এবার ভূতের বায়োগ্রাফিতে দেখা দিচ্ছেন জয়া আহসান, সৌজন্য়ে সৌকর্য ঘোষালের নতুন ছবি 'ভূতপরী'

এবার ভূতের বায়োগ্রাফিতে দেখা দিচ্ছেন জয়া আহসান, সৌজন্য়ে সৌকর্য ঘোষালের নতুন ছবি 'ভূতপরী'

ভূত (Ghost) দেখেছেন? সোমবার, সপ্তাহের প্রথম কাজের দিন। আর তখনই এমন অদ্ভুত প্রশ্ন কেন, নিশ্চয়ই ভাবছেন। সে উত্তর দেওয়া হবেই। আগে বলুন না, আপনার এক্সপেরিয়েন্সটা। সত্যি দেখেছেন, ভূত?

প্রশ্নের উত্তরে হয়তো লম্বা লিস্ট হাজির হবে। ভূত না দেখলেও গা ছমছমে অভিজ্ঞতা হয়তো হয়েছে আপনার। আবার কেউ-কেউ হয়তো অশরীরীদের তেমন পাত্তা দিতেই রাজি নন। আবার কেউ হয়তো বিশ্বাস-অবিশ্বাসের দোলাচলে ভোগেন। সে আপনি যে গোত্রেরই হোন না কেন, ভূত নিয়ে একটা বেসিক ইন্টারেস্ট প্রায় সকলেরই থাকে। সেই ভূতেরই যদি জীবনী হয়, কেমন হবে বলুন তো?

সেটাই হবে এবার। সৌজন্যে পরিচালক সৌকর্য ঘোষাল (Soukarya Ghosal)। তাঁর নতুন ছবি 'ভূতপরী' (Bhootpari) আসলে নাকি এক ভূতের বায়োগ্রাফি। এই যে ছবিতে দেখছেন লাল শাড়ি, সোনার গয়না, এলোচুলের এক বউ... এই নাকি ভূত। ছবিতে দেখে নিশ্চয়ই চিনতে পারছেন, ইনি জয়া (Jaya) আহসান। তাঁকেই এবার পর্দায় ভূত হিসেবে দেখার পালা।

'ভূতপরী'র গল্পটা ঠিক কেমন? আসলে এটা এক ভূতের গল্প। যে মারা গিয়েছেন ১৯৪৭ সালে। কিন্তু ২০১৯-এ এসে সে বুঝতে পারেন, তার মৃত্যুটা একেবারেই স্বাভাবিক ছিল না। এমনকী, সে এ-ও আবিষ্কার করে, খুন হতে হয়েছিল তাকে। তবে ২০১৯-এ সেই গোপন তথ্য ভূতটি একা খুঁজে বের করতে পারে না। তার সঙ্গে দেখা হয় এক ছোট্ট ছেলের। ছেলেটি ভয় দেখালেও ভয় না পেয়ে ভূতের কাণ্ডকারখানা দেখে মজা পায় সে। আর তাতেই ভূত যায় রেগে! এভাবেই দু'জনের মধ্যে বন্ধুত্ব তৈরি হয়। তার সাহায্যেই নিজের মৃত্যু রহস্য খুঁজে পায় ভূত। তারপর দু'জনে মিলে সেই খুনের বদলা নেয়। পরিচালকের স্পষ্ট ইঙ্গিত, এই ছবিতে সময় খুব গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নেবে। 

 

আজ থেকে শুরু হল এই ছবির শুটিং। বাঙালি ভূতকে পর্দায় ধরতে চেয়েছেন সৌকর্য। চেহারায় লক্ষ্মীমন্ত ছাপ প্রয়োজন ছিল। সে কারণেই জয়াকে কাস্ট করেছেন। আর জয়ার মতো অভিনেত্রীর সঙ্গে তাঁর কাজ করার ইচ্ছেও ছিল অনেক দিনের। ছবিতে ছোট ছেলেটির ভূমিকায় অভিনয় করবে বিষান্তক মুখোপাধ্যায়। এ ছাড়া চোরের ভূমিকায় রয়েছেন ঋত্বিক চক্রবর্তী। ছোট ছেলেটির মায়ের ভূমিকায় দেখা যাবে সুদীপ্তা চক্রবর্তীর অভিনয়। এক সাধুর ভূমিকায় রয়েছেন শান্তিলাল মুখোপাধ্যায়। 

'ভূতপরী' আদতে হরর ফ্যান্টাসি। ভূতের গল্প সকলেই ভালবাসেন। তাই ছোট, বড় সকলেরই এই ছবি। ক্যামেরার দায়িত্ব অলোক মাইতির। সম্পাদনা করবেন অর্ঘ্যকমল মিত্র। বর্ধমান, সিউড়ি এবং কলকাতা মিলিয়ে হবে শুটিং। প্রযোজনার দায়িত্বে সুরিন্দর ফিল্মসের তরফে রয়েছেন কোয়েল মল্লিক। সৌকর্যর 'রেনবো জেলি' ভাল লেগেছিল দর্শকদের বড় অংশের। 'রক্ত রহস্য'-এর শুটিংও শেষ। এবার ভূতকে নিয়ে শুরু নতুন জার্নি। 

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

আপনি যদি রংচঙে, মিষ্টি জিনিস কিনতে পছন্দ করেন, তা হলে POPxo Shop-এর কালেকশনে ঢুঁ মারুন। এখানে পাবেন মজার-মজার সব কফি মগ, মোবাইল কভার, কুশন, ল্যাপটপ স্লিভ ও আরও অনেক কিছু!