থাকার বার্তা দিয়েছেন সকলে।     

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

আমাদের এক্কেবারে নতুন POPxo Zodiac Collection মিস করবেন না যেন! এতে আছে নতুন সব নোটবুক, ফোন কভার এবং কফি মাগ, যেগুলো দারুণ ঝকঝকে তো বটেই, আর একেবারে আপনার কথা ভেবেই তৈরি করা হয়েছে। হুমম...আরও একটা এক্সাইটিং ব্যাপার হল, এখন আপনি পাবেন ২০% বাড়তি ছাড়ও। দেরি কীসের, এখনই POPxo.com/shopzodiac-এ যান আর আপনার এই বছরটা POPup করে ফেলুন!