Advertisement

ওয়েলনেস

জানেন কি, নুন-জল দিয়ে গার্গল করলে গলা খুসখুস তো কমেই, দূর হয় মুখের দুর্গন্ধও!

popadminpopadmin  |  Jun 4, 2019
জানেন কি, নুন-জল দিয়ে গার্গল করলে গলা খুসখুস তো কমেই, দূর হয় মুখের দুর্গন্ধও!

চাঁদিফাটা গরমের পর যেই না আষাঢ়স্য প্রথম দিবসে দু ফোঁটা বৃষ্টি পড়বে, অমনই দেখবেন গলা খুসখুস শুরু হয়েছে! বৃষ্টিতে ভিজে দু দণ্ড ঠান্ডা হবেন কী, আগে ছুটতে হবে গ্লাসে নুন জল (salt water) নিয়ে, গার্গল করতে! চটজলদি উপকার পেতে এই গার্গলের (gargle) জুড়ি মেলা ভার! তবে অনেকেই হয়তো জানেন না যে, নুন জলে নিয়মিত গার্গল করলে শুধু গলার ব্যথা কমে না, সেই সঙ্গে আরও অনেক উপকার পাওয়া যায়। বিশ্বাস না হলে মিলিয়ে নিন।

নুন জলে গার্গলের উপকার

১. pH লেভেল ঠিক থাকে

গলায় ঘাপটি মেরে বসে থাকা ক্ষতিকর ব্যাকটেরিয়াগুলির কারণে শরীরে অ্যাসিডের মাত্রা বাড়তে শুরু করে, যার প্রভাবে pH Level বিগড়ে যায়। ফলে শরীরের উপর খারাপ প্রভাব পড়ে। কিন্তু এই সবকিছুই আটকানো সম্ভব, যদি নিয়মিত নুন জল দিয়ে গার্গল করা হয়। এমনটা করলে অ্যাসিডের প্রভাব কমতে থাকে। ফলে পিএইচ ব্যালেন্স ঠিক থাকে, যে কারণে গলায় উপকারী ব্যাকটেরিয়ার সংখ্যা বাড়তে শুরু করে। ফলে ক্ষতিকর ব্যাকটেরিয়ার পক্ষে শরীরের কোনও ক্ষতি করা আর সম্ভব হয়ে ওঠে না।

২. রেসপিরেটরি ট্রাক্টে সংক্রমণ হওয়ার আশঙ্কা কমে

দিনে তিনবার নুন জল দিয়ে Gargle করলেই ফল মিলবে হাতে-নাতে। এক্ষেত্রে রেসপিরেটরি ট্রাক্টে কোনও ধরনের সংক্রমণ হওয়ার আশঙ্কা কমবে প্রায় ৪০ শতাংশ। সঙ্গে নানা ধরনের ক্ষতিকর জীবাণুর কারণ ফুসফুসের কোনও ক্ষতি হওয়ার আশঙ্কাও আর থাকবে না।

৩. Tonsillitis-এর প্রকোপ কমবে

মাঝে মাঝেই কি টনসিলের যন্ত্রণায় কষ্ট পান? তা হলে নিয়মিত নুন জল দিয়ে গার্গল করতে ভুলবেন না যেন! টনসিলের যন্ত্রণা কখন হয় জানেন? ব্যাকটেরিয়া অথবা ভাইরাল ইনফেকশনের কারণে টনসিলের ভিতরে প্রদাহের মাত্রা বেড়ে গেলেই যন্ত্রণা শুরু হয়। নুন জলে গার্গল করলে এই সব জীবাণুরা মারা পড়ে। ফলে বারে বারে Tonsillitis-এর মতো সমস্যায় আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা কমে।

আরও পড়ুন: মোটা নয়, রোগা হন নিয়মিত কলা খেয়ে!

৪. মুখের দুর্গন্ধ দূর হয়

এমন সমস্যা মূলত দুটি কারণে হয়ে থাকে। এক তো মুখ গহ্বরে যখন ব্যাকটেরিয়ার সংখ্যা বৃদ্ধি পায়, তখন যেমন বাজে গন্ধ বের হয়, তেমনই pH level বিগড়ে গেলেও একই ধরনের সমস্যা মাথা চাড়া দিয়ে ওঠে। এই দুই ক্ষেত্রেই নুন জল দারুণ কাজে আসে। নুন জলে গার্গল করলে ক্ষতিকর ব্যাকটেরিয়াগুলি মারা পড়ে। সঙ্গে পিএইচ লেভেলও ঠিক থাকে। ফলে মুখ থেকে বদ গন্ধ বেরনোর আশঙ্কা আর থাকে না।

৫. দাঁতের স্বাস্থ্যের উন্নতি ঘটে

নিয়মিত গার্গল করলে দাঁতের ক্ষয় আটকে যায়। কারণ, নুনে রয়েছে বেশ কিছু উপকারী মিনারেল, যা এক্ষেত্রে বিশেষ ভূমিকা পালন করে। সেই সঙ্গে দাঁতের একেবারে উপরের স্তর, মানে Enamel-এর যাতে কোনও ক্ষতি না হয়, সেদিকেও নজর রাখে। ফলে নানা কারণে দাঁতের ক্ষতি হওয়ার আশঙ্কা প্রায় থাকে না বললেই চলে।

আরও পড়ুন: অতিরিক্ত ঘাম নিয়ন্ত্রণ করুন এই পাঁচটি ঘরোয়া উপায়ে

নুন জল তৈরির পদ্ধতি

১. এক কাপ গরম জলে হাফ চামচ সৈন্ধব লবণ মিশিয়ে ততক্ষণ অপেক্ষা করুন, যতক্ষণ না নুনটা ঠিক মতো গুলে যায়।

২. জলটা হলকা ঠান্ডা হলে শুরু করুন গার্গল। এক-একবারে কম করে ৩০ সেকেন্ড গার্গল করার চেষ্টা করবেন, তাতে উপকার মিলবে দ্রুত। আর গলায় যদি খুব ব্যথা থাকে, তা হলে চার ঘণ্টা অন্তর-অন্তর গার্গল করলেই কষ্ট কমে যাবে।

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

আপনি যদি রংচঙে, মিষ্টি জিনিস কিনতে পছন্দ করেন, তা হলে POPxo Shop-এর কালেকশনে ঢুঁ মারুন। এখানে পাবেন মজার-মজার সব কফি মগ, মোবাইল কভার, কুশন, ল্যাপটপ স্লিভ ও আরও অনেক কিছু!